২৮ বছরে সবচেয়ে কম রানে প্রথম ইনিংস ঘোষণা

প্রকাশ : ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৪:৪৪ | অনলাইন সংস্করণ

  স্পোর্টস ডেস্ক

৭ উইকেটে ৪৪৩ রান তুলে প্রথম ইনিংস ঘোষণা করেছিল ভারত। শেষ বিকালে অস্ট্রেলিয়াকে ব্যাট করতে পাঠিয়েছিলেন বিরাট কোহলি। উদ্দেশ্য ছিল দু’একটি উইকেট তুলে নিয়ে স্বাগতিকদের চাপে রাখা। তবে শেষ পর্যন্ত তা পারেনি টিম ইন্ডিয়া। শেষবেলায় নির্বিঘ্নে ৬ ওভার কাটিয়ে দিয়েছেন দুই ওপেনার মার্কাস হ্যারিস ও অ্যারন ফিঞ্চ। বিনা উইকেটে ৮ রান নিয়ে দ্বিতীয় দিন শেষ করেছেন স্বাগতিকরা।

প্রথম দিনের ২ উইকেটে ২১৫ রান নিয়ে তৃতীয় দিন ব্যাট করতে নামে ভারত। চেতেশ্বর পূজারা ৬৮ ও  বিরাট কোহলি ৪৭ রান নিয়ে খেলা শুরু করেন। তাদের ব্যাটে স্বাচ্ছন্দ্যে এগিয়ে যাচ্ছিলেন সফরকারীরা। দুজনই দৌড়াচ্ছিলেন সেঞ্চুরির পথে। তবে হঠাৎই খেই হারান কোহলি। ২০৪ বলে ৯ চারে ৮২ রান করে মিচেল স্টার্কের শিকার হন তিনি। তাতে ভাঙে পূজারার সঙ্গে তার ১৭০ রানের জুটি।

ভারতীয় অধিনায়ক না পারলেও পরে সেঞ্চুরি তুলে নেন পূজারা। তবে তিন অংকের ম্যাজিক ফিগার স্পর্শের পর খুব বেশিক্ষণ স্থায়ী হতে পারেননি তিনি। প্যাট কামিন্সের দুর্দান্ত ডেলিভেরিতে স্ট্যাম্প উপড়ে যায় তার। ফেরার আগে ৩১৯ বলে ১০ বাউন্ডারিতে ১০৭ রান করেন 'নাম্বার থ্রি'।

 

পঞ্চম উইকেটে খেলা ধরার চেষ্টা করেন আজিঙ্কা রাহানে ও রোহিত শর্মা। ভালোই এগোচ্ছিলেন তারা। কিন্তু হুট করে বিপথগামী হন রাহানে। নাথান লায়নের এলবিডব্লিউর শিকার হয়ে ব্যক্তিগত ৩৬ রানে ফেরেন তিনি। ফেরার আগে রোহিতের সঙ্গে ৬২ রানের জুটি গড়েন এ মিডল অর্ডার।

পরে রিশভ পান্তকে নিয়ে জুটি বাঁধেন রোহিত। পান্তও ঠাণ্ডা মাথায় খেলতে গিয়ে হঠাৎ মেজাজ হারিয়ে ফেলেন। রোহিতের সঙ্গে ৭৬ রানের জুটি গড়ে ব্যক্তিগত ৩৯ করে সাজঘরের পথ ধরেন তিনি। ফের শিকারি মিচেল স্টার্ক। খানিক বাদে মাত্র ৪ রান করে জস হ্যাজলউডের শিকার বনে রবিন্দ্র জাদেজা ফিরলে  ইনিংস ঘোষণা করেন কোহলি। ১১৪ বলে ৫ চারে ৬৩ রানে অপরাজিত থাকেন রোহিত।

সব মিলিয়ে ৭ উইকেটে ৪৪৩ রান করে ইনিংস ঘোষণা করে ভারত। গেল ২৮ বছরে টেস্ট ক্রিকেটে যা সবচেয়ে কম রানে প্রথম ইনিংস ঘোষণা। প্রথম দিন হাফসেঞ্চুরি তুলে নেন মায়াঙ্ক আগারওয়াল। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ৩ উইকেট নেন প্যাট কামিন্স। মিচেল স্টার্কের শিকার ২টি। ১টি করে উইকেট ঝুলিতে ভরেন জস হ্যাজলউড ও নাথান লায়ন।