‘শেখ হাসিনার চলার পথ কখনও পুষ্প বিছানো ছিল না’
jugantor
‘শেখ হাসিনার চলার পথ কখনও পুষ্প বিছানো ছিল না’

  যুগান্তর প্রতিবেদন  

১৬ মে ২০২১, ১৫:২৪:২৩  |  অনলাইন সংস্করণ

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেছেন, শেখ হাসিনার চলার পথ কখনও পুষ্প বিছানো ছিল না; তবু তিনি এগিয়ে গেছেন মানুষের মুক্তির জন্য, অবরুদ্ধ গণতন্ত্রকে ফিরিয়ে আনার জন্য।

রোববার সকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষ্যে দলটির তথ্য ও গবেষণা উপকমিটির উদ্যোগে ‘শেখ হাসিনার চার দশক: বদলে যাওয়া বাংলাদেশের অপ্রতিরোধ্য অগ্রযাত্রা’ শীর্ষক তথ্যচিত্র প্রদর্শনীর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। তিনি তার সরকারি বাসভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে অনুষ্ঠানে যুক্ত হন।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, তিনি (শেখ হাসিনা) এসেছিলেন বলেই কলহ-কোন্দলে জর্জরিত আওয়ামী লীগকে ঐক্যবদ্ধ করেছেন এবং শেখ হাসিনা আজ আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসেবেও চার দশক অতিক্রম করেছেন এবং তিনি আজ আওয়ামী লীগকেও অতিক্রম করেছেন।

’৭৫-পরবর্তী বাংলাদেশে সবচেয়ে সফল, সাহসী এবং মানবিক রাষ্ট্রনায়কের নাম শেখ হাসিনা মন্তব্য করে তিনি বলেন, ‘শেখ হাসিনা সবচেয়ে সফল কূটনীতিকের নাম।’

আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ড. মশিউর রহমানের সভাপতিত্বে এবংতথ্য ও গবেষণাবিষয়ক সম্পাদক ড. সেলিম মাহমুদের সঞ্চালনায়ধানমণ্ডি ৩২ নম্বর প্রান্তে উপস্থিত ছিলেন সাংগঠনিক সম্পাদক আফজাল হোসেন, দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়াসহ আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণাবিষয়ক উপকমিটির নেতৃবৃন্দ।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মহাকাশ বিজয়ের কথা স্মরণ করিয়ে দিয়ে বলেন, ‘বাংলাদেশ আজ নিজস্ব স্যাটেলাইট যুগেও প্রবেশ করেছে, যার নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা।’

‘শেখ হাসিনার চলার পথ কখনও পুষ্প বিছানো ছিল না’

 যুগান্তর প্রতিবেদন 
১৬ মে ২০২১, ০৩:২৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।  

তিনি বলেছেন, শেখ হাসিনার চলার পথ কখনও পুষ্প বিছানো ছিল না; তবু তিনি এগিয়ে গেছেন মানুষের মুক্তির জন্য, অবরুদ্ধ গণতন্ত্রকে ফিরিয়ে আনার জন্য। 

রোববার সকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষ্যে দলটির তথ্য ও গবেষণা উপকমিটির উদ্যোগে ‘শেখ হাসিনার চার দশক: বদলে যাওয়া বাংলাদেশের অপ্রতিরোধ্য অগ্রযাত্রা’ শীর্ষক তথ্যচিত্র প্রদর্শনীর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন।  তিনি তার সরকারি বাসভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে অনুষ্ঠানে যুক্ত হন।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, তিনি (শেখ হাসিনা) এসেছিলেন বলেই কলহ-কোন্দলে জর্জরিত আওয়ামী লীগকে ঐক্যবদ্ধ করেছেন এবং শেখ হাসিনা আজ আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসেবেও  চার দশক অতিক্রম করেছেন এবং  তিনি আজ আওয়ামী লীগকেও অতিক্রম করেছেন। 

’৭৫-পরবর্তী বাংলাদেশে সবচেয়ে সফল, সাহসী এবং মানবিক রাষ্ট্রনায়কের নাম শেখ হাসিনা মন্তব্য করে তিনি বলেন, ‘শেখ হাসিনা সবচেয়ে সফল কূটনীতিকের নাম।’

আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ড. মশিউর রহমানের সভাপতিত্বে এবং তথ্য ও গবেষণাবিষয়ক সম্পাদক ড. সেলিম মাহমুদের সঞ্চালনায় ধানমণ্ডি ৩২ নম্বর প্রান্তে উপস্থিত ছিলেন সাংগঠনিক সম্পাদক আফজাল হোসেন, দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়াসহ আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণাবিষয়ক উপকমিটির নেতৃবৃন্দ।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মহাকাশ বিজয়ের কথা স্মরণ করিয়ে দিয়ে বলেন, ‘বাংলাদেশ আজ নিজস্ব স্যাটেলাইট যুগেও প্রবেশ করেছে, যার নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা।’
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন