শুধু শসার জুস খেয়েছি: ওয়ার্নার

  স্পোর্টস ডেস্ক ২৬ মার্চ ২০১৯, ০৯:৫৪ | অনলাইন সংস্করণ

ওয়ার্নার,

বল টেম্পারিং কেলেঙ্কারিতে প্রায় এক বছর ক্রিকেট থেকে দূরে ছিলেন ডেভিড ওয়ার্নার। চলতি বছরের শুরুতে খেলতে এসেছিলেন বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল)। তবে কনুইয়ের ইনজুরির কারণে দেশে ফিরে যেতে হয় তাকে। শেষ পর্যন্ত ছুরি-কাঁচির নিচেও যেতে হয়। সফল অস্ত্রোপচার শেষে ছিলেন পুনর্বাসনে। সুস্থ হয়ে খেলছেন ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল)। সানরাইজার্স হায়দরাবাদের হয়ে প্রথম ম্যাচেই খেলেছেন ৫৩ বলে ৮৫ রানের টর্নেডো ইনিংস।

শেষ পর্যন্ত অবশ্য ওয়ার্নারের দল জিততে পারেনি। তবে প্রত্যাবর্তনটা দারুণ হয়েছে অজি ওপেনারের। নিষেধাজ্ঞার কারণে গেলবার আইপিএলে খেলতে পারেননি তিনি। এবারও অধিনায়কত্ব পাচ্ছেন না। সর্বোপরি, কলকাতা নাইট রাইডার্সের বিপক্ষে ম্যাচের আগে বেশ নার্ভাস ছিলেন বিধ্বংসী ওপেনার।

খোদ ওয়ার্নার নিজেই জানিয়েছেন সেটা, স্বভাবতই ম্যাচের আগে আমি একটু নার্ভাস থাকি। এবার আরও বেশি ছিলাম। দলের সঙ্গে আবার খেলতে পেরে ভালো লাগছিল। তবে সকাল থেকে কিছুই খাইনি। শুধু শসার জুস খেয়েছি। ব্যাটিংয়ে নামার আগে বেশ কয়েকবার বাথরুমেও গিয়েছি। নার্ভাসনেসের কারণেই এ অবস্থা হয়েছিল।

বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ওপেন করবেন কোন দুজন, সেটা নিয়ে গেল কয়েকদিন ধরেই চলছে আলোচনা। পাকিস্তানের বিপক্ষে টানা দুই সেঞ্চুরি করেছেন অ্যারন ফিঞ্চ, উসমান খাজাও আছেন দারুণ ফর্মে। আইপিএলের দ্বাদশ আসরে শুরুটাও দুর্দান্তভাবে করলেন ওয়ার্নার।

গেল বছরের মার্চে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে কেপটাউন টেস্টে বল টেম্পারিং কাণ্ডে জড়িয়ে পড়েন তিন অস্ট্রেলিয়ান ক্রিকেটার স্মিথ, ওয়ার্নার ও ক্যামেরন ব্যানক্রফট। এ ঘটনায় স্মিথ-ওয়ার্নারকে এক বছর করে এবং ব্যানক্রফটকে নয় মাস আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নিষিদ্ধ করে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ)। ইতিমধ্যে তৃতীয়জনের নির্বাসন শেষ হয়েছে। প্রথম দুইজনের নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ শেষ হবে আগামী ২৮ মার্চ।

ঘটনাপ্রবাহ : আইপিএল-২০১৯

আরও
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×