টুইটারের সব অফিস বন্ধ, চলছে ছাঁটাই
jugantor
টুইটারের সব অফিস বন্ধ, চলছে ছাঁটাই

  অনলাইন ডেস্ক  

০৪ নভেম্বর ২০২২, ২৩:১৬:১৯  |  অনলাইন সংস্করণ

টুইটারের কর্তৃত্ব নেওয়ার এক সপ্তাহের মধ্যেই কর্মী ছাঁটাইয়ের চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেন ইলন মাস্ক। শুক্রবার থেকে কর্মী ছাঁটাই শুরু করেপ্রতিষ্ঠানটি। একইসঙ্গে সব কার্যালয় অস্থায়ীভাবে বন্ধ করে দিয়েছে টুইটার।

টুইটার কর্তৃপক্ষ জানায়, স্থানীয় সময় শুক্রবার (৪ নভেম্বর) সকাল ৯টায় (বাংলাদেশ সময় রাত ১০টা) ই-মেইলের মাধ্যমে ও প্রতিটি অফিস সাময়িকভাবে বন্ধ করে দেওয়ার চূড়ান্ত বার্তা কর্মীদের জানিয়ে দেওয়া হবে।

বৃহস্পতিবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক মেইলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমটির পক্ষ থেকে বলা হয়, টুইটারকে স্বাভাবিক পথে নিয়ে যেতে আমরা বিশ্বব্যাপী কর্মী ছাটাইয়ের মতো কঠিন প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে যাচ্ছি। আপাতত কর্মীদের নিরাপত্তা, ব্যবস্থাপনা ও গ্রাহকদের তথ্য সংগ্রহের স্বার্থে আমাদের সবগুলো অফিস বন্ধ থাকবে।

এতে আরও বলা হয়, কেউ যদি অফিসের পথে ‍রওনা দিয়ে থাকেন, তাহলে বাড়িতে ফিরে যান। আর যাদের ছাঁটাই করা হয়নি, তারা তাদের কর্মক্ষেত্রে ব্যবহৃত মেইলে বার্তা পাবেন। আর যাদের ছাঁটাই করা হয়েছে, তারা তাদের ব্যক্তিগত মেইলে পরবর্তী করণীয় সংবলিত বার্তা পাবেন।

অবশ্য এসবের ইঙ্গিত মালিক হওয়ার আগেই দিয়েছিলেন ইলন মাস্ক। তিনি প্রতিষ্ঠানটির অতিরিক্ত খরচ কমাতে চান। সূত্র: রয়টার্স, টাইমস অব ইন্ডিয়া

টুইটারের সব অফিস বন্ধ, চলছে ছাঁটাই

 অনলাইন ডেস্ক 
০৪ নভেম্বর ২০২২, ১১:১৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

টুইটারের কর্তৃত্ব নেওয়ার এক সপ্তাহের মধ্যেই কর্মী ছাঁটাইয়ের চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেন ইলন মাস্ক। শুক্রবার থেকে কর্মী ছাঁটাই শুরু করে প্রতিষ্ঠানটি। একইসঙ্গে সব কার্যালয় অস্থায়ীভাবে বন্ধ করে দিয়েছে টুইটার।

টুইটার কর্তৃপক্ষ জানায়, স্থানীয় সময় শুক্রবার (৪ নভেম্বর) সকাল ৯টায় (বাংলাদেশ সময় রাত ১০টা) ই-মেইলের মাধ্যমে ও প্রতিটি অফিস সাময়িকভাবে বন্ধ করে দেওয়ার চূড়ান্ত বার্তা কর্মীদের জানিয়ে দেওয়া হবে।

বৃহস্পতিবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক মেইলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমটির পক্ষ থেকে বলা হয়, টুইটারকে স্বাভাবিক পথে নিয়ে যেতে আমরা বিশ্বব্যাপী কর্মী ছাটাইয়ের মতো কঠিন প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে যাচ্ছি। আপাতত কর্মীদের নিরাপত্তা, ব্যবস্থাপনা ও গ্রাহকদের তথ্য সংগ্রহের স্বার্থে আমাদের সবগুলো অফিস বন্ধ থাকবে।

এতে আরও বলা হয়, কেউ যদি অফিসের পথে ‍রওনা দিয়ে থাকেন, তাহলে বাড়িতে ফিরে যান। আর যাদের ছাঁটাই করা হয়নি, তারা তাদের কর্মক্ষেত্রে ব্যবহৃত মেইলে বার্তা পাবেন। আর যাদের ছাঁটাই করা হয়েছে, তারা তাদের ব্যক্তিগত মেইলে পরবর্তী করণীয় সংবলিত বার্তা পাবেন।

অবশ্য এসবের ইঙ্গিত মালিক হওয়ার আগেই দিয়েছিলেন ইলন মাস্ক। তিনি প্রতিষ্ঠানটির অতিরিক্ত খরচ কমাতে চান। সূত্র: রয়টার্স, টাইমস অব ইন্ডিয়া

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন