শিরোপা ভাগাভাগির পক্ষে বাংলাদেশের সাবেক কোচ

  স্পোর্টস ডেস্ক ১৭ জুলাই ২০১৯, ১৬:৫৩ | অনলাইন সংস্করণ

হোয়াটমোর

টানটান উত্তেজনায় মূল ম্যাচ হয় টাই। রোমাঞ্চে ভরপুর সুপার ওভারেও একই দশা। শেষ পর্যন্ত বাউন্ডারি হিসাবে নাটকীয়ভাবে শিরোপা জেতে ইংল্যান্ড। বিশ্বকাপের ফাইনালে আইসিসির এমন অদ্ভুত নিয়মের সমালোচনা চলছে বিশ্বজুড়ে।

ক্রিকেট বোদ্ধাদের অনেকেই বলছেন, বাউন্ডারি নিয়মে একদলকে শিরোপা না দিয়ে অপর দলের সঙ্গে ভাগাভাগি করে দেয়া উচিত ছিল। এটাই হতো সঠিক বিচার। এর পক্ষে সায় দিয়েছেন বাংলাদেশের সাবেক কোচ ডেভ হোয়াটমোর।

শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচে সুপার ওভারসহ ২৬টি বাউন্ডারি হাঁকায় ইংল্যান্ড। সেখানে নিউজিল্যান্ড মারে ১৭টি। এর ব্যবধানে বিজয়ী হয় ইংলিশরা। ট্রফি আশাভঙ্গ হয় কিউইদের।

এ পরিপ্রেক্ষিতে ডেভ হোয়াটমোর বলেন, দুই দলের মধ্যে শিরোপা ভাগাভাগি করে দেয়া উচিত ছিল। যেমন খেলেছে, তাতে উভয়ই বিশ্বকাপে জয়ের দাবিদার। ইংলিশদের সঙ্গে কিউইরা ট্রফির সমান অংশীদার হলে সঠিক বিচার হতো। যাহোক, এটা শেখার একটি অধ্যায়। এমন সব বিষয় আরও ভালোভাবে সমাধান করতে হবে। হতে পারে আরেকটি ম্যাচ। তবে টুর্নামেন্টে আসার আগে নিয়ম জেনেই এসেছিল সবাই, এটাই শেষ কথা।

হোয়াটমোর অস্ট্রেলিয়ার সাবেক ক্রিকেটার। খেলোয়াড়ি জীবন ততটা বর্ণিল না হলেও প্রশিক্ষক হিসেবে সুখ্যাতি রয়েছে। তার কোচিংয়ের অধীনে বিশ্বকাপ জেতে শ্রীলংকা। অজি এ বর্ষীয়াণ কোচের পরশে প্রস্ফুটিত হতে শুরু করে বাংলাদেশের ক্রিকেট।

তিনি বলেন, আমি বিস্মিত ক’জন মানুষ জানত, এ নিয়ম সম্পর্কে সেসময়। আম্পায়াররাও মানুষ। একজনের সঙ্গে আরেকজনের মতবিরোধ হতে পারে। দুর্ভাগ্যজনক হলেও সত্য, ক্রিকেটে এমনটা হয়। দুইবার টাইয়ের পর কেউই জয়ী হয়নি। কিন্তু নিয়ম অনুযায়ী কি হলো, ইংল্যান্ড বিজয়ী।

ঘটনাপ্রবাহ : আইসিসি বিশ্বকাপ-২০১৯

আরও
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×