মাশরাফির পাকা চাল, চিন্তায় আফগানিস্তান
jugantor
মাশরাফির পাকা চাল, চিন্তায় আফগানিস্তান

  স্পোর্টস ডেস্ক  

২৪ জুন ২০১৯, ১৪:১১:২৪  |  অনলাইন সংস্করণ

বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা, তার কথা না বললেই নয়। তিনি যেন জিয়নকাঠি। তার ছোঁয়ায় প্রাণ সঞ্চারিত হয় সতীর্থদের মাঝে। সবাই জেগে উঠেন বীরদর্পে। দলকে এক সুতোয় বেঁধে রাখতে সিদ্ধহস্ত ম্যাশকে নিয়ে দারুণ সতর্ক আফগান ক্যাপ্টেন গুলবাদিন নায়েব। তাকে নিয়ে আলাদা পরিকল্পনার কথা জানালেন তিনি।

এবারের বিশ্বকাপে বল হাতে তেমন ছন্দে নেই মাশরাফি। তবে নিজের ভূমিকায় দারুণ ছন্দে তিনি। মাঠে প্রতিপক্ষকে কাবু করতে দিচ্ছেন পাকা চাল। তার নেতৃত্ব গুণ, কৌশল নিয়ে ভাবছেন আফগানরা।

বিশ্বকাপের আগে ঘটা করে অধিনায়কত্ব পেয়েছেন গুলবাদিন। নেতৃত্বের উত্তপ্ত চেয়ারে বসে উপলব্ধি করছেন কী দারুণভাবেই না কঠিন দায়িত্বটি সাবলীলভাবে পালন করে চলেছেন মাশরাফি।

আফগান অধিনায়ক বলেন, মুর্তজা অধিনায়ক হওয়ার পর থেকেই বাংলাদেশ ভালো করছে। গেল চার বছর ধরে তারা স্কিল দেখিয়ে আসছে। এ জন্য কৃতিত্ব প্রাপ্য তারই। দলকে সে অসাধারণ নেতৃত্ব দিচ্ছে। টাইগারদের এগিয়ে যাওয়া মুগ্ধ হয়ে দেখতে হয়। বিশ্বকাপে ওরা দারুণ খেলছে। আমাদের কাজটা একেবারেই সহজ হবে না।

বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত ৬ ম্যাচ খেলে সবকটিতেই হেরেছে আফগানিস্তান। তাই বাংলাদেশ ম্যাচে পাখির চোখ তাদের। টাইগারদের হারিয়েই জয়ের খাতা খুলতে চান তারা। ৬ ম্যাচে ৫ পয়েন্ট নিয়ে সেমিফাইনাল খেলার স্বপ্ন বাংলাদেশের। সঙ্গত কারণে এই ম্যাচে জয়ের বিকল্প নেই মাশরাফি-সাকিবদের। ফলে ম্যাচটিতে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের প্রত্যাশা করছেন ক্রিকেটপ্রেমীরা।

মাশরাফির পাকা চাল, চিন্তায় আফগানিস্তান

 স্পোর্টস ডেস্ক 
২৪ জুন ২০১৯, ০২:১১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা, তার কথা না বললেই নয়। তিনি যেন জিয়নকাঠি। তার ছোঁয়ায় প্রাণ সঞ্চারিত হয় সতীর্থদের মাঝে। সবাই জেগে উঠেন বীরদর্পে। দলকে এক সুতোয় বেঁধে রাখতে সিদ্ধহস্ত ম্যাশকে নিয়ে দারুণ সতর্ক আফগান ক্যাপ্টেন গুলবাদিন নায়েব। তাকে নিয়ে আলাদা পরিকল্পনার কথা জানালেন তিনি।

এবারের বিশ্বকাপে বল হাতে তেমন ছন্দে নেই মাশরাফি। তবে নিজের ভূমিকায় দারুণ ছন্দে তিনি। মাঠে প্রতিপক্ষকে কাবু করতে দিচ্ছেন পাকা চাল। তার নেতৃত্ব গুণ, কৌশল নিয়ে ভাবছেন আফগানরা।

বিশ্বকাপের আগে ঘটা করে অধিনায়কত্ব পেয়েছেন গুলবাদিন। নেতৃত্বের উত্তপ্ত চেয়ারে বসে উপলব্ধি করছেন কী দারুণভাবেই না কঠিন দায়িত্বটি সাবলীলভাবে পালন করে চলেছেন মাশরাফি।

আফগান অধিনায়ক বলেন, মুর্তজা অধিনায়ক হওয়ার পর থেকেই বাংলাদেশ ভালো করছে। গেল চার বছর ধরে তারা স্কিল দেখিয়ে আসছে। এ জন্য কৃতিত্ব প্রাপ্য তারই। দলকে সে অসাধারণ নেতৃত্ব দিচ্ছে। টাইগারদের এগিয়ে যাওয়া মুগ্ধ হয়ে দেখতে হয়। বিশ্বকাপে ওরা দারুণ খেলছে। আমাদের কাজটা একেবারেই সহজ হবে না।

বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত ৬ ম্যাচ খেলে সবকটিতেই হেরেছে আফগানিস্তান। তাই বাংলাদেশ ম্যাচে পাখির চোখ তাদের। টাইগারদের হারিয়েই জয়ের খাতা খুলতে চান তারা। ৬ ম্যাচে ৫ পয়েন্ট নিয়ে সেমিফাইনাল খেলার স্বপ্ন বাংলাদেশের। সঙ্গত কারণে এই ম্যাচে জয়ের বিকল্প নেই মাশরাফি-সাকিবদের। ফলে ম্যাচটিতে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের প্রত্যাশা করছেন ক্রিকেটপ্রেমীরা।