কামলা দেয়ার নামে ক্ষমতাসীনদের ফটোসেশন চলছে: মেনন

  যুগান্তর রিপোর্ট ০১ জুন ২০১৯, ১৮:২৭ | অনলাইন সংস্করণ

রাশেদ খান মেনন
রাশেদ খান মেনন। ফাইল ছবি

ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন বলেছেন, কামলা দেয়ার নামে ক্ষমতাসীনদের ফটোসেশন চলছে। কৃষক ধান কাটার লোক চায় না, ধানের লাভজনক মূল্য চায়।

শনিবার জাতীয় কৃষক সমিতি ও ক্ষেতমজুর ইউনিয়নের উদ্যোগে অনুষ্ঠিতব্য ১৫ জুনের কৃষক- ক্ষেতমজুর কনভেনশনের সংগঠকদের উদ্দেশে তিনি এ কথা বলেন।

মেনন বলেন, বিদ্যুৎ, মেট্রোরেল, বন্দর নির্মাণের মেগা-প্রকল্পের মতো কৃষিপণ্য গুদামজাতকরণের জন্য কৃষিক্ষেত্রেও প্রতি ইউনিয়নে সাইলো নির্মাণের মেগা-প্রকল্প এই বাজেটেই নিতে হবে।

তিনি বলেন, কৃষক-ক্ষেতমজুর সংগঠনের শক্তিহীনতার কারণে সব সরকারই কৃষক-ক্ষেতমজুদের তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য করতে পারে। তাদের নিয়ে প্রহসন করতেও তারা কম যায় না। কামলা দেয়ার নামে ক্ষমতাসীনদের ফটোসেশন তার প্রমাণ।

কৃষক ধান কাটার লোক চায় না, ধানের লাভজনক মূল্য চায়। তার বদলে মন্ত্রী, কর্তাব্যক্তিরা কামলার দাম বেশি হওয়ার আজগুবি দোষ খুঁজে পেয়েছেন।

ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি বলেন, কৃষক-ক্ষেতমজুরকে পরস্পরের মুখোমুখি দাঁড় করাচ্ছেন। এই ধান কাটা ক্ষেতমজুর বছরে ছয়মাস কাজ না পেয়ে দিন কাটান। শহরে এসে রিকশা চালান, ইটের ভাটায় কাজ করে কিছু উপার্জন করে জীবন বাঁচান। কৃষককে নিয়ে এ ধরনের প্রহসনের খেলা বন্ধ করতে হবে।

এসব প্রহসন বন্ধে আন্দোলন ও সংগঠন গড়ে তুলতে হবে। কৃষক-ক্ষেতমজুর কনভেনশন সেই লক্ষ্যে কার্যকর ব্যবস্থা নেবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।

মেনন বলেন, দেশের জনসংখ্যার বৃহদাংশ কৃষকের স্বার্থ রক্ষার্থে সরকার যদি কার্যকর ব্যবস্থা না নেয় তাহলে কৃষক কেবল ক্ষেতেই আগুন দেবে না, ভারতের কৃষকের মতো মৃত্যুর পথ বেছে নেবে।

ঘটনাপ্রবাহ : ধানের ন্যায্য মূল্য দাবিতে আন্দোলন

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×