জীবনের শেষ ম্যাচ স্মরণীয় করে রাখলেন মাসাকাদজা

  স্পোর্টস ডেস্ক ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২১:৪২ | অনলাইন সংস্করণ

হ্যামিল্টন মাসাকাদজা
আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারের শেষ ম্যাচে ব্যাট করতে নামার আগে হ্যামিল্টন মাসাকাদজাকে সতীর্থদের অভিনন্দন। ছবি: সংগৃহীত

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে বিদায় নেয়ার ম্যাচকে স্মরণীয় করে রাখলেন হ্যামিল্টন মাসাকাদজা। ক্যারিয়ারের শেষ ম্যাচে ৪২ বলে ৭১ রানের অসাধারণ ইনিংস খেলেন জিম্বাবুয়ের এ অধিনায়ক। তার অবিশ্বাস্য ব্যাটিংয়ের ম্যাচে শান্তনার জয় পেয়েছে জিম্বাবুয়ে।

ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজ শুরুর আগেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দিয়েছিলেন মাসাকাদজা। জিম্বাবুয়ের এ অধিনায়ক জানিয়েছেন বাংলাদেশের মাঠে খেলেই ক্রিকেটকে বিদায় নেবেন। তার দল ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজে টানা তিন ম্যাচে হেরে ফাইনালের আগেই বিদায় নেয়। তবে শুক্রবার নিয়মরক্ষার ম্যাচে মাসাকাদজার ব্যাটিং নৈপুণ্যে আফগানিস্তানের বিপক্ষে ১৫৬ রান তাড়া করে ৭ উইকেটের জয় পায়।

শুক্রবার আফগানিস্তানের বিপক্ষে ব্যাট করতে নেমে রীতিমতো তাণ্ডব চালান মাসাকাদজা। ব্রান্ডন টেইলরকে সঙ্গে নিয়ে উড়ন্ত সূচনা করেন তিনি। উদ্বোধনী জুটিতে ৫ ওভারে ৪০ রান সংগ্রহ করে সাজঘরে ফেরেন টেইলর। তার বিদায়ের পরও ব্যাটিং তাণ্ডব অব্যাহত রাখেন মাসাকাদজা। একের পর এক বাউন্ডারি হাঁকিয়ে ২৭ বলে টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারের ১১তম ফিফটি তুলে নেন।

অর্ধশতক হাঁকানোর পর আরও বেশি আক্রমণাত্মক ব্যাটিং করে যান হ্যামিল্টন। তার অসাধারণ ব্যাটিংয়ে জিম্বাবুয়ের জয়ের পথ সহজ হয়ে যায়। জয়ের জন্য শেষ দিকে ৪১ বলে প্রয়োজন ছিল ৪৬ রান। খেলার এমন অবস্থায় লং অনে বাউন্ডারি হাঁকাতে গিয়ে ক্যাচ তুলে দেন মাসাকাদজা। সাজঘরে ফেরার আগে ৪২ বলে ৫টি ছক্কা ও চারটি চারের সাহায্যে ৭১ রান করেন জিম্বাবুয়ের এ অধিনায়ক।

মাসাকাদজার বিদায়ের পর ৩২ বলে ৩৯ রান করা কাগিসো চাকাভার উইকেট হারালেও জয়ের জন্য সমস্যায় পড়তে হয়নি জিম্বাবুয়েকে। শেন উইলিয়ামসের দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ে ৩ বল হাতে রেখেই জয় নিশ্চিত করে জিম্বাবুয়ে।

আফগানিস্তান ১৫৫/৮

শুক্রবার চট্টগ্রাম জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজের পঞ্চম ম্যাচে টস জিতে প্রথমে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন আফগান অধিনায়ক রশিদ খান।

প্রথমে ব্যাটিংয়ে নেমে হযরতউল্লাহ জাজাইকে সঙ্গে নিয়ে উড়ন্ত সূচনা করেন রহমানউল্লাহ গুরবাজ। ওপেনিংয়ে ৯.৩ ওভারে ৮৩ রানের ‍জুটি গড়েন তারা। এরপর নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারায় আফগানিস্তান।

২৪ বলে ৩১ রান করে সাজঘরে ফেরেন হযরতউল্লাহ। ভালো শুরুর পরও ওয়ান ডাউনে নেমে প্রত্যাশিত ব্যাটিং করতে পারেননি শফিকুল্লাহ। তিনি ফেরেন ১৩ বলে ১৬ রান করে।

ইনিংসের শুরু থেকে একের পর এক বাউন্ডারি হাঁকিয়ে ৪০ বলে ক্যারিয়ারের প্রথম ফিফটি তুলে নেন রহমানউল্লাহ গুরবাজ। ফিফটির পর আরও বেশি আক্রমণাত্মক ব্যাটিং করেন আফগান এ ওপেনার।

তবে শেন উইলিয়ামসের বলে লেগ বিহাইন্ডে কাট করতে গিয়ে বোল্ড হয়ে ফেরেন রহমানউল্লাহ। সাজঘরে ফেরার আগে ৪৭ বলে চারটি চার ও দৃষ্টি নন্দন চারটি ছক্কায় ৬১ রান করেন আফগান এ ওপেনার।

বাংলাদেশের বিপক্ষে ব্যাটিং তাণ্ডব চালিয়ে ৫৪ বলে ৮৪ রান করে ম্যাচ জয়ে অবদান রাখা আফগান সাবেক অধিনায়ক মোহাম্মদ নবি এদিন সুবিধা করতে পারেননি। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে মাত্র ৪ রানে ফেরেন এ অলরাউন্ডার।

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে আগের ম্যাচে ৩০ বলে ৬৯ রানের ঝকঝকে ইনিংস খেলা নজিবুল্লাহ জাদরান শুক্রবার ফেরেন মাত্র ৫ রান করে। বিশ্বকাপে আফগানিস্তানকে নেতৃত্ব দেয়া গুলবাদিন নাইব ফেরেন ৭ বলে ১০ রান করে।

ইনিংসের শেষ দিকে রশিদ খান ও আসগর আফগানরা প্রত্যাশিত ব্যাটিং করতে না পারায় ৮ উইকেটে ১৫৫ রানে থেমে যায় আফগানিস্তান।

ঘটনাপ্রবাহ : ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজ ঢাকা-২০১৯

আরও
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×