অপকর্ম করলে কেউ ছাড় পাবে না: ওবায়দুল কাদের
jugantor
অপকর্ম করলে কেউ ছাড় পাবে না: ওবায়দুল কাদের

  যুগান্তর রিপোর্ট  

১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৪:৩১:৫৩  |  অনলাইন সংস্করণ

ওবায়দুল কাদের

অপকর্ম করলে কেউ ছাড় পাবে না বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

সোমবার রাজধানীর মতিঝিলে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্পোরেশন (বিআরটিসি) ভবনে এক মতবিনিময়সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, দলের যত বড় নেতাই হোক না কেন, অপকর্ম করলে কেউ ছাড় পাবে না। যেসব নেতার বিরুদ্ধে অনিয়ম-দুর্নীতির অভিযোগ প্রধানমন্ত্রীর কাছে গেছে, তারা কেউই ছাড় পাবে না।

তবে সবার বিরুদ্ধেই দলীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে না, অনেকের বিরুদ্ধে প্রশাসনিকভাবেও ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও জানান তিনি।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক আরও বলেন, নেতাকর্মীদের অনিয়ম ও দুর্নীতির বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর নিজস্ব সংস্থার প্রতিবেদন রয়েছে। পাশাপাশি বিভিন্ন সংস্থার প্রতিবেদনও প্রধানমন্ত্রীর কাছে রয়েছে।

চাঁদাবাজিসহ নানা অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও গোলাম রাব্বানীকে ছাত্রলীগের নেতৃত্ব থেকে সরিয়ে দেয়া হয়েছে।

শনিবার সন্ধ্যায় গণভবনে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। দলের সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় এ সিদ্ধান্ত দেয়ার সময় তিনি যুবলীগের কয়েকজন নেতার নাম উল্লেখ করে ছাত্রলীগের পদচ্যুত সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের চেয়েও খারাপ বলে মন্তব্য করেন। শেখ হাসিনা ওই সময় হুশিয়ারি দিয়ে বলেন, কেউ এ ধরনের কাজ করলে মেনে নেয়া হবে না।

ছাত্রলীগের মতো যুবলীগের কমিটিও ভেঙে দেয়া হবে কিনা জানতে চাইলে ওবায়দুল কাদের বলেন, যুবলীগ নিজেরাই নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ তদন্ত করতে একটি সেল গঠন করেছে। তারা নিজেরাই শোধরানোর পথ বেছে নিয়েছে।

অপকর্ম করলে কেউ ছাড় পাবে না: ওবায়দুল কাদের

 যুগান্তর রিপোর্ট 
১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০২:৩১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ওবায়দুল কাদের
সোমবার বিআরটিসি ভবনে এক মতবিনিময়সভায় বক্তব্য রাখছেন ওবায়দুল কাদের। ছবি-সংগৃহীত

অপকর্ম করলে কেউ ছাড় পাবে না বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

সোমবার রাজধানীর মতিঝিলে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্পোরেশন (বিআরটিসি) ভবনে এক মতবিনিময়সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন। 

ওবায়দুল কাদের বলেন, দলের যত বড় নেতাই হোক না কেন, অপকর্ম করলে কেউ ছাড় পাবে না। যেসব নেতার বিরুদ্ধে অনিয়ম-দুর্নীতির অভিযোগ প্রধানমন্ত্রীর কাছে গেছে, তারা কেউই ছাড় পাবে না।  

তবে সবার বিরুদ্ধেই দলীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে না, অনেকের বিরুদ্ধে প্রশাসনিকভাবেও ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও জানান তিনি। 

প্রধান অতিথির বক্তব্যে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক আরও বলেন, নেতাকর্মীদের অনিয়ম ও দুর্নীতির বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর নিজস্ব সংস্থার প্রতিবেদন রয়েছে। পাশাপাশি বিভিন্ন সংস্থার প্রতিবেদনও প্রধানমন্ত্রীর কাছে রয়েছে। 

চাঁদাবাজিসহ নানা অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও গোলাম রাব্বানীকে ছাত্রলীগের নেতৃত্ব থেকে সরিয়ে দেয়া হয়েছে।

শনিবার সন্ধ্যায় গণভবনে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। দলের সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় এ সিদ্ধান্ত দেয়ার সময় তিনি যুবলীগের কয়েকজন নেতার নাম উল্লেখ করে ছাত্রলীগের পদচ্যুত সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের চেয়েও খারাপ বলে মন্তব্য করেন। শেখ হাসিনা ওই সময় হুশিয়ারি দিয়ে বলেন, কেউ এ ধরনের কাজ করলে মেনে নেয়া হবে না।

ছাত্রলীগের মতো যুবলীগের কমিটিও ভেঙে দেয়া হবে কিনা জানতে চাইলে ওবায়দুল কাদের বলেন, যুবলীগ নিজেরাই নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ তদন্ত করতে একটি সেল গঠন করেছে। তারা নিজেরাই শোধরানোর পথ বেছে নিয়েছে।