যুবলীগের কমিটিতে কারা আসছেন জানালেন পরশ

  যুগান্তর ডেস্ক ০৩ ডিসেম্বর ২০১৯, ১৪:২৯:০৬ | অনলাইন সংস্করণ

যুবলীগের চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পেয়েছেন দেয়া হয়েছে সংগঠনটির প্রতিষ্ঠাতা শেখ ফজলুল হক মনির বড় ছেলে শেখ ফজলে শামস পরশ।

রাজনীতি থেকে দূরে থাকা শেখ পরশ শিক্ষকতা নিয়েই ব্যস্ত ছিলেন। দায়িত্ব পাওয়ার পর সংগঠন গোছানোকেই বড় চ্যালেঞ্জ মনে করছেন তিনি। তবে চ্যালেঞ্জ পূরণে দৃঢ় প্রত্যয়ী শেখ পরশ জানালেন, অভিযুক্ত কেউ তার সংগঠনে জায়গা পাবে না।

একটি গণমাধ্যমকে দেয়া সাক্ষাৎকারে পরশ জানান, আমার মধ্যে একটা উদ্দীপনা কাজ করছে। আমার সুযোগ হয়েছে একটা পরিবর্তন আনার এবং কিছু করার।

তিনি জানান, যতদ্রুত সম্ভব যুবলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করবেন।

কমিটিতে কারা জায়গা পাবেন সে বিষয়েও ধারণা দিয়েছেন যুবলীগের নতুন চেয়ারম্যান। তিনি বলেন, রাজনৈতিকভাবে যাদের মেধা আছে এবং অভিজ্ঞতা আছে তারা হয়তো সিস্টেমের অভাবে, সাংগঠনিক পরিচ্ছন্নতার অভাবে পিছিয়ে ছিল, তাদেরকে নির্ধারণ করতে হবে।

‘তবে যাদের নামে অভিযোগ আছে তাদেরকে সরে দাঁড়াতে হবে। অভিযুক্তদের অব্যহতি দেয়া হবে। দলীয় ফোরামে আলাপ করে সিদ্ধান্ত নেবো কবে নাগাদ কমিটি দেয়া যায়। তবে অবশ্যই ত্যাগী ও সংগ্রামী নেতারা একটা জায়গা রাখবে।’

সাবেক ছাত্রনেতারাও যুবলীগের কমিটিতে জায়গা পাবে বলে জানিয়েছেন শেখ পরশ। তিনি বিশ্বাস করেন যুবলীগ আরও শক্তভাবে ঘুরে দাঁড়াবে। ত্যাগী মনোভাব, কাজের গতি এবং দেশপ্রেম থাকলে এটা সম্ভব বলে মনে করেন তিনি।

গত ২৩ নভেম্বর যুবলীগের চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পান শেখ ফজলে শামস পরশ আর সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন মাঈনুল হোসেন খান নিখিল।

ক্যাসিনোকাণ্ডে বিদায় নেয়া যুবলীগ চেয়ারম্যান ওমর ফারুক চৌধুরী হলেন পরশের ফুপা। পরশের ভাই শেখ ফজলে নূর তাপস আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য। তাদের চাচা শেখ ফজলুল করিম সেলিম আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য। তিনিও যুবলীগের চেয়ারম্যান ছিলেন।

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত