শোয়েবের সমালোচনার কড়া জবাব দিলেন সরফরাজ
jugantor
শোয়েবের সমালোচনার কড়া জবাব দিলেন সরফরাজ

  স্পোর্টস ডেস্ক  

২৪ জুন ২০১৯, ১৫:৪৭:০৪  |  অনলাইন সংস্করণ

বিশ্বকাপ মঞ্চে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের বিপক্ষে বিন্দুমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বিতা গড়ে তুলতে পারেনি পাকিস্তান। এতে দলীয় পারফরম্যান্সের যতটা না, তার চেয়েও বেশি পাক অধিনায়কের সমালোচনা হয়। সরফরাজ আহমেদকে একরকম ধুয়ে দেন সাবেক পাকিস্তানি স্পিডস্টার শোয়েব আখতার।

ম্যানচেস্টারে বল গড়ানোর আগে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের পরামর্শ ছিল, টস জিতে প্রথমে ব্যাটিং নেয়ার। টস জিতলেও আগে ব্যাটিং নেননি সরফরাজ। শুরুতে কোহলিদের ব্যাট করতে পাঠান তিনি। শেষ পর্যন্ত লজ্জার হারে এর খেসারত গুনতে হয়। শোয়েবের মতে, ভারতের বিপক্ষে বোকার মতো অধিনায়কত্ব করেছে সরফরাজ।

সর্বকালের দ্রুতগতির বোলার বলেন, ২০১৭ সালে চ্যাম্পিয়নস ট্রফির ফাইনালে ভারত যে ভুল করেছিল, ঠিক একই ভুল করল পাকিস্তান। আমি বুঝতে পারছি না কীভাবে একজন অধিনায়ক এতটা বোকা হতে পারে। সে কি জানে না আমরা রান তাড়া করতে খুব একটা দক্ষ নই! উইকেটের চারদিক শুষ্ক ছিল, স্যাঁতসেঁতে নয়। ও কি জানত না, আমাদের শক্তিটা বোলিং, ব্যাটিংয়ে নয়?

অবশেষে শোয়েবের সমালোচনার জবাব দিলেন সরফরাজ। তিনি বলেন, আমি যদি তাকে কিছু বলি; তা হলে সে আবার আমাদের ওপর চড়াও হবে। তার মতে, আমরা খেলোয়াড় নই। আমি বলতেও চাই না, আমরা কী। শুধু এটুকু বলব- কিছু লোক যখন টেলিভিশনে কথা বলে, তখন তারা নিজেদের ঈশ্বর মনে করে।

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ম্যাচের আগে সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন সরফরাজ। সেটি জিতে জবাবটা যেন আরও পাকাপোক্ত হয়েছে। প্রোটিয়াদের ৪৯ রানে হারিয়ে সেমিফাইনালে খেলার আশা জিইয়ে রেখেছে পাকিস্তান।

শোয়েবের সমালোচনার কড়া জবাব দিলেন সরফরাজ

 স্পোর্টস ডেস্ক 
২৪ জুন ২০১৯, ০৩:৪৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

বিশ্বকাপ মঞ্চে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের বিপক্ষে বিন্দুমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বিতা গড়ে তুলতে পারেনি পাকিস্তান। এতে দলীয় পারফরম্যান্সের যতটা না, তার চেয়েও বেশি পাক অধিনায়কের সমালোচনা হয়। সরফরাজ আহমেদকে একরকম ধুয়ে দেন সাবেক পাকিস্তানি স্পিডস্টার শোয়েব আখতার।

ম্যানচেস্টারে বল গড়ানোর আগে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের পরামর্শ ছিল, টস জিতে প্রথমে ব্যাটিং নেয়ার। টস জিতলেও আগে ব্যাটিং নেননি সরফরাজ। শুরুতে কোহলিদের ব্যাট করতে পাঠান তিনি। শেষ পর্যন্ত লজ্জার হারে এর খেসারত গুনতে হয়। শোয়েবের মতে, ভারতের বিপক্ষে বোকার মতো অধিনায়কত্ব করেছে সরফরাজ।

সর্বকালের দ্রুতগতির বোলার বলেন, ২০১৭ সালে চ্যাম্পিয়নস ট্রফির ফাইনালে ভারত যে ভুল করেছিল, ঠিক একই ভুল করল পাকিস্তান। আমি বুঝতে পারছি না কীভাবে একজন অধিনায়ক এতটা বোকা হতে পারে। সে কি জানে না আমরা রান তাড়া করতে খুব একটা দক্ষ নই! উইকেটের চারদিক শুষ্ক ছিল, স্যাঁতসেঁতে নয়। ও কি জানত না, আমাদের শক্তিটা বোলিং, ব্যাটিংয়ে নয়?

অবশেষে শোয়েবের সমালোচনার জবাব দিলেন সরফরাজ। তিনি বলেন, আমি যদি তাকে কিছু বলি; তা হলে সে আবার আমাদের ওপর চড়াও হবে। তার মতে, আমরা খেলোয়াড় নই। আমি বলতেও চাই না, আমরা কী। শুধু এটুকু বলব- কিছু লোক যখন টেলিভিশনে কথা বলে, তখন তারা নিজেদের ঈশ্বর মনে করে।

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ম্যাচের আগে সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন সরফরাজ। সেটি জিতে জবাবটা যেন আরও পাকাপোক্ত হয়েছে। প্রোটিয়াদের ৪৯ রানে হারিয়ে সেমিফাইনালে খেলার আশা জিইয়ে রেখেছে পাকিস্তান।  

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন