টাইগারদের হতাশ করে লাঞ্চে ভারত

  স্পোর্টস ডেস্ক ১৫ নভেম্বর ২০১৯, ১২:০১ | অনলাইন সংস্করণ

ভারত

দ্বিতীয় দিনের সকালে জোড়া সাফল্য পান আবু জায়েদ। আর্দ্রতা কাজে লাগিয়ে দ্রুত চেতেশ্বর পুজারা ও বিরাট কোহলিকে তুলে নেন তিনি। ফলে খেলায় ফেরার স্বপ্ন দেখে বাংলাদেশ। তবে টাইগারদের হতাশ করেন মায়াঙ্ক আগারওয়াল ও আজিঙ্কা রাহানে। এরই মধ্যে ৬৯ রানের দুর্দান্ত জুটি গড়ে তুলেছেন তারা। দারুণ বোঝাপড়া গড়ে উঠেছে তাদের মধ্যে। ফলে দ্রুতগতিতে এগিয়ে যাচ্ছে ভারত।

সুবিধাজনক অবস্থানে থেকে লাঞ্চে গেছে টিম ইন্ডিয়া। এখন পর্যন্ত ৩ উইকেটে ১৮৮ রান করেছে তারা। তাতে ৩৮ রানের লিড পেয়েছেন মেন ইন ব্লরা। মাত্র ৮ টেস্টের ক্যারিয়ারে তৃতীয় সেঞ্চুরির দোরগোড়ায় আছেন আগারওয়াল। তিনি ব্যাট করছেন 'নার্ভাস নাইনটি' ৯১ রানে। আর খেলোয়াড়ি জীবনে ২১তম ফিফটির দ্বারপ্রান্তে আছেন রাহানে। ৩৫ রান নিয়ে ক্রিজে রয়েছেন তিনি।

প্রথম দিনের ১ উইকেটে ৮৬ রান নিয়ে দ্বিতীয় দিন খেলতে নামে ভারত। ৩৭ রানে আগারওয়াল এবং ৪৩ রান নিয়ে পুজারা দিনের খেলা শুরু করেন। আগের দিন দলীয় ১৪ রানে হিটম্যান রোহিত শর্মা ফেরার পর দারুণভাবে প্রাথমিক ধাক্কা সামলে নেন তারা। দিন শেষে জমাট বেঁধে ওঠে তাদের জোট।

তবে এদিন শুরুতেই তাদের জুটিতে ভাঙন ধরে। পুজারাকে দ্রুত ফিরিয়ে দেন আবু জায়েদ। তাতে ভাঙে ৯১ রানের পার্টনারশিপ। বৃহস্পতিবার ভয়ংকর হয়ে ওঠার আগে ইনফর্ম রোহিতকেও সাজঘরে ফেরত পাঠান তিনি। ফেরার আগে অবশ্য ২৩তম ফিফটি তুলে নেন পুজারা। ৭২ বলে ৯ চারে ৫৪ রানের দায়িত্বশীল ইনিংস খেলেন তিনি।

সেই রেশ না কাটতেই সময়ের সেরা ব্যাটসম্যান কোহলিকে এলবিডব্লিউর ফাঁদে ফেলেন আবু জায়েদ। অবশ্য প্রথমে তার আবেদনে সাড়া দেননি অনফিল্ড আম্পায়ার। পরে রিভিউ নিলে সিদ্ধান্তের হেরফের ঘটে। এতে ডাক মেরে প্যাভিলিয়নের পথ ধরেন ভারতীয় অধিনায়ক।

এর আগে টস জিতে আগে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ১৫০ রানে অলআউট হয় বাংলাদেশ। দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৪৩ রান করেন মুশফিকুর রহিম। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৩৭ রান করেন অধিনায়ক মুমিনুল হক। ভারতের হয়ে সর্বোচ্চ ৩ উইকেট নেন মোহাম্মদ শামি। ২টি করে উইকেট ঝুলিতে ভরেন ইশান্ত শর্মা, উমেশ যাদব ও রবিচন্দ্রন অশ্বিন।

ঘটনাপ্রবাহ : বাংলাদেশের ভারত সফর-২০১৯

আরও
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×