সুপার ওভারের আগে আর্চারকে কী ‘মন্ত্র’ দিয়েছিলেন স্টোকস

  স্পোর্টস ডেস্ক ১৬ জুলাই ২০১৯, ১১:২৭ | অনলাইন সংস্করণ

আর্চার,

প্রায় দেড় মাসের ক্রিকেটযুদ্ধ শেষে পর্দা নামলো বিশ্বকাপের দ্বাদশ আসরের। ব্যাট-বলের রোমাঞ্চকর লড়াই শেষে চ্যাম্পিয়ন হলো ইংল্যান্ড। ফাইনালের লড়াইটা ছিল জমজমাট। শুরুতে টাই হয় ম্যাচ। এরপর সুপার ওভারও টাই হয়, ম্যাচের মীমাংসা হয় বাউন্ডারি গণনায়।

রোববার রাতে ক্রিকেট মহাযজ্ঞের চরম উত্তেজনাপূর্ণ ম্যাচে ইংল্যান্ডের হয়ে সুপার ওভার করতে আসেন পেসার জোফরা আর্চার। বল করার আগে তাকে কি যেন একটা কানে কানে বলেন বেন স্টোকস। সেই মন্ত্র পেয়ে বুদ্ধিদীপ্ত বোলিং করে ইংল্যান্ডকে জয় এনে দেন ২৪ বছর বয়সী সিমার। নিজেদের ক্রিকেট ইতিহাসে প্রথমবারের মতো ওয়ানডে বিশ্বকাপ জেতে ইংলিশরা। স্বপ্নভঙ্গ হয় নিউজিল্যান্ডের।

তা আর্চারকে কি মন্ত্র দিয়েছিলেন স্টোকস? ক্যারিবিয়ান বংশোদ্ভূত ইংলিশ পেসার জানান, ২০১৬ সালে কলকাতায় টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে শেষ ওভারের প্রথম চার বলেই ছক্কা হজম করে স্টোকস। কার্লোস ব্র্যাথওয়েট তাণ্ডবে ট্রফি জেতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। রিক্তহস্তে ফিরতে হয় ইংল্যান্ডকে। সেই অভিজ্ঞতা থেকে তাকে অনুপ্রেরণা জোগায় বেন।

আর্চার বলেন, যদি আমরা আজ হারতাম,আমি জানি না; আগামীকাল নিজে কী করতাম। তবে স্টোকস আমাকে ওভারটির আগে বলেছিল,আমরা জিতি কিংবা হারি,এ ম্যাচ তোমার যোগ্যতা-সক্ষমতা নির্ণায়ক হবে না। তোমার ওপর সবার বিশ্বাস আছে। তুমি কী? বিশ্ববাসী তা জেনে গেছে।

তিনি বলেন, স্টোকস আমাকে কলকাতার ওই ঘটনা স্মরণ করিয়ে দিয়েছিলেন। সম্ভবত সেও একইরকম অনুভূতির মুখোমুখি হয়েছিল। তবে ও ছিল হেরে যাওয়া দলে। আর আমি বিজয়ী দলে।

ঘটনাপ্রবাহ : আইসিসি বিশ্বকাপ-২০১৯

আরও
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×