২০ দলের বৈঠক

বিএনপির মেয়র প্রার্থীকে সমর্থনে জামায়াতকে ফের অনুরোধ

  যুগান্তর রিপোর্ট ১৪ জুলাই ২০১৮, ২৩:৩০ | অনলাইন সংস্করণ

২০ দলীয় জোট
২০ দলীয় জোটের বৈঠকে নেতারা। ছবি: যুগান্তর

সিলেট সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে জোটের একক প্রার্থীর বিষয়ে সুরাহা করতে পারেনি বিএনপি। তবে জোটের ঐক্যের স্বার্থে বিএনপির মেয়র প্রার্থীকে সমর্থন দিয়ে তার পক্ষে জামায়াতকে কাজ করার অনুরোধ জানিয়েছেন জোটের নেতারা।

শনিবার বিকালে রাজধানীর গুলশানে বিএনপির চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে ২০ দলীয় জোটের বৈঠকে এ অনুরোধ জানানো হয়।

বিকাল ৫টা থেকে দুই ঘণ্টার ওই বৈঠকে জোটের ঐক্য অটুট রাখার বিষয়ে একমত পোষণ করেছেন নেতারা। একই সঙ্গে দু-এক দিনের মধ্যে সিলেটে বিএনপির প্রার্থীর পক্ষে জামায়াত বাদে জোটের সব দল প্রচারণায় অংশ নেয়ারও সিদ্ধান্ত হয়েছে।

বৈঠকে সিলেট সিটি নির্বাচনে জামায়াতের প্রার্থীর পক্ষে ২০ দলীয় জোটের কয়েকটি শরিক দল প্রচার চালাচ্ছে বলে অভিযোগ করে বিএনপি। এ নিয়ে তারা ক্ষোভ জানিয়ে বলেছে এ ধরনের আচরণ জোটে ভুল বোঝাবুঝির সৃষ্টি করবে।

এ ছাড়াও সম্প্রতি জোটের অন্যতম শরিক এলডিপির সভাপতি কর্নেল (অব.) অলি আহমেদের ওপর সন্ত্রাসী হামলার নিন্দা জানিয়ে এ ঘটনার জন্য সরকারকে দায়ী করেছেন জোট নেতারা। তারা হামলাকারীদের গ্রেফতারের দাবি জানিয়েছেন।

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন।

বৈঠকে ছিলেন জোটের সমন্বয়কারী ও বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান, জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় পরিষদ সদস্য মোবারক হোসেন, বিজেপি চেয়ারম্যান ব্যারিস্টার আন্দালিভ রহমান পার্থ, এলডিপি মহাসচিব ড. রেদোয়ান আহমেদ, বাংলাদেশ ন্যাপের মহাসচিব এম গোলাম মোস্তফা ভুইয়া, এনডিপি চেয়ারম্যান খোন্দকার গোলাম মোর্ত্তজা, জাতীয় পার্টি (কাজী জাফর) আহসান হাবীব লিঙ্কন।

এছাড়াও এনপিপি চেয়ারম্যান ড. ফরিদুজ্জামান ফরহাদ, জাগপা সাধারণ সম্পাদক খন্দকার লুৎফর রহমান, ইসলামী ঐক্যজোটের মহাসচিব অধ্যাপক আবদুল করিম, ডিএল সাধারণ সম্পাদক সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি, লেবার পার্টি (একাংশ) চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান ইরান, (অপরাংশ) মহাসচিব হামদুল্লাহ আল মেহেদী, বিএমএল মহাসচিব শেখ জুলফিকার বুলবুল চৌধুরী, সাম্যবাদী দলের সাধারণ সম্পাদক কমরেড সাঈদ আহমেদ, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব মুফতি মহিউদ্দিন ইকরাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

জোটের একাধিক প্রার্থী থাকায় জাতীয় নির্বাচনে প্রভাব পড়বে না

পরে সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, ২০ দলীয় জোটের মধ্যে কোনো বিভেদ নেই। ঐক্য অটুট আছে। সিলেট সিটিতে স্থানীয় সরকার নির্বাচন হচ্ছে, এটি নিয়ে ঐক্য নষ্ট হওয়ার কোনো শঙ্কা নেই। এটি জাতীয় নির্বাচনের কোনো প্রভাব ফেলবে না।

