প্রচার বাদ দিয়ে জনগণকে করোনা নিয়ে সতর্ক করছি: ডা. শাহাদাত
jugantor
প্রচার বাদ দিয়ে জনগণকে করোনা নিয়ে সতর্ক করছি: ডা. শাহাদাত

  যুগান্তর রিপোর্ট  

২০ মার্চ ২০২০, ১৫:২৪:৫০  |  অনলাইন সংস্করণ

প্রচার বাদ দিয়ে জনগণকে করোনা নিয়ে সতর্ক করছি: ডা. শাহাদাত

নির্বাচনী প্রচার বাদ দিয়ে জনগণকে করোনাভাইরাস নিয়ে সতর্ক করেছেন বলে মন্তব্য করেছেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বিএনপির মেয়রপ্রার্থী ডা. শাহাদাত হোসেন।

শুক্রবার দুপুর ১২টার দিকে চসিক নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার হাছানুজ্জামানের কাছে নির্বাচন পেছানোর দাবি এবং লিখিত অভিযোগ দিয়ে বের হয়ে উপস্থিতি সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন।

লিখিত আবেদনে বলা হয়েছে, সারাবিশ্বে করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে। ইতিমধ্যে দেশে করোনা আক্রান্ত হয়ে একজন মারা গেছেন। সরকার দেশে সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দিয়েছে। স্বাস্থ্যমন্ত্রী জনসমাগম স্থগিত করতে বলেছেন। চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন বলেছেন জনসমাগম না করতে। বিএনপি সব রাজনৈতিক সভা সমাবেশ বন্ধ করেছে। ভোটারদের মধ্যে ভয় ভীতি কাজ করছে। নিরাপত্তার চেয়ে নির্বাচন বড় হতে পারে না।

পরে বেরিয়ে এসে শাহাদাত হোসেন বলেন, চট্টগ্রামবাসীকে করোনাভাইরাস থেকে মুক্ত করতে প্রয়োজন হলে নির্বাচন থেকে সরে যেতেও প্রস্তুত আছি। আমাদের কাছে নির্বাচন মুখ্য নয়, মানুষের জীবন আগে।

দলের সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় রয়েছেন জানিয়ে এই মেয়রপ্রার্থী বলেন, নির্বাচনী প্রচার বাদ দিয়ে জনগণকে করোনাভাইরাস নিয়ে সতর্ক করছি। পাশাপাশি জনগণের মধ্যে মাস্ক বিতরণ করছি।

তিনি বলেন, দেশে স্কুল-কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ। সব কিছুর ওপর একটা সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তা হলে কেন নির্বাচন বন্ধ করা হচ্ছে না? দেশে একটা আতঙ্ক সৃষ্টি হয়েছে। তার পরও কেন সরকার নির্বাচন নিয়ে ব্যস্ত জানি না।

এ সময় শাহাদাতের সঙ্গে ছিলেন বিএনপি ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা সুকোমল বড়ুয়া, সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুব আলম শামীম ও নগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আবুল হাশেম বক্কর প্রমুখ।

প্রচার বাদ দিয়ে জনগণকে করোনা নিয়ে সতর্ক করছি: ডা. শাহাদাত

 যুগান্তর রিপোর্ট 
২০ মার্চ ২০২০, ০৩:২৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
প্রচার বাদ দিয়ে জনগণকে করোনা নিয়ে সতর্ক করছি: ডা. শাহাদাত
নির্বাচনী প্রচারে গিয়ে একে অপরকে মাস্ক পরিয়ে দিচ্ছেন চট্টগ্রামের দুই মেয়র প্রার্থী। ছবি: সংগৃহীত

নির্বাচনী প্রচার বাদ দিয়ে জনগণকে করোনাভাইরাস নিয়ে সতর্ক করেছেন বলে মন্তব্য করেছেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বিএনপির মেয়রপ্রার্থী ডা. শাহাদাত হোসেন। 

শুক্রবার দুপুর ১২টার দিকে চসিক নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার হাছানুজ্জামানের কাছে নির্বাচন পেছানোর দাবি এবং লিখিত অভিযোগ দিয়ে বের হয়ে উপস্থিতি সাংবাদিকদের তিনি এসব কথা বলেন। 

লিখিত আবেদনে বলা হয়েছে, সারাবিশ্বে করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে। ইতিমধ্যে দেশে করোনা আক্রান্ত হয়ে একজন মারা গেছেন। সরকার দেশে সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দিয়েছে। স্বাস্থ্যমন্ত্রী জনসমাগম স্থগিত করতে বলেছেন। চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন বলেছেন জনসমাগম না করতে। বিএনপি সব রাজনৈতিক সভা সমাবেশ বন্ধ করেছে। ভোটারদের মধ্যে ভয় ভীতি কাজ করছে। নিরাপত্তার চেয়ে নির্বাচন বড় হতে পারে না।

পরে বেরিয়ে এসে শাহাদাত হোসেন বলেন, চট্টগ্রামবাসীকে করোনাভাইরাস থেকে মুক্ত করতে প্রয়োজন হলে নির্বাচন থেকে সরে যেতেও প্রস্তুত আছি। আমাদের কাছে নির্বাচন মুখ্য নয়, মানুষের জীবন আগে।

দলের সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় রয়েছেন জানিয়ে এই মেয়রপ্রার্থী বলেন, নির্বাচনী প্রচার বাদ দিয়ে জনগণকে করোনাভাইরাস নিয়ে সতর্ক করছি। পাশাপাশি জনগণের মধ্যে মাস্ক বিতরণ করছি।

তিনি বলেন, দেশে স্কুল-কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ। সব কিছুর ওপর একটা সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তা হলে কেন নির্বাচন বন্ধ করা হচ্ছে না? দেশে একটা আতঙ্ক সৃষ্টি হয়েছে। তার পরও কেন সরকার নির্বাচন নিয়ে ব্যস্ত জানি না।

এ সময় শাহাদাতের সঙ্গে ছিলেন বিএনপি ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা সুকোমল বড়ুয়া, সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুব আলম শামীম ও নগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আবুল হাশেম বক্কর প্রমুখ।

 

ঘটনাপ্রবাহ : চট্টগ্রাম সিটি নির্বাচন ২০২০

২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০