মুমিনুলের বিদায়ে ফের চাপে বাংলাদেশ

  স্পোর্টস ডেস্ক ১৪ নভেম্বর ২০১৯, ১৪:০১:৫০ | অনলাইন সংস্করণ

৩১ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে চাপে পড়েছিল বাংলাদেশ। মুশফিকুর রহিমকে নিয়ে সেখান থেকে ঘুরে দাঁড়াচ্ছিলেন মুমিনুল হক। ধীরে ধীরে প্রতিরোধ গড়ে তুলছিলেন তারা। তবে সেই রেশটা ধরে রাখতে পারলেন না মুমিনুল। দলীয় ৯৯ রানে রবিচন্দ্রন অশ্বিনের বলে পরিষ্কার বোল্ড হয়ে ফেরেন তিনি। সাজঘরে ফেরত আসার আগে লড়াকু ৩৭ রান করেন পয়েট অব ডায়নামো।

বৃহস্পতিবার ইন্দোরে টস জিতে আগে ব্যাটিং বেছে নেন টাইগার অধিনায়ক মুমিনুল। এ নিয়ে নতুন অধ্যায় শুরু করেন তিনি। ক্যারিয়ারে প্রথম এবং ১১তম অধিনায়ক হিসেবে পথচলা শুরু করেন এ টপঅর্ডার। সেই সঙ্গে এ দিয়ে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ শুরু করে বাংলাদেশ।

উইকেটে যথেষ্ট ঘাস আছে। লাঞ্চের আগ পর্যন্ত ছিল আর্দ্রতাও। দারুণভাবে সেটা কাজে লাগান ভারতীয় ৩ পেসার। সর্পিল সুইং আদায় করে নেন উমেশ যাদব। ছন্দময় বোলিং করেন ইশান্ত শর্মা। বাড়তি গতি তোলেন মোহাম্মদ শামি।

তাতে খাপছাড়া হয় বাংলাদেশের টপঅর্ডার। সেই তোড় শামলাতে না পেরে দলীয় ১২ রানে উমেশের শিকার হয়ে ফেরেন ইমরুল কায়েস। এ রেশ না কাটতেই ইশান্তর বলির পাঁঠা হন সাদমান। পরে মোহাম্মদ মিঠুনকে নিয়ে খেলা ধরার চেষ্টা করেন মুমিনুল। তবে তাতে বাদ সাধেন শামি। মিঠুনকে এলবিডব্লিউর ফাদেঁ ফেলেন তিনি।

তাতে চাপে পড়েন টাইগাররা। এরপর মুশফিককে নিয়ে চাপ কাটিয়ে ওঠার চেষ্টা করেন মুমিনুল। তবে সাবলীল হতে পারেননি তারা। অবশ্য লড়াই চালিয়ে যান। শেষ পর্যন্ত চাপ নিয়েই লাঞ্চে আসে বাংলাদেশ। বিরতি থেকে ফিরেই প্যাভিলিয়নের পথ ধরেন মুমিনুল।ফলে ফের চাপে পড়েন সফরকারীরা।

এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত বাংলাদেশের সংগ্রহ ৪ উইকেটে ১০৮।মুশফিক ৩৬ রান নিয়ে ক্রিজে আছেন। ৭ রান নিয়ে তাকে সঙ্গ দিচ্ছেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ।

ঘটনাপ্রবাহ : বাংলাদেশের ভারত সফর-২০১৯

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত