ঐতিহাসিক ম্যাচে সেই বাংলাদেশ!

  যোবায়ের আহসান জাবের ২১ অক্টোবর ২০১৮, ২২:১৬ | অনলাইন সংস্করণ

বাংলাদেশ

ইমরুল-সাইফউদ্দিনের দুরন্ত ব্যাটিংয়ে দলীয় রান ২৭১ সংগ্রহের পর স্বাভাবিকভাবেই টাইগার সমর্থকরা জয়ের স্বপ্ন দেখেছিলেন। কিন্তু উদ্বোধনী জুটিতে ৭ ওভারে বিনা উইকেটে ৪৮ রান করার পর টাইগার শিবিরে চিন্তার ভাজ পড়েছিল। কিন্তু অষ্টম ওভারের প্রথম বলেই মুস্তাফিজের অসাধারণ ডেলিভারিতে উদ্বোধনী জুটি ভেঙে যাওয়ার পরই মনে হচ্ছিল দিনটি বাংলাদেশেরই হবে। পরে ১৫ রানের ব্যবধানে ৩ উইকেট হারিয়ে ম্যাচ থেকে দৃশ্যত ছিটকে পড়ে জিম্বাবুয়ে। এরপর খেলায় খেলায় ফিরে আসতে পারেনি সফরকারীরা। শেষ পর্যন্ত ২৮ রানে জয় পায় তামিম-সাকিববিহীন বাংলাদেশ।

সিরিজের প্রথম ম্যাচটা জিতে বাংলাদেশ দলীয়ভাবে আরও একটি ইতিহাসের অংশিদার হলো। কারণ এ ম্যাচটি ছিল ওয়ানডেতে বাংলাদেশের ৩৫০তম ম্যাচ। একদিনের ক্রিকেটের ঐতিহাসিক এ দিনটিও হয়েছে বাংলাদেশের। এর আগে শততম ম্যাচটিও ছিল বাংলাদেশের।

শততম ম্যাচে ভারতের বিপক্ষে জয়

২০০৪ সালের ডিসেম্বরে ভারতের বিপক্ষে ওই ম্যাচে হাবিবুল বাশার সুমনের নেতৃত্বে ১০০তম ওয়ানডে ম্যাচ খেলে বাংলাদেশ দল। বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে সেই ম্যাচে প্রথমে ব্যাট করে ২২৯ রান সংগ্রহ করে সৌরভ গাঙ্গুলীর ভারতের বিপক্ষে ১৫ রানে জয় পায় স্বাগতিকরা।

ভারতের বিপক্ষে বাংলাদেশের প্রথম জয়। তার আগে ভারতের বিপক্ষে টানা ১২ ম্যাচে পরাজিত হয় বাংলাদেশ। শুধু তাই নয়, ১০০তম ম্যাচের মধ্যে মাত্র ৬টিতে জয় পায় বাংলাদেশ। প্রথম জয় আসে কেনিয়ার বিপক্ষে। এরপর স্কটল্যান্ড, পাকিস্তান, জিম্বাবুয়ে, হংকং এবং ভারতকে পরাজিত করেছিল বাংলাদেশ।

২০০তম ম্যাচে গেইলদের বিপক্ষে জয়

বাংলাদেশ দল নিজেদের ২০০তম ওয়ানডে ম্যাচ খেলে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে। ২০০৯ সালের জুলাই মাসে ক্যারিবীয় সফরে সাকিব আল হাসানের নেতৃত্বে ২৭৫ রানের টার্গেটে ব্যাট করে ৩ উইকেটের জয় পায় বাংলাদেশ দল।

ধোনিদের বিপক্ষে ৩০০তম ম্যাচ

তবে ৩০০তম ম্যাচটি বাংলাদেশের হয়নি। ২০১৫ সালে মেলবোর্নে আইসিসি বিশ্বকাপে ভারতের বিপক্ষে বাংলাদেশ দল নিজেদের ৩০০তম ওয়ানডে ম্যাচ খেলে। সেই ম্যাচে ৩০৩ রানের টার্গেট তাড়া করতে নেমে ১৯৩ রানেই অলআউট মাশরাফি বিন মুর্তজার নেতৃত্বাধীন বাংলাদেশ দল। ১০৯ রানে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে মহেন্দ্র সিং ধোনির দল।

প্রথম ম্যাচে ইমরান খানের মুখোমুখি বাংলাদেশ

১৯৮৬ সালে প্রথম আন্তর্জাতিক ওয়ানডে ম্যাচ খেলার সুযোগ পায় বাংলাদেশ। পাকিস্তানের বিপক্ষে শ্রীলংকার মুরাতুয়ায় গাজী আশরাফ হোসেন লিপুর নেতৃত্বে প্রথম ওয়ানডে ম্যাচ খেলে বাংলাদেশ দল।

সেই ম্যাচে প্রথমে ব্যাট করে ৯৪ রানেই অলআউট হয়ে যায় সফরকারী বাংলাদেশ। ৭ উইকেটের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে ইমরান খানের নেতৃত্বাধীন পাকিস্তান ক্রিকেট দল।

রোববার মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচ খেলছে বাংলাদেশ দল। আর এই ম্যাচের মধ্য দিয়ে আন্তর্জাতিকে ৩৫০তম ওয়ানডে খেলছে টাইগাররা।

৫০তম ম্যাচে সেই পাকিস্তান

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অভিষেকের প্রায় ১৬ বছর পর ২০০২ সালের জানুয়ারিতে সেই পাকিস্তানের বিপক্ষেই বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ খেলেছিল নিজেদের ৫০তম ওয়ানডে। খালেদ মাসুদ পাইলটের নেতৃত্বে সেদিন ২২০ রান করেও ওয়াকার ইউনুসের পাকিস্তানের কাছে ৮ উইকেটে পরাজিত হয় বাংলাদেশ।

পরিসংখ্যানে বাংলাদেশ

অতীতের ৩৫০ ওয়ানডের মধ্যে বাংলাদেশ জিতেছে ১১৪ ম্যাচে। আর হেরেছে ২২৯ ম্যাচে। তবে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে এনিয়ে ৭০ ম্যাচে মুখোমুখি বাংলাদেশ দল। এ পর্যন্ত ম্যাচের দেখায় ৪২ খেলায় জিতেছে বাংলাদেশ দল। হেরেছে ২৮ ম্যাচে।

সবশেষ জানুয়ারিতে ঘরের মাঠে ত্রিদেশীয় সিরিজ খেলেছিল বাংলাদেশ দল। আট মাস পর ফের দেশের মাঠে আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলছে টাইগাররা।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর
jugantor-people-ইমরুল-কায়েস-103354-5-1

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter