খালেদা জিয়ার জামিন কেন বাতিল নয়, জানতে আদালতের নির্দেশ

প্রকাশ : ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৪:০১ | অনলাইন সংস্করণ

  যুগান্তর রিপোর্ট

ছবি- সংগৃহীত

জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার জামিন কেন বাতিল করা হবে না, এ বিষয়ে কারণ দর্শানোর নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। আগামী ৭ অক্টোবরের মধ্যে দুপক্ষের আইনজীবীকে এ বিষয়ে কারণ দর্শাতে বলা হয়েছে।

রোববার পুরনো কেন্দ্রীয় কারাগারের ভেতরে স্থাপিত ঢাকার পঞ্চম বিশেষ জজ আদালতের বিচারক ড. মো. আখতারুজ্জামান এ আদেশ দেন।

আজ আদালতে খালেদা জিয়া আইনজীবীরা তার জামিনের আবেদন করেন এবং খালেদা জিয়ার অনুপস্থিতিতে মামলা কার্যক্রম চলার যে আদেশ রয়েছে তার বিরুদ্ধে চ্যালেঞ্জ করে উচ্চ আদালতে রিভিশন করা হয়েছে বলে মামলার যুক্তি উপস্থাপন মুলতবি চান। 

একই সঙ্গে এ মামলায় দুই আসামি জিয়াউল ইসলাম মুন্না ও মনিরুল ইসলাম খানের পক্ষে করা অনাস্থা আবেদন নামঞ্জুর করেছেন আদালত।  

এ ছাড়া আসামি মনিরুল ইসলাম খানের জামিন বাতিল করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

বিচারক উভয়পক্ষের শুনানি শেষে দুই আসামির অনাস্থা আবেদন নামঞ্জুর করেন এবং ৭ অক্টোবরের মধ্যে উচ্চ আদালত রিভিশন ফাইলের বিষয়ে আদেশ দাখিলের জন্য নির্দেশ দেন। একই সঙ্গে খালেদা জিয়ার জামিন কেন বাতিল করা হবে না -এ বিষয়ে কারণ দর্শানোর নির্দেশ দেন।

তবে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলায় যুক্তিতর্ক উপস্থাপন সমাপ্ত করে রায় ঘোষণা করার জন্য রাষ্ট্রপক্ষের করা আবেদনের ওপর কোনো আদেশ দেননি আদালত।

আদালতে দুদকের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী মোশারফ হোসেন কাজল। খালেদা জিয়ার পক্ষে শুনানি করেন সানাউল্লাহ মিয়া ও মাসুদ আহমেদ তালুকদার।

এ ছাড়া আসামি জিয়াউল ইসলাম মুন্নার পক্ষে শুনানি করেন আমিনুল ইসলাম ও মনিরুল ইসলাম খানের পক্ষে ছিলেন আক্তারুজ্জামান।

উল্লেখ্য, গত ৮ ফেব্রুয়ারি জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট্র দুর্নীতির মামলায় খালেদা জিয়াকে ৫ বছর কারাদণ্ড দেন ঢাকার ৫ নম্বর বিশেষ জজ আদালতের বিচারক মো. আখতারুজ্জামান।

এর পর থেকে পুরান ঢাকার নাজিমউদ্দিন রোডের পুরনো কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দি আছেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়া।