শাজাহান খানকে জনসম্মুখে ক্ষমা চাইতে বলল জেলা আ’লীগ
jugantor
শাজাহান খানকে জনসম্মুখে ক্ষমা চাইতে বলল জেলা আ’লীগ

  টেকেরহাট (মাদারীপুর) প্রতিনিধি  

১৭ জুন ২০২১, ২২:২৬:৪০  |  অনলাইন সংস্করণ

শাজাহান খান এমপি দলীয় শৃঙ্খলা ভেঙে জামায়াত-শিবির সঙ্গে নিয়ে আওয়ামী লীগকে বিতর্কিত করেছেন। এমন অভিযোগ তুলে তাকে দলীয় নেতাকর্মীদের কাছে ক্ষমা চাইতে বললেন মাদারীপুর জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি শাহাবুদ্দিন আহম্মেদ মোল্লা।

তিনি বৃহস্পতিবার টেকেরহাট নুরজাহান কমিউনিটি সেন্টারে রাজৈর পৌরসভা আওয়ামী লীগ তৃণমূল নেতাকর্মীদের সঙ্গে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ আহ্বান জানান।

শাহাবুদ্দিন আহম্মেদ মোল্লা বলেন, শাজাহান খানের পিতাকে নিয়ে আমার দেওয়া একটি বক্তব্যকে কেন্দ্র করে মাদারীপুর উত্তাল। কিন্তু আমি যে কথা বলেছি, তার কোনো ব্যাখ্যা নেই তাদের কাছে। অথচ আমাকে বিভিন্ন সভা-সমাবেশ করে হেয় করা হচ্ছে। আপনি যদি মনে করেন আমি ভুল বলেছি, আপনি সেটা আওয়ামী লীগের দলীয় ফোরামে ব্যাখ্যা চাইতে পারতেন। অথচ সেটা না করে জামায়াত-শিবির, স্বাধীনতাবিরোধী বিএনপির ছেলেপেলে দিয়ে আমার বিরুদ্ধে কুৎসা রটাচ্ছেন। আপনি যেটা করেছেন, তার জন্যে আজ হোক বা কাল হোক আপনাকে মাদারীপুর আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের কাছে ক্ষমা চাইতে হবে।

শাজাহান খানকে উদ্দেশ করে জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি শাহাবুদ্দিন আরও বলেন, আপনি প্রিয় নেত্রী শেখ হাসিনা সম্পর্কে অসত্য কথা বলেছেন। আপনি বলেছেন, শেখ হাসিনা নাকি কোটালীপাড়া ও টুঙ্গিপাড়ায় আপনাকে ছাড়া মিটিং করতে পারেন নাই। আপনি মিথ্যাবাদী। একথা যদি আপনি প্রত্যাহার না করেন তাহলে আপনার বিরুদ্ধেও রাজৈর ও মাদারীপুরের মানুষ প্রতিবাদ সমাবেশ করবে এবং আপনাকে জনসম্মুখে ক্ষমা চাইতে হবে।

রাজৈর পৌর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন পৌর কমিটির আহ্বায়ক আব্দুস কুদ্দুস মিয়া। বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন- জেলা আওয়ামী লীগের কার্যকরী সদস্য সেকান্দার আলী শেখ, দেলোয়ার হোসেন দিলীপ, ইসুব আলী মিয়া, আল-আমীন মোল্লা, রাজৈর উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক জমির খান, সাংগঠনিক সম্পাদক সিদ্দিকুর রহমান বক্কর, রাজৈর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান শেখ ফজলুল হক বাবুল, পৌর মেয়র নাজমা রশিদ প্রমুখ।

শাজাহান খানকে জনসম্মুখে ক্ষমা চাইতে বলল জেলা আ’লীগ

 টেকেরহাট (মাদারীপুর) প্রতিনিধি 
১৭ জুন ২০২১, ১০:২৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

শাজাহান খান এমপি দলীয় শৃঙ্খলা ভেঙে জামায়াত-শিবির সঙ্গে নিয়ে আওয়ামী লীগকে বিতর্কিত করেছেন। এমন অভিযোগ তুলে তাকে দলীয় নেতাকর্মীদের কাছে ক্ষমা চাইতে বললেন মাদারীপুর জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি শাহাবুদ্দিন আহম্মেদ মোল্লা।

তিনি বৃহস্পতিবার টেকেরহাট নুরজাহান কমিউনিটি সেন্টারে রাজৈর পৌরসভা আওয়ামী লীগ তৃণমূল নেতাকর্মীদের সঙ্গে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ আহ্বান জানান।

শাহাবুদ্দিন আহম্মেদ মোল্লা বলেন, শাজাহান খানের পিতাকে নিয়ে আমার দেওয়া একটি বক্তব্যকে কেন্দ্র করে মাদারীপুর উত্তাল। কিন্তু আমি যে কথা বলেছি, তার কোনো ব্যাখ্যা নেই তাদের কাছে। অথচ আমাকে বিভিন্ন সভা-সমাবেশ করে হেয় করা হচ্ছে। আপনি যদি মনে করেন আমি ভুল বলেছি, আপনি সেটা আওয়ামী লীগের দলীয় ফোরামে ব্যাখ্যা চাইতে পারতেন। অথচ সেটা না করে জামায়াত-শিবির, স্বাধীনতাবিরোধী বিএনপির ছেলেপেলে দিয়ে আমার বিরুদ্ধে কুৎসা রটাচ্ছেন। আপনি যেটা করেছেন, তার জন্যে আজ হোক বা কাল হোক আপনাকে মাদারীপুর আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের কাছে ক্ষমা চাইতে হবে।

শাজাহান খানকে উদ্দেশ করে জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি শাহাবুদ্দিন আরও বলেন, আপনি প্রিয় নেত্রী শেখ হাসিনা সম্পর্কে অসত্য কথা বলেছেন। আপনি বলেছেন, শেখ হাসিনা নাকি কোটালীপাড়া ও টুঙ্গিপাড়ায় আপনাকে ছাড়া মিটিং করতে পারেন নাই। আপনি মিথ্যাবাদী। একথা যদি আপনি প্রত্যাহার না করেন তাহলে আপনার বিরুদ্ধেও রাজৈর ও মাদারীপুরের মানুষ প্রতিবাদ সমাবেশ করবে এবং আপনাকে জনসম্মুখে ক্ষমা চাইতে হবে।

রাজৈর পৌর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন পৌর কমিটির আহ্বায়ক আব্দুস কুদ্দুস মিয়া। বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন- জেলা আওয়ামী লীগের কার্যকরী সদস্য সেকান্দার আলী শেখ, দেলোয়ার হোসেন দিলীপ, ইসুব আলী মিয়া, আল-আমীন মোল্লা, রাজৈর উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক জমির খান, সাংগঠনিক সম্পাদক সিদ্দিকুর রহমান বক্কর, রাজৈর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান শেখ ফজলুল হক বাবুল, পৌর মেয়র নাজমা রশিদ প্রমুখ।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন