মানুষ জানতে চায় বিদেশে লবিস্ট নিয়োগে কারা কত টাকা পাচার করেছে: চুন্নু
jugantor
মানুষ জানতে চায় বিদেশে লবিস্ট নিয়োগে কারা কত টাকা পাচার করেছে: চুন্নু

  যুগান্তর প্রতিবেদন  

২৬ জানুয়ারি ২০২২, ১৬:০৪:২৮  |  অনলাইন সংস্করণ

মানুষ জানতে চায় বিদেশে লবিস্ট নিয়োগে কারা কত টাকা পাচার করেছে: চুন্নু

জাতীয় পার্টির মহাসচিব মো. মুজিবুল হক চুন্নু এমপি বলেছেন, দেশের মানুষ জানতে চায় বিদেশে কারা লবিস্ট নিয়োগ করেছে। তিনি বলেন, যদি আওয়ামী লীগ সরকারিভাবে লবিস্ট নিয়োগ করে থাকে, তা হলে সরকারকেই বলতে হবে কেন এবং কীভাবে টাকা দেওয়া হলো। আবার আওয়ামী লীগ যদি দলীয়ভাবে লবিস্ট নিয়োগ করে, তা হলেও বলতে হবে এই টাকার উৎস কী এবং এই টাকা বৈধ নাকি অবৈধ। বিএনপি লবিস্ট নিয়োগ করলেও প্রকাশ করতে হবে কী উদ্দেশ্যে তারা লবিস্ট নিয়োগ করেছে, কোথায় পেয়েছে তারা এত টাকা। দেশের মানুষ জানতে চায় বিদেশে লবিস্ট নিয়োগে কারা এবং কত টাকা পাচার করেছে।

বুধবার জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের বনানী কার্যালয় মিলনায়তনে জাতীয় যুব সংহতি আয়োজিত মিলাদ ও দোয়া অনুষ্ঠানের পূর্বে এক সংক্ষিপ্ত আলোচনাসভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় মুজিবুল হক চুন্নু এসব কথা বলেন।

জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় উপনেতা জনবন্ধু গোলাম মোহাম্মদ কাদের এমপি এবং জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা ও জাতীয় সাংস্কৃতিক পার্টির আহ্বায়ক শেরিফা কাদের এমপির রোগমুক্তি ও সুস্থতা কামনায় এ দোয়া ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করা হয়।

জাতীয় পার্টির মহাসচিব আরও বলেন, দুর্নীতি ও দুঃশাসন আর কিছু সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীর অতিউৎসাহে দেশের মানুষ আওয়ামী লীগের ওপর বিরক্ত। আবার বিএনপির বক্তৃতায় দেশ ও দেশের মানুষের জন্য কী করবে তা স্পষ্ট নেই। দেশের মানুষ বিএনপির ওপর আস্থা রাখছে না। দেশের মানুষ আওয়ামী লীগ ও বিএনপির বিপরীতে জাতীয় পার্টিকে বিকল্প শক্তি হিসেবে বিবেচনা করছে। তারা জাতীয় পার্টিকে আরও শক্তিশালী রাজনৈতিক শক্তি হিসেবে দেখতে চায়। দেশের মানুষ আওয়ামী লীগ ও বিএনপির হাত থেকে বাঁচার আশায় জাতীয় পার্টির দিকে তাকিয়ে আছে। তাই জাতীয় পার্টিকে আরও শক্তিশালী করতে দলের নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বন জানান মুজিবুল হক চুন্নু এমপি।

জাতীয় যুব সংহতির আহ্বায়ক ও জাতীয় পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান এইচএম শাহরিয়ার আসিফের সভাপতিত্বে ও জাতীয় যুব সংহতির সদস্য সচিব ও জাতীয় পার্টির ক্রীড়াবিষয়ক সম্পাদক আহাদ ইউ চৌধুরী শাহীনের পরিচালনায় সভায় বক্তব্য রাখেন— প্রেসিডিয়াম সদস্য মীর আব্দুস সবুর আসুদ, জহিরুল ইসলাম জহির, চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা মো. সেলিম উদ্দিন, যুগ্ম মহাসচিব মোস্তফা বেঙ্গল সেলিম।

