কোহলিদের পরাজয়ে শ্রীলংকার বিদায়!

  স্পোর্টস ডেস্ক ৩০ জুন ২০১৯, ২৩:৫৫ | অনলাইন সংস্করণ

এভাবেই আউট হয়ে ম্যাচ থেকে ছিটকে যায় ভারত।
রিশব প্যান্টের মতো এভাবেই আউট হয়ে ম্যাচ থেকে ছিটকে যায় ভারত। ছবি টুইটার

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ভারতের ৩১ রানের পরাজয়ে বড় ক্ষতি হয়ে গেল শ্রীলংকার। ১৯৯৬ সালের বিশ্বকাপ জয়ী দলটি সেমিফাইনালে খেলার ক্ষীণ স্বপ্ন দেখছিল। তাদের সেই স্বপ্ন ভেঙে গেছে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে বিরাট কোহলিদের পরাজয়ে।

নিজেদের পরের দুই ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজ এবং ভারতের বিপক্ষে জয় পেলেও সেমিতে যাওয়া হচ্ছে না শ্রীলংকার। তার কারণ ইংল্যান্ড, পাকিস্তান যদি নিজেদের শেষ ম্যাচে জিতে যায় তাহলে তারা সেমিতে যাবে।

তাছাড়া ইংল্যান্ড-পাকিস্তান যদি হেরেও যায়। অন্যদিকে শ্রীলংকা যদি নিজেদের শেষ দুই ম্যাচে জয়ও পায় তারপরও সেমিতে যেতে পারবে না। তখন ইংল্যান্ডের মতো সমান ১০ পয়েন্ট হবে লংকানদের। প্লাস রান রেটের কারণে এগিয়ে থেকে সেমিতে যাবে ইংলিশরা।

রোববার ইংল্যান্ডের বার্মিংহামে ভারতের বিপক্ষে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করে স্বাগতিক ইংল্যান্ড। ব্যাটিংয়ে নেমে উড়ন্ত সূচনা করে ইংলিশরা। উদ্বোধনী জুটিতে ১৬০ রান করেন দুই ওপেনার জেসন রয় ও জনি বেয়ারস্টো। ৫৭ বলে ৬৬ রান করে ফেরেন জেসন রয়। তবে অনবদ্য ব্যাটিং করে বিশ্বকাপে প্রথম সেঞ্চুরি করেন জনি বেয়ারস্টো। তিনি ১০৯ বলে ১০টি চার ও ৬টি ছক্কার সাহায্যে ১১১ রান করেন।

ইনিংসের শেষ দিকে ব্যাটিং তাণ্ডব চালিয়ে ৫৪ বলে ছয়টি চার ও তিন ছক্কায় ৭৯ রান করেন বেন স্টোকস। জনি বেয়ারস্টোর সেঞ্চুরি আর বেন স্টোকস-জেসন রয়ের জোড়া ফিফটিতে ভর করে ৭ উইকেটে ৩৩৭ রানের পাহাড় গড়ে ইংল্যান্ড। ভারতের হয়ে মোহাম্মদ সামি ৬৯ রানে ৫ উইকেট শিকার করেন।

৩৩৮ রানের পাহাড় ডিঙাতে নেমে দলীয় ৮ ও ব্যক্তিগত শূন্য রানে ফেরেন লোকেশ রাহুল। ক্রিস ওকসের বলে ক্যাচ তুলে দিয়ে ফেরেন ভারতীয় ওপেনার। এরপর দ্বিতীয় উইকেটে বিরাট কোহলির সঙ্গে ১৩৮ রানের জুটি গড়ে দলকে খেলায় ফেরান রোহিত শর্মা। ৭৬ বলে সাতটি চারের সাহায্যে ৬৬ রান করে আউট হন বিরাট কোহলি।

তৃতীয় উইকেটে রিশব প্যান্টের সঙ্গে জুটি বেঁধে ৫২ রান করেন ওপেনার রোহিত শর্মা। আর এই জুটিতেই বিশ্বকাপের চতুর্থ সেঞ্চুরি করেন তিনি। সেঞ্চুরির করার পর নিজের ইনিংসটা লম্বা করতে পারেননি ভারতীয় তারকা ওপেনার। ক্রিস ওকসের বলে উইকেটের পেছনে ক্যাচ তুলে দিয়ে ফেরেন। তার আগে ১০৯ বলে ১৫টি বাউন্ডারিতে ১০২ রান করেন রোহিত।

রোহিত শর্মার বিদায়ের পর চতুর্থ উইকেটে মাত্র ২৮ রানের জুটি গড়তেই আউট হয়ে যান রিশব প্যান্ট। লিয়াম প্লাঙ্কেটের দ্বিতীয় শিকার হওয়ার আগে ২৯ বলে ৩২ রান করেন প্যান্ট। পঞ্চম উইকেটে মহেন্দ্র সিং ধোনির সঙ্গে ৪১ রানের জুটি গড়তেই লিয়াম প্লাঙ্কেটের তৃতীয় শিকার হার্দিক পান্ডিয়া। তার আগে ৩৩ বলে চারটি বাউন্ডারিতে ৪৫ রান করেন পান্ডিয়া।

এরপর কেদার যাদবকে সঙ্গে নিয়ে ইনিংসের শেষ বল পর্যন্ত খেলে পরাজয়ের ব্যবধান কিছুটা কমালেও দলের হার এড়াতে পারেননি ধোনি। ৫০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ৩০৬ রান তুলতে সক্ষম হয় ভারত। শেষ দিকে ৩১ বলে চারটি চার ও এক ছক্কায় ৪২ রান করেন ধোনি। ইংল্যান্ডের হয়ে লিয়াম প্ল্যাঙ্কেট ৫৫ রানে ৩ উইকেট শিকার করেন।

ঘটনাপ্রবাহ : আইসিসি বিশ্বকাপ-২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

 
×