যারা লুটেপুটে খেয়েছে তারাই এখন নসিয়ত করবে: পরিকল্পনামন্ত্রী

প্রকাশ : ২৩ জুন ২০১৯, ১৬:০১ | অনলাইন সংস্করণ

  যুগান্তর রিপোর্ট

পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান

পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান বলেছেন, ‘বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো (বিবিএস) কোনো তথ্য বাড়িয়ে দেখায় না।  যারা এসব তথ্য উপাত্তে সন্দেহ করে, তারা সেই সন্দেহ নিয়ে থাকুক। এতে আমাদের কোনো আপত্তি বা বিবাদ নেই। আমরা বেশিরভাগ মানুষ বিশ্বাস করি বাংলাদেশ পারবে এবং সে লক্ষ্যেই এগিয়ে যাচ্ছে। ’

দেশের দারিদ্র্যের শিলাখণ্ডে ভাঙ্গন শুরু হয়ে গেছে বলেও মন্তব্য করেন পরিকল্পনামন্ত্রী।

রোববার রাজধানীর হোটেল প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁওয়ে বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো আয়োজিত ‘এনএসডিএস ইম্প্লেমেন্টেশন সাপোর্ট প্রজেক্ট’ শীর্ষক দুই দিনব্যাপী কর্মশালার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে পরিকল্পনা মন্ত্রী পরিসংখ্যান ব্যুরোর কর্মকর্তাদের নির্দেশ দিয়ে বলেন, ‘যারা লুটেপুটে খেয়েছে তারাই এখন নসিয়ত করবে। আমাদের সত্যবাদী হয়ে কাজ করতে হবে। তাই কোনো ফিগার বাড়িয়ে বলবেন না, যা আছে তাই বলবেন। কেউ যেন বলতে না পারে ডাটা ইঞ্জিনিয়ারিং করা হয়েছে। ’

কর্মকর্তাদের সামনে এ বিষয়ে একটি উদাহরণও রাখেন তিনি।

তিনি বলেন, দেশের মাথাপিছু আয় বিষয়ে একটু বাড়িয়ে প্রায় উল্লেখ করব বলে প্রধানমন্ত্রীর কাছে আর্জি জানিয়েছিলাম।  কিন্তু প্রধানমন্ত্রী সরাসরি এটা এটা করতে নিষেধ করে দেন।  

প্রধানমন্ত্রী কঠোরভাবে নিষেধ করে বলেন, ‘কোনো তথ্য বাড়িয়ে দেখানো যাবে না। যা আছে তাই উল্লেখ করতে হবে। ’

আর বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো (বিবিএস) প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশ পালন করেই তথ্য-উপাত্ত সরবরাহ করছে বলে দাবি করেন পরিকল্পনামন্ত্রী।


অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশ্বব্যাংকের ভারপ্রাপ্ত কান্ট্রি ডিরেক্টর ডেনডেন চেন।  বৈদেশিক অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন জাতিসংঘের আওতাধীন এশিয়া-প্যাসিফিক পরিসংখ্যান ইনস্টিটিউট জাপানের পরিচালক আশীষ কুমার, ন্যাশনাল স্ট্যাটিস্টিক ব্যুরো অফ ভুটান' এর পরিচালক চিমি সিরিং প্রমুখ।

অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন পরিসংখ্যান ও তথ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগের সচিব সৌরেন্দ্র নাথ চক্রবর্তী।