দেশের বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি বিবেচনা করে সিলেটে জামায়াতে ইসলামী ২০ দলের প্রার্থী হিসেবে আরিফুল হককে সমর্থন করে তার পক্ষে কাজ করবে বলেও প্রত্যাশা করেন তিনি।

জোটের সমন্বয়ক ও বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান বলেন, মূলত সিলেটের মেয়র নির্বাচনে জামায়াতের প্রার্থীর বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। সেখানে এখনও তাদের প্রার্থী আছে। আমরা বসে নেই এখনও তাদের সঙ্গে আলোচনা চলছে। জামায়াতের প্রতিনিধি হিসেবে মোবারক হোসাইন ছিলেন। কিন্তু তার সিদ্ধান্ত নেয়ার এখতিয়ার নেই। তিনি আমাদের অনুরোধটি তার দলের নেতাদের জানাবেন। তারা যে সিদ্ধান্ত নেবে সেটিই সিদ্ধান্ত হবে।

ফখরুল বলেন, বিএনপিসহ জোটের নেতারা জামায়াত ইসলামকে গণতন্ত্র, ঐক্য ও জাতির স্বার্থে সিলেটের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন। আমরা আশা করব জোটের প্রার্থীর বিজয় ও ঐক্যের কথা বিবেচনা করে তারা সিদ্ধান্ত নেবেন। কারণ রাজনৈতিক দল হিসেবে তাদের নিজেদের সিদ্ধান্ত নেয়ার অধিকার আছে। আমরা কারও ওপর কোনো কিছু চাপিয়ে দিতে পারি না। আশা করব তারা সঠিক সময়ে সিদ্ধান্ত নেবেন। জোটের ঐক্য ও বিজয়ের কথা চিন্তা করে জামায়াতকে সিদ্ধান্ত নেয়ার আহ্বান জানাচ্ছি।

বৈঠকে জোটের শরিক জাতীয় পার্টির (কাজী জাফর) মহাসচিব মোস্তফা জামাল হায়দারের স্ত্রীর মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করা হয়েছে।

সূত্র জানায়, বৈঠকের বেশিরভাগ সময়ই জামায়াত ইস্যুতে কথা বলেন শরিক দলের নেতারা। শুরুতেই শরিক দলের এক নেতা জামায়াতের প্রতিনিধি মোবারক হোসেনকে অনুরোধ করেন সিলেটে বিএনপির প্রার্থী আরিফুল হক চৌধুরীকে সমর্থন দেয়ার জন্য।

জবাবে মোবারক বলেন, বিষয়টি দলকে জানাবেন। তখন তাকে উদ্দেশ করে শরিক দলের এক নেতা বলেন, আপনারা জেনে আসতে পারেন না কেন। সব বৈঠকেই তো বলেন জানাবেন।

মোবারক হোসেন বৈঠকে বলেন, ২০ দলীয় জোট ঐক্যবদ্ধ আছে। সিলেটে সিটি নির্বাচন হচ্ছে স্থানীয় নির্বাচন, জাতীয় নির্বাচন নয়। আমরা আগের সিটি নির্বাচনের কোনোটিতেই প্রার্থী দেইনি। জোটের বক্তব্য দলকে জানাব।

জামায়াতের প্রার্থীর পক্ষে বিভিন্ন শরিক দল কাজ করছে

সূত্র আরও জানায়, বৈঠকের এক পর্যায়ে কয়েকটি পত্রিকার উদ্ধৃতি দিয়ে শরিক দলের এক নেতা বলেন, সিলেটে জামায়াতের প্রার্থীর পক্ষে কোনো কোনো শরিক দল কাজ করছে। এ নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করে বিএনপি ও কয়েকটি শরিক দলও।

এ সময় জোটের আরেক নেতা স্মরণ করিয়ে দেন বিএনপির প্রার্থীকে ২০ দলীয় জোটের সমর্থনের সিদ্ধান্তের কথা। পরে বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয় জামায়াত বাদে জোটের সব দলের কেন্দ্রীয় নেতারা বিএনপির প্রার্থী আরিফুল হক চৌধুরীর পক্ষে প্রচারণায় অংশ নেবেন। দু-এক দিনের মধ্যেই যাবেন সিলেটে।

ঘটনাপ্রবাহ : রাজশাহী-বরিশাল-সিলেট সিটি নির্বাচন ২০১৮

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
.