সাকিবের শূন্যতা পূরণ করা সত্যিই কঠিন: হাবিবুল বাশার

  আল-মামুন ০২ নভেম্বর ২০১৯, ২২:৫৮ | অনলাইন সংস্করণ

হাবিবুল বাশার সুমন
হাবিবুল বাশার সুমন। ফাইল ছবি

ভারতীয় জুয়াড়ির কাছ থেকে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের প্রস্তাব পেয়ে গোপন রাখায় এক বছর নিষিদ্ধ হলেন সাকিব আল হাসান। যে কারণে ভারত সফরে নেই তিনি। এছাড়া সন্তানসম্ভবা স্ত্রীর পাশে থাকতে ভারত সফর থেকে নিজেকে সরিয়ে নিয়েছেন দেশসেরা ওপেনার তামিম ইকবাল।

দেশের অন্যতম সেরা এ দুই ক্রিকেটার ছাড়া ভারতের মাঠে খেলতে যাওয়াসহ কিছু বিষয় নিয়ে যুগান্তরের সঙ্গে কথা বলেন জাতীয় দলের সাবেক অধিনায়ক ও বর্তমানে জাতীয় দল নির্বাচনের ভূমিকায় থাকা হাবিবুল বাশার সুমন। তার সেই সাক্ষাৎকারের চুম্বক অংশ তুলে ধরা হল।

যুগান্তর: সাকিবের জায়গায় কে খেলতে পারে?

হাবিবুল বাশার সুমন: আমি আসলে নির্দিষ্ট করে কারো নাম বলতে চাই না। সাকিবের জায়গা পূরণ করা সত্যিই কঠিন হবে। নতুনদের জন্য এটা একটা বড় সুযোগ। তাদের নিজেদের প্রমাণ করার। আমরা বেশকিছু ক্রিকেটারকে নিয়েই কাজ করছি। যে সেরাটা দিতে পারবে সেই সফল হবে।

যুগান্তর: ভারত সফরে দেশসেরা ওপেনার তামিম ইকবালওতো নেই?

হাবিবুল বাশার সুমন: হ্যাঁ, তামিম আমাদের অন্যতম সেরা ওপেনার। ভারতের মতো গুরুত্বপূর্ণ সফরে আমাদের সাকিব-তামিম ছাড়াই খেলতে হবে। তাদের নিয়ে আমরা এখন আর চিন্তা করছি না। এদের ছাড়াই যেহেতু খেলতে হবে, চিন্তা না করাই ভালো। এখন কে ছিল কে ছিল না তা না ভেবে কোনো লাভ নেই। দলে যারা আছে তাদের নিয়েই আমাদের ভালো খেলার চেষ্টা করতে হবে।

যুগান্তর: ভারত সফরেই প্রথম দিবা-রাত্রির টেস্ট খেলতে যাবে বাংলাদেশ। রাতের আঁধারে গোলাপি বলের টেস্ট নিয়ে যদি বলেন?

হাবিবুল বাশার সুমন: কলকাতার ঐতিহ্যবাহী ইডেন গার্ডেনসে দিবা-রাত্রির টেস্ট ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে। বাংলাদেশ-ভারত দুই দলই প্রথম দিবা-রাত্রির টেস্ট খেলতে যাচ্ছে। দু’দলেরই সুবিধা-অসুবিধা আছে। ভবিষ্যতে আমাদের আরও দিবা-রাত্রির টেস্ট খেলতে হবে। আশা করছি তেমন কোনো সমস্যা হওয়ার কথা নয়। যদি হয় তাহলে উভয় দলেরই হবে।

যুগান্তর: ভারত সফরে তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি আর দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজে বাংলাদেশের প্রত্যাশা?

হাবিবুল বাশার সুমন: প্রত্যাশা ভালো খেলা। ভারতের মাঠে কোহলিরা খুবই শক্তিশালী প্রতিপক্ষ। তাদের মাঠে জিতে আসা খুবই কঠিন। তাছাড়া আমাদের সেরা দুইজন ক্রিকেটার নেই। তাদের ছাড়াই খেলতে হবে। তবে অসম্ভব বলতে কিছু নেই। আমরা যদি আমাদের সেরাটা খেলতে পারি তাহলে যে কোনো প্রতিপক্ষের বিপক্ষে জয় পাওয়া সম্ভব।

প্রসঙ্গত, ৩ নভেম্বর দিল্লিতে টি-টোয়েন্টি সিরিজের মধ্য দিয়ে সফরের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হবে টাইগারদের। সিরিজের বাকি দুই টি-টোয়েন্টি হবে ৭ ও ১০ নভেম্বর রাজকোট ও নাগপুরে। ১০ নভেম্বর প্রথম টেস্ট শুরু হবে ইনদোরে। আর ২২ নভেম্বর কলকাতার ঐতিহ্যবাহী ইডেন গার্ডেনসে শুরু হবে সিরিজের শেষ টেস্ট ম্যাচ।

ঘটনাপ্রবাহ : বাংলাদেশের ভারত সফর-২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×