এদিকে বাদ জোহর জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের বনানী কার্যালয়ের মিলনায়তনে জাতীয় পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান ও জাতীয় যুব সংহতির আহ্বায়ক এইচএম শাহরিয়ার আসিফের সভাপতিত্বে এবং সদস্য সচিব আহাদ ইউ চৌধুরী শাহীনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত দোয়া মাহফিলে উপস্থিত ছিলেন প্রেসিডিয়াম সদস্য অ্যাডভোকেট মো. রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, নাজমা আখতার এমপি, চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা মনিরুল ইসলাম মিলন, হারুন অর রশীদ, হেনা খান পন্নি, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. হুমায়ুন খান, মো. সাইফুল ইসলাম, সাইফুদ্দিন খালেদ, দপ্তর সম্পাদক সুলতান মাহমুদ, দপ্তর সম্পাদক-২ এমএ রাজ্জাক খান, শ্রমবিষয়ক সম্পাদক জাহাঙ্গীর হোসেন, শিক্ষাবিষয়ক সম্পাদক মিজানুর রহমান মীরু, যুগ্ম দপ্তর সম্পাদক সমরেশ মণ্ডল মানিক, দোয়া মাহফিলের মোনাজাত পরিচালনা করেন জাতীয় পার্টির যুগ্ম ধর্মবিষয়ক সম্পাদক হাফেজ কারি আলহাজ ইসাহুরুল্লাহ আসিফ, যুগ্ম সাংগঠনিক সম্পাদক জাকির হোসেন মিলন, এ সময় যুব নেতাদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মো. হেলাল উদ্দিন, মো. সাইফুল ইসলাম, দ্বীন ইসলাম শেখ, শেখ সরোয়ার হোসেন, শফিকুল ইসলাম দুলাল, জিয়াউর রহমান বিপুল, হাফেজ উদ্দিন হাজারী, মো. নজরুল ইসলাম, আবু নাসের বাদল, আবুল কালাম আজাদ টুলু, কাজী শাহীন, মো. ফরিদ আলম, নজরুল ইসলাম (বাড্ডা), শরিফুল ইসলাম, দেলোয়ার হোসেন রিপন, অ্যাডভোকেট আবু ওহাব, মিজানুর রহমান মিজান, মো. আনিস, আব্দুস সালাম হাওলাদার, শাহ আনোয়ারুল অনু, সুজন সরদার, কেন্দ্রীয় নেতা তাসলিমা আকবর রুনা, জেসমিন নূর প্রিয়াংকা, হাসনা হেনা, সুলতান আরা, ছাত্র সমাজের অর্ণব চৌধুরী, ফকির আল মামুন, আল আমিন সরকার।


মানুষ জানতে চায় বিদেশে লবিস্ট নিয়োগে কারা কত টাকা পাচার করেছে: চুন্নু

 যুগান্তর প্রতিবেদন 
২৬ জানুয়ারি ২০২২, ০৪:০৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
মানুষ জানতে চায় বিদেশে লবিস্ট নিয়োগে কারা কত টাকা পাচার করেছে: চুন্নু
মুজিবুল হক চুন্নু। ছবি: যুগান্তর

জাতীয় পার্টির মহাসচিব মো. মুজিবুল হক চুন্নু এমপি বলেছেন, দেশের মানুষ জানতে চায় বিদেশে কারা লবিস্ট নিয়োগ করেছে। তিনি বলেন, যদি আওয়ামী লীগ সরকারিভাবে লবিস্ট নিয়োগ করে থাকে, তা হলে সরকারকেই বলতে হবে কেন এবং কীভাবে টাকা দেওয়া হলো। আবার আওয়ামী লীগ যদি দলীয়ভাবে লবিস্ট নিয়োগ করে, তা হলেও বলতে হবে এই টাকার উৎস কী এবং এই টাকা বৈধ নাকি অবৈধ। বিএনপি লবিস্ট নিয়োগ করলেও প্রকাশ করতে হবে কী উদ্দেশ্যে তারা লবিস্ট নিয়োগ করেছে, কোথায় পেয়েছে তারা এত টাকা। দেশের মানুষ জানতে চায় বিদেশে লবিস্ট নিয়োগে কারা এবং কত টাকা পাচার করেছে।

বুধবার জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের বনানী কার্যালয় মিলনায়তনে জাতীয় যুব সংহতি আয়োজিত মিলাদ ও দোয়া অনুষ্ঠানের পূর্বে এক সংক্ষিপ্ত আলোচনাসভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় মুজিবুল হক চুন্নু এসব কথা বলেন।
 
জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় উপনেতা জনবন্ধু গোলাম মোহাম্মদ কাদের এমপি এবং জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা ও জাতীয় সাংস্কৃতিক পার্টির আহ্বায়ক শেরিফা কাদের এমপির রোগমুক্তি ও সুস্থতা কামনায় এ দোয়া ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করা হয়। 

