এতিমের সেই টাকা ব্যাংকে পড়ে আছে: খন্দকার মোশাররফ
jugantor
এতিমের সেই টাকা ব্যাংকে পড়ে আছে: খন্দকার মোশাররফ

  কুমিল্লা ব্যুরো  

২৫ নভেম্বর ২০২২, ১৫:০৬:৪৬  |  অনলাইন সংস্করণ

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, খালেদা জিয়া এতিমের টাকা মারেননি, টাকা ব্যাংকে পড়ে আছে। তারেক রহমানকেও মিথ্যা অভিযোগে সাজা দেওয়া হয়েছে। ফরমায়েশি রায়ে বেগম জিয়া ও তারেক রহমানকে সাজা দেওয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, এ সরকার দিনের ভোট রাতে নিয়েছে। গণতন্ত্রকে হত্যা করেছে, ব্যাংক লুট করেছে, ব্যাংকে ডলার নেই, এলসি খোলা যাচ্ছে না। এ সরকারের বিদায় ঘণ্টা বেজে গেছে। কুমিল্লায় এ অবৈধ সরকারকে লালকার্ড দেখানো হবে।

শুক্রবার নগরীর একটি রেস্তোরাঁয় বিএনপির বিভাগীয় সমাবেশ বিষয়ে অবহিত করতে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

সরকারের সমালোচনা করে ড. মোশাররফ বলেন, প্রধানমন্ত্রী বলেছিলেন— লোডশেডিং মিউজিয়ামে পাঠানো হবে, কিন্তু বিদ্যুতের জন্য এখন হাহাকার।

সরকারের মন্ত্রীদের বক্তব্যের সমালোচনা করে তিনি বলেন, তারা (মন্ত্রীরা) বলছেন— খেলা হবে। আমরা রাজনীতি করি, খেলা হবে তো গণতন্ত্র উদ্ধারের জন্য।

তিনি বলেন, সমাবেশে লোক সমাগম ঠেকাতে কুমিল্লা, চাঁদপুর ও ব্রাক্ষণবাড়িয়া জেলার বিভিন্ন উপজেলায় পুলিশ এবং সরকার দলের হেলমেট বাহিনীর হামলার শিকার হচ্ছেন নেতাকর্মীরা। বাঞ্ছারামপুরে ছাত্রদল লিফলেট বিতরণকাল কনস্টেবল বিশ্বজিৎ কাছ থেকে গুলি চালিয়ে ছাত্রদল নেতা নয়ন মিয়াকে হত্যা করেছে।

সমাবেশ সফল করার বিষয়ে তিনি বলেন, যেখানেই এ পর্যন্ত আমাদের সমাবেশ হয়েছে, সেখানে সরকারের হাইব্রিড নেতারা হামলা চালিয়েছে, কিন্তু সব সমাবেশ সফল হয়েছে। আমাদের কাছে যে খবর আছে, এরই মধ্যে নগরী ও এর আশপাশের এলাকায় লাখো নেতাকর্মী চলে এসেছেন। কুমিল্লার এ সমাবেশ হবে স্মরণকালের বড় সমাবেশ।

সংবাদ সম্মলনে আরও বক্তব্য রাখেন দলের কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান বরকত উল্লাহ বুলু, সাংগঠনিক সস্পাদক মোস্তাক মিয়া, কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা বিএনপির আহ্বায়ক হাজি আমিন উর রশিদ ইয়াছিন।

এ সময় জেলা বিএনপির সদস্য সচিব হাজি মো. জসিম উদ্দিন, বিএনপি নেতা কাউসার জামান বাপ্পী, ভিপি জসিম উদ্দিন, মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক উৎবাতুল বারী আবু, সদস্য সচিব ইউসুফ মোল্লা টিপুসহ দলের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

এতিমের সেই টাকা ব্যাংকে পড়ে আছে: খন্দকার মোশাররফ

 কুমিল্লা ব্যুরো 
২৫ নভেম্বর ২০২২, ০৩:০৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, খালেদা জিয়া এতিমের টাকা মারেননি, টাকা ব্যাংকে পড়ে আছে। তারেক রহমানকেও মিথ্যা অভিযোগে সাজা দেওয়া হয়েছে। ফরমায়েশি রায়ে বেগম জিয়া ও তারেক রহমানকে সাজা দেওয়া হয়েছে। 

তিনি বলেন, এ সরকার দিনের ভোট রাতে নিয়েছে। গণতন্ত্রকে হত্যা করেছে, ব্যাংক লুট করেছে, ব্যাংকে ডলার নেই, এলসি খোলা যাচ্ছে না। এ সরকারের বিদায় ঘণ্টা বেজে গেছে। কুমিল্লায় এ অবৈধ সরকারকে লালকার্ড দেখানো হবে। 

শুক্রবার নগরীর একটি রেস্তোরাঁয় বিএনপির বিভাগীয় সমাবেশ বিষয়ে অবহিত করতে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন। 

সরকারের সমালোচনা করে ড. মোশাররফ বলেন, প্রধানমন্ত্রী বলেছিলেন— লোডশেডিং মিউজিয়ামে পাঠানো হবে, কিন্তু বিদ্যুতের জন্য এখন হাহাকার। 

সরকারের মন্ত্রীদের বক্তব্যের সমালোচনা করে তিনি বলেন, তারা (মন্ত্রীরা) বলছেন— খেলা হবে। আমরা রাজনীতি করি, খেলা হবে তো গণতন্ত্র উদ্ধারের জন্য। 

তিনি বলেন, সমাবেশে লোক সমাগম ঠেকাতে কুমিল্লা, চাঁদপুর ও ব্রাক্ষণবাড়িয়া জেলার বিভিন্ন উপজেলায় পুলিশ এবং সরকার দলের হেলমেট বাহিনীর হামলার শিকার হচ্ছেন নেতাকর্মীরা। বাঞ্ছারামপুরে ছাত্রদল লিফলেট বিতরণকাল কনস্টেবল বিশ্বজিৎ কাছ থেকে গুলি চালিয়ে ছাত্রদল নেতা নয়ন মিয়াকে হত্যা করেছে। 

সমাবেশ সফল করার বিষয়ে তিনি বলেন, যেখানেই এ পর্যন্ত আমাদের সমাবেশ হয়েছে, সেখানে সরকারের হাইব্রিড নেতারা হামলা চালিয়েছে, কিন্তু সব সমাবেশ সফল হয়েছে। আমাদের কাছে যে খবর আছে, এরই মধ্যে নগরী ও এর আশপাশের এলাকায় লাখো নেতাকর্মী চলে এসেছেন। কুমিল্লার এ সমাবেশ হবে স্মরণকালের বড় সমাবেশ। 

সংবাদ সম্মলনে আরও বক্তব্য রাখেন দলের কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান বরকত উল্লাহ বুলু, সাংগঠনিক সস্পাদক মোস্তাক মিয়া, কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা বিএনপির আহ্বায়ক হাজি আমিন উর রশিদ ইয়াছিন। 

এ সময় জেলা বিএনপির সদস্য সচিব হাজি মো. জসিম উদ্দিন, বিএনপি নেতা কাউসার জামান বাপ্পী, ভিপি জসিম উদ্দিন, মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক উৎবাতুল বারী আবু, সদস্য সচিব ইউসুফ মোল্লা টিপুসহ দলের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন