বাংলাদেশের উচিত তালেবানদের স্বীকৃতি দেওয়া: ডা. জাফরুল্লাহ
jugantor
বাংলাদেশের উচিত তালেবানদের স্বীকৃতি দেওয়া: ডা. জাফরুল্লাহ

  যুগান্তর প্রতিবেদন  

১৭ আগস্ট ২০২১, ১৭:৪৮:২২  |  অনলাইন সংস্করণ

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেছেন, তালেবানদের বাংলাদেশের স্বীকৃতি দেওয়া উচিত। আজকে যদি তাদের স্বীকৃতি না দেই তারা ভারতের হিন্দুত্ববাদের দিকে যাবে। উদারপন্থী ইসলামিক রাষ্ট্র না হয়ে তারা কঠোর ধর্মান্ধ রাষ্ট্র হবে। সে জন্য আমরা যদি তাদের স্বীকৃতি দেই, তাদের সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপন করি তাদের আমরা প্রভাবিত করতে পারবে। একটা উদার ইসলামিক রাষ্ট্র হবে।

মঙ্গলবার দুপুরে জাতীয় প্রেস ক্লাবে ভিআইপি লাউঞ্জে বাংলাদেশ লেবার পার্টি আয়োজিত 'করোনা ডেল্টা ভেরিয়েন্ট ও সীমান্ত ব্যবস্থাপনায় নাগরিক ভাবনা' শীর্ষক গোলটেবিল বৈঠকে লেবার পার্টির চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান ইরানের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

ডা. জাফরুল্লাহ বলেন, রোহিঙ্গাদের ট্রেনিং দিতে হবে যাতে তারা তালেবানদের মতো আরাকান মুক্ত করতে পারে।

এ সময় সরকারের সমালোচনা করে তিনি বলেন, গণতান্ত্রিক সরকার না থাকলে যা হয় তাই হচ্ছে। গুম বাড়ছে। আমেরিকা অনুরোধ করেছিল, আফগানদের সাময়িকভাবে জায়গা দিতে, গোয়ার্তুমি করে সরকার সেটা না করেছে।

প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে জাফরুল্লাহ বলেন, এটা একটা ভুল কাজ করলেন। এই ভুলটা করে জীবনের বড় স্বপ্ন একটা নোবেল প্রাইজ পাওয়া, তার থেকে দূরে চলে গেলেন। এই অনুরোধ রাখা উচিত ছিল।

অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা ছিলেন নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না। এতে আরও বক্তব্য দেন এবং উপস্থিত ছিলেন- ডিইউজের সাধারণ সম্পাদক শহীদুল ইসলাম, এনডিএম'র সাংগঠনিক সম্পাদক নূরুজ্জামান হীরা, গণস্বাস্থ্যের গণমাধ্যম উপদেষ্টা জাহাঙ্গীর আলম মিন্টু, সেবার পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান হিন্দুরদ্ম রামকৃষ্ণ সাহা, যুগ্ম আহ্বায়ক বাংলাদেশ ছাত্র যুব অধিকার পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক মো. ফারুক হোসাইন, লেবার পার্টির সাংগঠনিক সম্পাদক হুমায়ুন কবির, মানবাধিকার নেত্রী অ্যাডভোকেট জহুরা জুঁই, যুব মিশনের আহ্বায়ক ইমরুল কায়েস, ছাত্র মিশনের সভাপতি সৈয়দ মো. মিলন, ছাত্র মিশনের সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলামসহ প্রমুখ।

বাংলাদেশের উচিত তালেবানদের স্বীকৃতি দেওয়া: ডা. জাফরুল্লাহ

 যুগান্তর প্রতিবেদন 
১৭ আগস্ট ২০২১, ০৫:৪৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেছেন, তালেবানদের বাংলাদেশের স্বীকৃতি দেওয়া উচিত।  আজকে যদি তাদের স্বীকৃতি না দেই তারা ভারতের হিন্দুত্ববাদের দিকে যাবে। উদারপন্থী ইসলামিক রাষ্ট্র না হয়ে তারা কঠোর ধর্মান্ধ রাষ্ট্র হবে।  সে জন্য আমরা যদি তাদের স্বীকৃতি দেই, তাদের সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপন করি তাদের আমরা প্রভাবিত করতে পারবে।  একটা উদার ইসলামিক রাষ্ট্র হবে।

মঙ্গলবার দুপুরে জাতীয় প্রেস ক্লাবে ভিআইপি লাউঞ্জে বাংলাদেশ লেবার পার্টি আয়োজিত 'করোনা ডেল্টা ভেরিয়েন্ট ও সীমান্ত ব্যবস্থাপনায় নাগরিক ভাবনা' শীর্ষক গোলটেবিল বৈঠকে লেবার পার্টির চেয়ারম্যান মোস্তাফিজুর রহমান ইরানের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। 

ডা. জাফরুল্লাহ বলেন, রোহিঙ্গাদের ট্রেনিং দিতে হবে যাতে তারা তালেবানদের মতো আরাকান মুক্ত করতে পারে। 

এ সময় সরকারের সমালোচনা করে তিনি বলেন, গণতান্ত্রিক সরকার না থাকলে যা হয় তাই হচ্ছে।  গুম বাড়ছে।  আমেরিকা অনুরোধ করেছিল, আফগানদের সাময়িকভাবে জায়গা দিতে, গোয়ার্তুমি করে সরকার সেটা না করেছে।

প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে জাফরুল্লাহ বলেন, এটা একটা ভুল কাজ করলেন।  এই ভুলটা করে জীবনের বড় স্বপ্ন একটা নোবেল প্রাইজ পাওয়া, তার থেকে দূরে চলে গেলেন। এই অনুরোধ রাখা উচিত ছিল।

অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তা ছিলেন নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না।  এতে আরও বক্তব্য দেন এবং উপস্থিত ছিলেন- ডিইউজের সাধারণ সম্পাদক শহীদুল ইসলাম, এনডিএম'র সাংগঠনিক সম্পাদক নূরুজ্জামান হীরা, গণস্বাস্থ্যের গণমাধ্যম উপদেষ্টা জাহাঙ্গীর আলম মিন্টু, সেবার পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান হিন্দুরদ্ম রামকৃষ্ণ সাহা, যুগ্ম আহ্বায়ক বাংলাদেশ ছাত্র যুব অধিকার পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক মো. ফারুক হোসাইন, লেবার পার্টির সাংগঠনিক সম্পাদক হুমায়ুন কবির, মানবাধিকার নেত্রী অ্যাডভোকেট জহুরা জুঁই, যুব মিশনের আহ্বায়ক ইমরুল কায়েস, ছাত্র মিশনের সভাপতি সৈয়দ মো. মিলন, ছাত্র মিশনের সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলামসহ প্রমুখ।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : আফগানিস্তানে তালেবানের পুনরুত্থান