ধৈর্য ধরে অপেক্ষা করবেন, গণসমাবেশ সফল হবে ইনশাআল্লাহ: মির্জা ফখরুল
jugantor
ধৈর্য ধরে অপেক্ষা করবেন, গণসমাবেশ সফল হবে ইনশাআল্লাহ: মির্জা ফখরুল

  যুগান্তর প্রতিবেদন  

০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ০০:১৫:৩৭  |  অনলাইন সংস্করণ

রাজশাহী সমাবেশস্থল মাদ্রাসা মাঠের পাশের ঈদগাহ মাঠের সড়কে অবস্থান করা বিএনপি নেতাকর্মীদের উদ্দেশে দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, আপনারা সবাই ধৈর্য ধরে অপেক্ষা করবেন। আগামীকালের গণসমাবেশ সফল হবে ইনশাআল্লাহ।

বিভাগীয় গণসমাবেশে যোগ দিতে শুক্রবার (২ ডিসেম্বর) বিকেল ৫টার দিকে বিমানযোগে তিনি রাজশাহীর হজরত শাহ মখদুম বিমানবন্দরে পৌঁছান। সেখানে স্থানীয় নেতারা তাকে শুভেচ্ছা জানান। পরে গাড়ি বহর নিয়ে সমাবেশস্থল মাদ্রাসা মাঠের পাশের ঈদগাহ মাঠের সড়কে আসেন। সেখানে ছাদখোলা গাড়িতে দাঁড়িয়ে নেতাকর্মীদের উদ্দেশে বক্তব্য দেন মির্জা ফখরুল।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, শত বাধা-বিপত্তি উপেক্ষা করে, কষ্ট করে আমরা গণতন্ত্রের মুক্তির জন্য উপস্থিত হয়েছি। এই শীতের মধ্যে আপনারা সারারাত খোলা আকাশের নিচে থেকে গণতন্ত্রের মুক্তির জন্য, দেশ ও নেত্রীর মুক্তির জন্য, ভোটের অধিকারের জন্য, আইনের শাসনের জন্য, বাংলাদেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষা করবার জন্য আজকে এখানে উপস্থিত হয়েছেন। সেই জন্য আপনাদের সবাইকে আন্তরিক অভিবাদন।

রাজশাহীর কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মাঠে বিএনপির হাজারো নেতাকর্মী জড়ো হয়েছেন। শুক্রবার সন্ধ্যায় কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে যায় ঈদগাহ মাঠ। সারারাত সেখানেই অবস্থান করবেন নেতাকর্মীরা। বিএনপি মহাসচিব রাজশাহীর কাজিহাটা এলাকার একটি হোটেলে রাত্রিযাপন করবেন বলে স্থানীয় নেতাকর্মীরা জানান।

ধৈর্য ধরে অপেক্ষা করবেন, গণসমাবেশ সফল হবে ইনশাআল্লাহ: মির্জা ফখরুল

 যুগান্তর প্রতিবেদন 
০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ১২:১৫ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

রাজশাহী সমাবেশস্থল মাদ্রাসা মাঠের পাশের ঈদগাহ মাঠের সড়কে অবস্থান করা বিএনপি নেতাকর্মীদের উদ্দেশে দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, আপনারা সবাই ধৈর্য ধরে অপেক্ষা করবেন। আগামীকালের গণসমাবেশ সফল হবে ইনশাআল্লাহ।

বিভাগীয় গণসমাবেশে যোগ দিতে শুক্রবার (২ ডিসেম্বর) বিকেল ৫টার দিকে বিমানযোগে তিনি রাজশাহীর হজরত শাহ মখদুম বিমানবন্দরে পৌঁছান। সেখানে স্থানীয় নেতারা তাকে শুভেচ্ছা জানান। পরে গাড়ি বহর নিয়ে সমাবেশস্থল মাদ্রাসা মাঠের পাশের ঈদগাহ মাঠের সড়কে আসেন। সেখানে ছাদখোলা গাড়িতে দাঁড়িয়ে নেতাকর্মীদের উদ্দেশে বক্তব্য দেন মির্জা ফখরুল।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, শত বাধা-বিপত্তি উপেক্ষা করে, কষ্ট করে আমরা গণতন্ত্রের মুক্তির জন্য উপস্থিত হয়েছি। এই শীতের মধ্যে আপনারা সারারাত খোলা আকাশের নিচে থেকে গণতন্ত্রের মুক্তির জন্য, দেশ ও নেত্রীর মুক্তির জন্য, ভোটের অধিকারের জন্য, আইনের শাসনের জন্য, বাংলাদেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষা করবার জন্য আজকে এখানে উপস্থিত হয়েছেন। সেই জন্য আপনাদের সবাইকে আন্তরিক অভিবাদন।

রাজশাহীর কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মাঠে বিএনপির হাজারো নেতাকর্মী জড়ো হয়েছেন। শুক্রবার সন্ধ্যায় কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে যায় ঈদগাহ মাঠ। সারারাত সেখানেই অবস্থান করবেন নেতাকর্মীরা। বিএনপি মহাসচিব রাজশাহীর কাজিহাটা এলাকার একটি হোটেলে রাত্রিযাপন করবেন বলে স্থানীয় নেতাকর্মীরা জানান।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন