শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে অবশ্যই রাজনৈতিক সংশ্লিষ্টতা ছিল: কাদের

প্রকাশ : ১০ আগস্ট ২০১৮, ২১:৫১ | অনলাইন সংস্করণ

  আশুলিয়া (ঢাকা) প্রতিনিধি

ছবি: যুগান্তর

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে অবশ্যই রাজনৈতিক সংশ্লিষ্টতা ছিল। বিষয়টি তদন্তপূর্বক দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

শুক্রবার বিকালে ঢাকা-আরিচা ও নবীনগর-চন্দ্রা মহাসড়কের সার্বিক পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণে এসে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এ কথা বলেন। 

আওয়ামী লীগ অফিসে হামলার বিষয়ে মন্ত্রী বলেন, শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের সময় আওয়ামী লীগ অফিসে হামলার বিষয়ে বিএনপি-জামায়াতের জড়িত থাকার অভিযোগ আছে। সরকার বিষয়গুলো খতিয়ে দেখছে। 

তদন্তে যদি কোনো প্রকার নাশকতার বিষয় প্রমাণিত হয় তবে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। রাজনৈতিক বদ মতলবে পরিচালিত হামলায় স্কুল ব্যাগ দিয়ে ছাত্র পরিচয়ে পাথর, চাকু, চাপাতিসহ বিভিন্ন অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে পরপর দুদিন আওয়ামী লীগের অফিসে যে হামলার ঘটনা ঘটেছে তা রাজনৈতিক হামলা। এখানে বিএনপির সুস্পষ্ট যোগসাজোশ রয়েছে।

মন্ত্রী বলেন, শিক্ষার্থীদের নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনের কারণে বিআরটিএর ওপর চাপ পড়েছে। এখন সকাল ৯টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত প্রচুর ভিড় থাকে অফিসগুলোতে। আশা করা যাচ্ছে এ থেকে বাংলাদেশের সড়ক পরিবহনে শৃঙ্খলা ফিরে আসবে। 

এবার ঈদযাত্রা আরও স্বস্তিদায়ক হবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, গত ঈদের মতো এবারও রাস্তা সচল থাকবে এবং যাত্রীরা স্বস্তিতে যাত্রা করতে পারবেন। 

গত ঈদে চন্দ্রা থেকে এলেঙ্গা পর্যন্ত রাস্তার কাজ চলায় ব্রিজগুলো উন্মুক্ত করা যায়নি। এবার যাত্রীদের ভোগান্তি কমাতে এবং চলাচল নির্বিঘ্ন করতে ২৩টি ব্রিজ উন্মুক্ত করে দেয়া হবে। 

দুর্ভোগ কমাতে ঈদের চার দিন আগ থেকে মহাসড়কের চন্দ্রা, কোনাবাড়ি, মেঘনা, গোমতি ও ভোলতাসহ বিভিন্ন স্থানে র‌্যাব মোতায়েন করা হবে।

মন্ত্রীর সঙ্গে এ সময় সড়ক ও জনপথ বিভাগের প্রধান প্রকৌশলী সবুজ উদ্দিন খান, আশুলিয়া জাতীয় শ্রমিকলীগের সাধারণ সম্পাদক ইমামা হোসেন, সড়ক ও জনপদের ইঞ্জিনিয়ার মহিব্বুল হোসেনসহ বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।