ক্ষতিগ্রস্ত বেড়িবাঁধ দ্রুত মেরামতের ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে: এনামুল হক শামীম

  যুগান্তর রিপোর্ট ২১ মে ২০২০, ২০:৩০:৪২ | অনলাইন সংস্করণ

পানিসম্পদ উপমন্ত্রী এনামুল হক শামীম বলেছেন, ঘূর্ণিঝড় আম্পানের প্রভাবে উপকূলীয় এলাকায় ক্ষতিগ্রস্ত বেড়িবাঁধগুলো দ্রুত মেরামত করার ব্যবস্থা গ্রহণ করা হচ্ছে। মন্ত্রণালয়ের সব কর্মকর্তা-কর্মচারী, পানি উন্নয়ন বোর্ডসহ সংশ্লিষ্ট সবার ছুটি বাতিল করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে সচিবালয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এ সব কথা বলেন।

পানিসম্পদ উপমন্ত্রী বলেন, করোনাভাইরাসের দুর্যোগ কাটিয়ে ওঠার জন্য আমরা যখন ব্যাপকভাবে কাজ করে যাচ্ছি, তখন আরেকটা দুর্যোগ (আম্পান) চলে এসেছে। এটা প্রাকৃতিক দুর্যোগ, এতে কারও হাত নেই। এটা আমরা ঠেকাতে পারব না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে মানুষের জান-মাল রক্ষার জন্য যতটুকু বিশেষ ব্যবস্থা আমরা নিতে পারি, সেটা আমরা নিয়ে যাচ্ছি। আর অতীতের যে কোনো সময়ের চেয়ে এবারের ঘূর্ণিঝড়টা অনেক শক্তিশালী। যে কারণে অনেক এলাকায় বাঁধ ভেঙ্গে গ্রাম প্লাবিত হয়েছে। বেড়িবাঁধগুলোও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

এনামুল হক শামীম বলেন, পানি উন্নয়ন বোর্ডের অধীনে ১৬ হাজার ৬শ' কিলোমিটার বাঁধ রয়েছে। এর মধ্যে উপকূল এলাকায় রয়েছে ৫ হাজার ৭৯৭ কিলোমিটার। ডুবন্ত বাঁধ রয়েছে আড়াই হাজার কিলোমিটার। এ সব বাঁধ অনেকটাই পুরনো। সে সব বাঁধ প্রশস্ত ও উঁচু করার প্রকল্প হাতে নেয়া হয়েছে। দ্রুতই কাজ শুরু হবে।

তিনি আরও বলেন, আমরা উপকূলীয় এলাকা বিশেষ করে সাতক্ষীরা, বাগেরহাট, পটুয়াখালী, ভোলা এলাকায় ক্ষতিগ্রস্ত বেড়িবাঁধগুলো তালিকা তৈরি করেছি। এগুলো দ্রুত মেরামত করার কাজ শুরু করতে নিদের্শনা দিয়েছি।

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত