বিশ্বকাপে আইপিএলের নীতি অনুসরণের কথা বললেন কোহলি

  স্পোর্টস ডেস্ক ১১ জুলাই ২০১৯, ১৩:০৯ | অনলাইন সংস্করণ

কোহলি

বৃষ্টির কারণে খেলা গড়ায় রিজার্ভ ডেতে। বৃষ্টিবিঘ্নিত সেমিফাইনালে প্রথমে ব্যাট করে ৮ উইকেটে ২৩৯ রান করে নিউজিল্যান্ড। জবাবে ২২১ রানে অলআউট হয় টিম ইন্ডিয়া। ফলে ১৮ রানের রোমাঞ্চকর জয় নিয়ে টানা দ্বিতীয়বারের মতো বিশ্বকাপের ফাইনালে ওঠেন কিউইরা। আর বিদায় নিশ্চিত হয় মেন ইন ব্লুদের।

সেমি থেকে ছিটকে পড়ায় হতাশ ভারতের প্রায় ১০০ কোটি ক্রিকেট ভক্ত। মন ভাঙায় বুক চাপড়াচ্ছেন তারা। সমব্যথিত ভারতীয় অধিনায়ক বিরাট কোহলি। সেমিফাইনাল থেকে বিদায়ের পর বিশ্বকাপের ফরম্যাট নিয়েই প্রশ্ন তোলেন তিনি। তার মতে, বৈশ্বিক টুর্নামেন্টের ফরম্যাটে পরিবর্তন আনা উচিত।

বলাবলি হচ্ছে, ২০০৭ সালে বাংলাদেশের কাছে ত্রিনিদাদে হেরে বিদায় নেয়ার পর বিশ্বমঞ্চে এটি ভারতের সবচেয়ে বাজে হার। ক্রিকেটে অর্থনৈতিকভাবে সবচেয়ে শক্তিশালী দলটি ওই আসরে মাত্র তিন ম্যাচ খেলেই বাদ পড়ে।

ম্যাচশেষে সংবাদ সম্মেলনে কোহলি বলেন, ২০২৩ বিশ্বকাপে নকআউট পর্বে পরিবর্তন আনা প্রয়োজন। তা হলে কি তিনি আইপিএলের নীতি অনুসরণ করার কথা বলছেন?

ভারতীয় অধিনায়ক বলেন, হয়তো! যদি পয়েন্ট তালিকার ১ নম্বরে থাকার কোনো গুরুত্ব থাকে, তা হলে এখানে একটা যুক্তিসঙ্গত জায়গা আছে আমার কথার। তবে আমি জানি না কি বাস্তবায়ন হতে যাচ্ছে।

আইপিএলে পয়েন্ট টেবিলের ১ ও ২ নম্বর দল প্রথমে কোয়ালিফায়ার খেলে। তাতে হেরে গেলে দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ারে সুযোগ থাকে ফাইনালে ওঠার।

তিনি বলেন, আপনি পয়েন্ট তালিকার এক নম্বরে আছেন। এর পর অল্প সময়ের জন্য বাজে খেললেন। এতে আপনি বাদ, এটি আপনাকে মেনে নিতে হচ্ছে। আগে কে কী করেছে, সেটি ব্যাপার নয়। এটি একটি আনকোরা, নতুন দিন। আপনি যদি যথেষ্ট ভালো না হন, আপনাকে বাড়ি যেতে হবে- এটিই বাস্তবতা।

কোহলি যোগ করেন, ছেলেরা দুঃখ পেয়েছে। কিন্তু সেটি খুব বেশি নয়। কারণ যে মানের ক্রিকেট খেলেছে, তাতে সন্তুষ্ট তারা। তার ভাষ্যমতে, পুরো টুর্নামেন্টে ৪৫ মিনিট বাজে ক্রিকেট খেলেছে ওরা। সেটিরই মূল্য দিতে হয়েছে।

ঘটনাপ্রবাহ : আইসিসি বিশ্বকাপ-২০১৯

আরও
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত

 
×