জাতীয় পার্টির মহাসচিব আরও বলেন, দুর্নীতি ও দুঃশাসন আর কিছু সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীর অতিউৎসাহে দেশের মানুষ আওয়ামী লীগের ওপর বিরক্ত। আবার বিএনপির বক্তৃতায় দেশ ও দেশের মানুষের জন্য কী করবে তা স্পষ্ট নেই। দেশের মানুষ বিএনপির ওপর আস্থা রাখছে না। দেশের মানুষ আওয়ামী লীগ ও বিএনপির বিপরীতে জাতীয় পার্টিকে বিকল্প শক্তি হিসেবে বিবেচনা করছে। তারা জাতীয় পার্টিকে আরও শক্তিশালী রাজনৈতিক শক্তি হিসেবে দেখতে চায়। দেশের মানুষ আওয়ামী লীগ ও বিএনপির হাত থেকে বাঁচার আশায় জাতীয় পার্টির দিকে তাকিয়ে আছে। তাই জাতীয় পার্টিকে আরও শক্তিশালী করতে দলের নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বন জানান মুজিবুল হক চুন্নু এমপি।

জাতীয় যুব সংহতির আহ্বায়ক ও জাতীয় পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান এইচএম শাহরিয়ার আসিফের সভাপতিত্বে ও জাতীয় যুব সংহতির সদস্য সচিব ও জাতীয় পার্টির ক্রীড়াবিষয়ক সম্পাদক আহাদ ইউ চৌধুরী শাহীনের পরিচালনায় সভায় বক্তব্য রাখেন— প্রেসিডিয়াম সদস্য মীর আব্দুস সবুর আসুদ, জহিরুল ইসলাম জহির, চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা মো. সেলিম উদ্দিন, যুগ্ম মহাসচিব মোস্তফা বেঙ্গল সেলিম। 

এদিকে বাদ জোহর জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের বনানী কার্যালয়ের মিলনায়তনে জাতীয় পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান ও জাতীয় যুব সংহতির আহ্বায়ক এইচএম শাহরিয়ার আসিফের সভাপতিত্বে এবং সদস্য সচিব আহাদ ইউ চৌধুরী শাহীনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত দোয়া মাহফিলে উপস্থিত ছিলেন প্রেসিডিয়াম সদস্য অ্যাডভোকেট মো. রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, নাজমা আখতার এমপি, চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা মনিরুল ইসলাম মিলন, হারুন অর রশীদ, হেনা খান পন্নি, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. হুমায়ুন খান, মো. সাইফুল ইসলাম, সাইফুদ্দিন খালেদ, দপ্তর সম্পাদক সুলতান মাহমুদ, দপ্তর সম্পাদক-২ এমএ রাজ্জাক খান, শ্রমবিষয়ক সম্পাদক জাহাঙ্গীর হোসেন, শিক্ষাবিষয়ক সম্পাদক মিজানুর রহমান মীরু, যুগ্ম দপ্তর সম্পাদক সমরেশ মণ্ডল মানিক, দোয়া মাহফিলের মোনাজাত পরিচালনা করেন জাতীয় পার্টির যুগ্ম ধর্মবিষয়ক সম্পাদক হাফেজ কারি আলহাজ ইসাহুরুল্লাহ আসিফ, যুগ্ম সাংগঠনিক সম্পাদক জাকির হোসেন মিলন, এ সময় যুব নেতাদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মো. হেলাল উদ্দিন, মো. সাইফুল ইসলাম, দ্বীন ইসলাম শেখ, শেখ সরোয়ার হোসেন, শফিকুল ইসলাম দুলাল, জিয়াউর রহমান বিপুল, হাফেজ উদ্দিন হাজারী, মো. নজরুল ইসলাম, আবু নাসের বাদল, আবুল কালাম আজাদ টুলু, কাজী শাহীন, মো. ফরিদ আলম, নজরুল ইসলাম (বাড্ডা), শরিফুল ইসলাম, দেলোয়ার হোসেন রিপন, অ্যাডভোকেট আবু ওহাব, মিজানুর রহমান মিজান, মো. আনিস, আব্দুস সালাম হাওলাদার, শাহ আনোয়ারুল অনু, সুজন সরদার, কেন্দ্রীয় নেতা তাসলিমা আকবর রুনা, জেসমিন নূর প্রিয়াংকা, হাসনা হেনা, সুলতান আরা, ছাত্র সমাজের অর্ণব চৌধুরী, ফকির আল মামুন, আল আমিন সরকার। 


 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও খবর