এ মাঠে খেলার কথা ছিল সেই ক্রিকেটারের!

  স্পোর্টস ডেস্ক ২০ এপ্রিল ২০১৯, ২২:২৮ | অনলাইন সংস্করণ

ডি ল্যাঞ্জ

স্কটল্যান্ডের জাতীয় দলের ক্রিকেটার কন ডি ল্যাঙ্গের অকাল মৃত্যুতে শোকে আচ্ছন্ন ক্রিকেট বিশ্ব। তার মৃত্যুতে ক্রীড়াঙ্গনে নেমে এসেছে শোকের ছায়া। প্রতিভাবান এই ক্রিকেটারের মৃত্যুতে দক্ষিণ আফ্রিকার কিংবদন্তি ক্রিকেটাররা শোক প্রকাশ করেছেন।

ল্যাঙ্গের সম্মানে স্কটল্যান্ডের ঘরোয়া ক্রিকেট ম্যাচ শুরুর আগে দুই দলের খেলোয়াড়রা এক মিনিট নিরবতা পালন করেন। এ মাঠে খেলার কথা ছিল তার। কিন্তু মৃত্যু তার স্বপ্ন কেড়ে নিয়েছে।এছাড়া ঘরোয়া ক্রিকেটে নারীদের ম্যাচেও এক মিনিট নিরবতা পালনের নির্দেশ দেয় স্কটল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড।

১৯৮১ সালের ১১ ফেব্রুয়ারি কেপ প্রভিন্সের বেলবিল্লেতে জন্মগ্রহণ করেন কন ডি উইট ডি ল্যাঞ্জ। ১৯৯৭ সালে ঘরোয়া ক্রিকেটে অভিষেক হয় তার।

২০১৫ সালে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি ম্যাচের মধ্য দিয়ে আন্তর্জাতিকে অভিষেক হয় ডি ল্যাঞ্জের। জাতীয় দলের হয়ে ১৩টি ওয়ানডে ম্যাচে ১৬ উইকেট এবং ৮টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচে ৮ উইকেট শিকার করেন এই পেস বোলিং অলরাউন্ডার।

দীর্ঘদিন ব্রেইন টিউমারে আক্রান্ত ছিলেন ডি ল্যাঙ্গে। মস্তিষ্কের টিউমার নিয়েই নর্থাম্পটনশায়ারের জন্য খেলেছিলেন তিনি। অবশেষে মৃত্যুর কাছে হার মানলেন ল্যাঙ্গে।

ডি ল্যাঙ্গের চিকিৎসার জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা করে স্কটল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড। তার উন্নত চিকিৎসার জন্য ফান্ড সংগ্রহের জন্য ক্যাম্পেইনও করা হয়েছিল।

তার মৃত্যুতে স্কটল্যান্ডজুড়ে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

স্কটল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডের চেয়ারম্যান টনি ব্রায়ান বলেন, ‘এত অল্প বয়সে কন ডি ল্যাঙ্গের চলে যাওয়াটা সত্যিই মর্মান্তিক। সে স্কটল্যান্ড এবং দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেটের একজন অ্যাম্বাসেডর ছিল। শুধু জাতীয় দল নয়, ঘরোয়া ক্রিকেটেও নিজের সেরাটা বিলিয়ে দিত ডি ল্যাঙ্গে। কোচ হিসেবেও নিজের প্রতিভার ছাপ রেখেছিল সে।’

ডি ল্যাঞ্জের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন দক্ষিণ আফ্রিকার কিংবদন্তি ক্রিকেটার জ্যাক কেলিস। ক্রিকেট থেকে অবসরে গিয়ে কোচিং পেশায় জড়িয়ে যাওয়া অলরাউন্ডার ক্যালিস টুইটবার্তায় লেখেন, তার মৃত্যুতে আমরা শোকাহত। তার বিদেহী আত্মার জন্য প্রার্থনা এবং পরিবারের প্রতি সমবেদনা রইল।

ডি ল্যাঙ্গের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করে দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক তারকা ক্রিকেটার অ্যালান ডোনাল্ড লেখেন, ল্যাঙ্গে একজন প্রতিভাবান ক্রিকেটার ছিলেন। কিন্তু অল্প বয়সেই সে আমাদের শোকের সাগরে ভাসিয়ে চলে গেল। তার পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা রইল।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×