চলন্তিকা বস্তিতে আগুনের ঘটনায় যা বললেন মির্জা ফখরুল

  যুগান্তর রিপোর্ট ১৭ অগাস্ট ২০১৯, ১৫:৪৭:২৬ | অনলাইন সংস্করণ

রাজধানীতে বছরের শুরু থেকে কেন একের পর এক অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে যাচ্ছে, নিরপেক্ষ কমিটির মাধ্যমে তা তদন্তের দাবি জানিয়েছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। সেই সঙ্গে মিরপুরে চলন্তিকা বস্তিতে আগুনের ঘটনায়ক্ষতিগ্রস্তদের ক্ষতিপূরণ দেয়ার দাবিও জানিয়েছেন তিনি।

শনিবার ‍দুপুরে আগুনে পোড়া বস্তি পরিদর্শন শেষে চলন্তিকা মোড়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে বিএনপি মহাসচিব এ দাবি জানান।

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘আমি গতকালকের এই অগ্নিকাণ্ডের সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ তদন্ত দাবি করছি। তদন্ত করে জানানো দরকার কীভাবে আগুন লেগেছে।’

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘রাজধানীতে বিভিন্ন জায়গায় কেন বারবার আগুন লাগছে? এই মিরপুরে কালশীতে ভয়াবহ আগ্নিকাণ্ড হলো। মানুষ মরল। দগ্ধ হলো। এর আগেও আগুন লেগেছে। এগুলোর সঠিক কারণ বের করা দরকার। আমরা কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ করব, বস্তিবসী মানুষের যে ক্ষতি হয়েছে তার ক্ষতিপূরণ দেয়ার জন্য।’

এক প্রশ্নের জবাবে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘বস্তিগুলোতে যে বারবার আগুন লাগে তার পেছনে কোনো না কোনো কারণ থাকে। আমি বলছি না কোনো উদ্দেশে বস্তিতে আগুন লাগানো হয়েছে। এটা মানুষের মধ্যে সন্দেহের তৈরি করে। তাই এ ঘটনার নিরপেক্ষ তদন্ত হওয়া উচিত।’

বিএনপির মহাসচিব আরো বলেন, গতকালের ঘটনায় তিন হাজার মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। নিঃস্ব হয়েছে। সবার বাড়ি পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। সবার প্রতি আহ্বান, তাদের পাশে এসে দাঁড়ান। আর এই সরকারের কাছে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের ক্ষতিপূরণের দাবি জানাচ্ছি। এসময় তার সঙ্গে ছিলেন বিএনপি নেতা তাবিথ আউয়াল।

প্রসঙ্গত, শুক্রবার সন্ধ্যায় মিরপুরের এই বস্তিতে অগ্নিকাণ্ড ঘটে। ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের ২০টি ইউনিট প্রায় তিন ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। কিন্তু এর মধ্যে পুড়ে ছাই হয়ে যায় বস্তির কয়েক হাজার ঘর।

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত