সরকার মেগা প্রজেক্টের নামে মেগা লুট করছে: ফখরুল

  যুগান্তর রিপোর্ট ০১ মে ২০১৯, ১৪:২৪ | অনলাইন সংস্করণ

সরকার মেগা প্রজেক্টের নামে মেগা লুট করছে: ফখরুল
ফাইল ছবি

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, সরকার মানুষের পকেট কেটে দুর্নীতি করছে। তারা মেগা প্রজেক্টের নামে মেগা লুট করছে। এভাবে নিজেদের সম্পদের পাহাড় গড়ে তুলেছে। কাজেই তাদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে।

বুধবার সকাল সাড়ে ১০টায় রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে জাতীয়তাবাদী শ্রমিক দলের শ্রমিক র‍্যালি উদ্বোধনের সময় তিনি এসব কথা বলেন।

ফখরুল বলেন, আজ শ্রমিকরা অধিকার হারিয়েছেন। এই মে দিবস অধিকার আদায়ের দিন। এই দিবসকে সামনে রেখে আমাদের ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।

‌‘সরকার একদিকে চুরি করে ভোটাধিকার লুট করেছে, অন্যদিকে ভাতের অধিকার হরণ করছে। কাজেই বেঁচে থাকতে হলে শ্রমিক-জনতার ঐক্য হতে হবে। অধিকার আদায়ে আন্দোলন করতে হবে।’

বিএনপি মহাসচিব বলেন, দ্রব্যমূল্য প্রতিনিয়ত বৃদ্ধি পাচ্ছে। বাসা ভাড়া এমনকি বিদ্যুতের দাম বাড়ছে। সরকার নিজের দুর্নীতি বৈধ করতে এসব পণ্যের দাম বাড়িয়ে দিচ্ছে। তারা একদিকে শেয়ার মার্কেট লুট করছে, ব্যাংক লুট করছে, অন্যদিকে মেগা প্রজেক্টের নামে মেগা লুট করছে।

‘আজকে শ্রমজীবী মানুষের কাছ থেকে টাকা কেটে নেয়া হয়। সেই টাকা দিয়ে তারা দুর্নীতির পদ্মাসেতু নির্মাণ করে, কর্ণফুলী টানেল নির্মাণ করে, যেগুলো সম্পূর্ণ অপ্রয়োজনীয়।’

তিনি বলেন, আজ আপনারা যারা এই মে দিবস পালন করছেন, আপনাদের সেই অধিকার সম্পর্কে সচেতন হতে হবে। আজকে গার্মেন্টস ইন্ডাস্ট্রি ও রেমিটেন্সের আয় দিয়ে বাংলাদেশ চলছে। অথচ তারা যে টাকাগুলো আয় করছে, সেই টাকা সরকার দুর্নীতি করে নষ্ট করছে।

পরে মির্জা ফখরুল বিএনপি চেয়ারপারসন কারাবন্দি খালেদা জিয়ার মুক্তি দাবি করে শ্রমিক র‍্যালির উদ্বোধন করেন।

শ্রমিক দলের সভাপতি আনোয়ার হোসেইনের সভাপতিত্বে এতে আরও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী, শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক নুরুল ইসলাম খান নাসিম প্রমুখ।

ঘটনাপ্রবাহ : কারাগারে খালেদা জিয়া

আরও
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×