রোনাল্ডোর গোলে রেকর্ড সুপার কাপ জুভেন্টাসের

  স্পোর্টস ডেস্ক ১৭ জানুয়ারি ২০১৯, ১০:৪০ | অনলাইন সংস্করণ

জুভেন্টাস,

ফর্মের মগডালে আছেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো। জুভেন্টাসের হয়ে প্রথম কোনো ফাইনাল খেলতে নেমেই জ্বলে উঠলেন তিনি। তার গোলে এসি মিলানকে ১-০ ব্যবধানে হারিয়ে ইতালিয়ান সুপার কাপ জিতেছেন জুভরা। টানা দুবার এ শিরোপা ঘরে তুললেন তারা।

গেল মৌসুমে সিরি ও ইতালিয়ান কাপ জেতে জুভেন্টাস। ফলে ২০১৭-১৮ মৌসুমে ইতালিয়ান কাপের রানার্সআপ হিসেবে সুপার কাপে খেলার সুযোগ পায় মিলান। বুধবার রাতে সৌদি আরবের জেদ্দায় কিং আবদুল্লাহ স্পোর্টস সিটি স্টেডিয়ামে মুখোমুখি হয় দুদল।

শুরু থেকেই মিলানের ওপর ঝাঁপিয়ে পড়ে জুভেন্টাস। মুহুর্মুহু আক্রমণে প্রতিপক্ষকে ব্যতিব্যস্ত রাখেন জুভরা। তবে প্রথমার্ধে গোলমুখ খুলতে পারেননি তারা। এ অর্ধে দুটি সহজ সুযোগ নষ্ট হয় তাদের। ৩১ মিনিটে পাল্টা-আক্রমণে জর্জো কিয়েল্লিনির ভলি অল্পের জন্য লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়। আর ৪৩ মিনিটে রোনাল্ডোর বাইসাইকেল কিক ক্রসবার ঘেঁষে বাইরে চলে যায়।

জুভেন্টাসের অপেক্ষার পালা শেষ হয় ৬১ মিনিটে। কাঙ্ক্ষিত সাফল্য এনে দেন সিআর সেভেন। মিরালেম পিয়ানিচের চিপশটে বাড়ানো বল হেডে ঠিকানায় পাঠান তিনি। এ নিয়ে নতুন আবাসে সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ২৬ ম্যাচে ১৬ গোল করলেন পর্তুগিজ যুবরাজ।

এগিয়ে গিয়ে আত্মবিশ্বাসী হয়ে ওঠে জুভেন্টাস। প্রতিপক্ষ শিবিরে তোলে আক্রমণের ঢেউ। সেই তোড় সামলাতে গিয়ে ৭৪ মিনিটে বড় ধাক্কা খায় মিলান। এমরে কানকে ফাউল করে লালকার্ড দেখেন কেসিয়ে। ফলে ১০ জনের দলে পরিণত হন দ্য রেড অ্যান্ড ব্ল্যাকরা। বাকি সময়ে আর ঘুরে দাঁড়াতে পারেননি তারা।

এ জয়ে অনন্য রেকর্ড গড়ল জুভেন্টাস। রেকর্ড আটবার সুপার কাপ চ্যাম্পিয়ন হলেন তুরিনের বুড়িরা। সাতবার এ ট্রফি ক্যাবিনেটে ভরে পরের স্থানেই এসি মিলান।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×