কবর জিয়ারতে বাধা দেয়ার চেষ্টা করা হয়েছে, অভিযোগ মওদুদের

  কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি ২১ আগস্ট ২০১৮, ১৬:৪৫ | অনলাইন সংস্করণ

মওদুদ আহমদ
মওদুদ আহমদ। ফাইল ছবি

ফের অবরুদ্ধ থাকার অভিযোগ করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মওদুদ আহমদ। তিনি অভিযোগ করেন, তার নির্বাচনী এলাকায় পীর ও দলীয় নেতাদের কবর জিয়ারতে বাধা দেয়ার চেষ্টা করা হয়েছে।

মঙ্গলবার বেলা সোয়া ১১টার দিকে নোয়াখালীর কবিরহাট উপজেলার নরোত্তমপুর ইউনিয়নে ছনখোলার দরবেশের মাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে বলে অভিযোগ করেন তিনি।

এ ঘটনার জন্য তিনি স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের কর্মীদের দায়ী করেছেন।

এ বিষয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত কবিরহাট পৌর বিএনপির সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, মওদুদ আহমদকে কবর জিয়ারতে বাধা দেয়া হয়। এবং তার সঙ্গে থাকা বিএনপি ও সহযোগী সংগঠনের কর্মীদের মারধর করে আওয়ামী লীগের কর্মীরা।

তিনি বলেন, এতে উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক আবুল রাশেদ, যুবদলের সহসাধারণ সম্পাদক নূর আলম চৌধুরী ও ছাত্রদল কর্মী হাফিজ উদ্দিন আহত হন। তাদের স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেয়া হয়।

এ বিষয়ে দুপুরে মওদুদ আহমদ বলেন, ১৬ আগস্ট থেকে তিনি নিজ বাড়িতে কার্যত বন্দী অবস্থায় রয়েছেন। দিনভর বাড়ির সামনে-পেছনে পুলিশ পাহারা থাকে, যাতে তিনি বাড়ির বাইরে বের হতে না পারেন।

তিনি আরও বলেন, মঙ্গলবার সকাল ৮টার দিকে পুলিশ আসার আগেই তিনি দলীয় কয়েকজন নেতা-কর্মীকে নিয়ে নির্বাচনী এলাকার কয়েকটি স্থানে গিয়ে গত কয়েক মাসে মৃত্যুবরণকারী দলের কয়েকজন নেতার এবং পীর-বুজুর্গের কবর জিয়ারত করেন।

বিএনপি নেতা মওদুদ অভিযোগ করেন, বেলা সোয়া ১১টার দিকে তিনি নির্বাচনী এলাকার কবিরহাট উপজেলার নরোত্তমপুরে যান ‘ছনখোলার দরবেশ হুজুর’ এবং উপজেলা বিএনপির সাবেক নেতা ও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মরহুম নিজাম উদ্দিনের কবর জিয়ারত করতে। তিনি সেখানে গিয়ে গাড়ি থেকে নামার পরই আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের কিছু লোক সেখানে এসে হট্টগোল শুরু করে এবং তাকে গালমন্দ করে কবর জিয়ারতে বাধা দেওয়ার চেষ্টা করে। কিন্তু এরই মধ্যে তিনি কবর জিয়ারত শেষ করে ওই স্থান ত্যাগ করে কোম্পানীগঞ্জে ফিরে যান।

মওদুদ বলেন, যে দলের লোকজন মাজার জিয়ারত করতে গেলে বাধা দেয়, সেই দল কীভাবে অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন করবে, তা বোধগম্য নয়। তারা যদি অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন করতে চায়, তাহলে সবার জন্য সমান সুযোগ নিশ্চিত করতে হবে।

তবে মওদুদ আহমদের অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে দাবি করেছেন কবিরহাট উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নুরুল আমিন।

তিনি বলেন, ‘মওদুদ সাহেব বরাবরই মিথ্যা কথা বলেন। ছনখোলার দরবেশের মাজার এলাকায় কোনো ঘটনাই ঘটেনি। এসব মিথ্যা কথা বলে তিনি আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে অপপ্রচার করছেন।’

এ বিষয়ে কবিরহাট থানার ওসি মির্জা মো. হাছান বলেন, ছনখোলার দরবেশের মাজারের পাশ দিয়ে ২১ আগস্টের কর্মসূচিতে উপজেলা সদরে আসার সময় ছাত্রলীগ কর্মীদের ওপর বিএনপির লোকজন হামলা করেছে। খবর পেয়ে তারা সেখানে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন। তবে বিএনপি নেতা মওদুদের কবর জিয়ারতে বাধা দেয়ার কোনো ঘটনা ঘটেনি।

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
.