ধোনির ‘নোংরা রাজনীতির’ খবর ফাঁস করবেন যুবরাজের বাবা!

  স্পোর্টস ডেস্ক ১৬ জুন ২০১৯, ১৮:১৬ | অনলাইন সংস্করণ

ধোনির ‘নোংরা রাজনীতির’ খবর ফাঁস করবেন যুবরাজের বাবা!

ইংল্যান্ড বিশ্বকাপের পর্দা ওঠার আগেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দেবেন বলে আভাস দিয়ে রেখেছিলেন ভারতীয় ক্রিকেটার যুবরাজ সিং।

সে অনুসারে গত ১০ জুন সব ধরনের ক্রিকেট থেকে সরে যাওয়ার ঘোষণা দেন তিনি। বিশ্বকাপের মাঝেও ক্রীড়াঙ্গনে আলোচনার কেন্দ্রবিন্দু হয়ে ওঠেন যুবরাজ।

সেই আলোচনার রেশ কাটতে-না-কাটতেই ফের আলোচনার তুঙ্গে রয়েছেন ২০১১ সালে ভারতের বিশ্বকাপ জয়ের অন্যতম এই নায়ক।

আর এর জন্য কৃতিত্ব বা দায়ী যা-ই বলা হোক; সেটা যুবরাজের বাবাই পাচ্ছেন। ছেলের অবসরের পর রীতিমতো বোমা ফাটিয়েছেন বাবা যোগরাজ সিং। তিনিও ভারতীয় ক্রিকেটের সাবেক পেসার।

ভারতীয় ক্রিকেট নিয়ে বেশ ভালোই জানাশোনা রয়েছে তার। তার দাবি, ক্রিকেটের নোংরা রাজনীতির শিকার হয়েছেন যুবরাজ সিং। আর এর পেছনে কলকাঠি নেড়েছেন ভারতের সাবেক ও বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি!

যদিও সরাসরি ধোনির নাম মুখে আনেননি যোগরাজ। অন্য কারও নামেও অভিযোগ করেননি তিনি।

তবে আকার-ইঙ্গিতে অভিযুক্ত ক্রিকেটার যে সাবেক ভারতীয় অধিনায়ক ধোনি, তা ভালোভাবে বুঝিয়ে দিলেন যোগরাজ। পাক-ভারত ম্যাচের আগে বিভিন্ন ভারতীয় গণমাধ্যমকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে যুবরাজের বাবা বলেন, ‘গত ১৫ বছর ধরে ভারতীয় দলের এক ক্রিকেটার আমার ছেলের সঙ্গে নোংরা রাজনীতি করে যাচ্ছে। আরও অন্যান্য ক্রিকেটারও তার রাজনীতির শিকার। ক্রিকেটারদের জীবন কঠিন করে দিয়েছে সে। আমি আপাতত তার নাম মুখে আনছি না।’

এর কারণ হিসাবে তিনি জানান, এখন নাম বললে চলতি বিশ্বকাপে ভারতীয় খেলোয়াড়দের ওপর তার প্রভাব পড়বে।

তাই বিশ্বকাপ শেষ হওয়ার পর আরও অনেক তথ্য ফাঁস করবেন বলে জানান যুবরাজ সিংয়ের বাবা।

অজ্ঞাত অভিযুক্তের ষড়যন্ত্রের বিষয়ে যোগরাজ বলেন, ‘বিশ্বকাপ ক্রিকেট শেষ হলে সব পরিষ্কার করব। আমি যখন সত্য বলবো, কেউ আমার সামনে এসে দাঁড়ানোর সাহসও পাবে না। আমি তার সম্পর্কে এখন বলতে চাচ্ছি না। কারণ আমি চাই না এ সময়ে আমার কথার জন্য দল কোনো বিপদে পড়ুক।’

ওই ব্যক্তির নোংরা রাজনীতির শিকার শুধু তার ছেলে যুবরাজই হয়নি; এতে ভারতীয় ক্রিকেটার ভিভিএস লক্ষ্মণ, গৌতম গম্ভীর, বীরেন্দ্র শেবাগও ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছেন বলে দাবি করেন যোগরাজ। তিনি বলেন, ‘গৌতম গম্ভীরকেও ছাড়েনি সে, শেবাগের সঙ্গেও সে নোংরা খেলা খেলেছে। এখন যুবরাজের সঙ্গে এমনটা করল। এসব কিছুর জন্য ওই একজন ব্যক্তিই দায়ী।’

তার মুখোশ খুলে ফেললে সে এটা আজীবন মনে রাখবে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

তার এমন বিস্ফোরণে কেঁপে উঠেছে ভারতীয় ক্রিকেটমহল। বিশ্লেষকসহ অনেক ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব মনে করছেন, যোগরাজ সিংয় বারবার মহেন্দ্র সিং ধোনির দিকে ইঙ্গিত করছেন। দলে বর্তমানে খেলছেন ও গত ১৫ বছর ধরে এসব ক্রিকেটারের সহকর্মী একমাত্র তিনিই।

প্রসঙ্গত, ২০১৭ সালের জুনে উইন্ডিজের বিপক্ষে শেষ বারের মতো আর্ন্তজাতিক ম্যাচে খেলেছিলেন যুবরাজ সিং।

এর মাঝে ক্যান্সার ভুগছিলেন এই ক্রিকেটার। ক্যান্সার জয় করে ঘরোয়া ক্রিকেটে ভালো খেলে আবারও জাতীয় দলে ফেরার চেষ্টা করেছিলেন তিনি। কিন্তু পুরনো বিধ্বংসীরূপে আর নিজেকে মেলে ধরতে পারেননি তিনি।

অনেকটা বাধ্য হয়েই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানানোর সিদ্ধান্ত নেন যুবরাজ।

সূত্র: ইন্ডিয়ান টাইমস, ডেকান ক্রনিক্যাল, ক্রিকট্র্যাকার,

ঘটনাপ্রবাহ : আইসিসি বিশ্বকাপ-২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×