শচীনকে আউট করায় হত্যার হুমকি পেয়েছিলাম: ম্যাকগ্রা
jugantor
শচীনকে আউট করায় হত্যার হুমকি পেয়েছিলাম: ম্যাকগ্রা

  স্পোর্টস ডেস্ক  

০২ মার্চ ২০২০, ২২:২৪:৩৯  |  অনলাইন সংস্করণ

গ্লেন ম্যাকগ্রা-শচীন টেন্ডুলকার

১৯৯৯ সালে অ্যাডিলেড টেস্টে ভারতীয় কিংবদন্তি ব্যাটসম্যান শচীন টেন্ডুলকারকে আউট করেছিলেন গ্লেন ম্যাকগ্রা। সে সময় ডিসিশন রিভিউ সিস্টেম তথা ডিআরএস না থাকায় আম্পায়ের সিদ্ধান্তই মেনে নিতে হতো ক্রিকেটারদের।

শচীনের আউটের সিদ্ধান্ত মেনে নিতে পারেননি ভারতীয় সমর্থকরা। আউটের আবেদন করার জন্য কঠোর সমালোচনা করা হয় বোলার গ্লেন ম্যাকগ্রাকে। শুধু সমালোচনাই নয়, ম্যাকগ্রাকে হত্যারও হুমকি দেয়া হয়েছিল।

সম্প্রতি দেয়া এক সাক্ষাৎকারে অস্ট্রেলিয়ান কিংবদন্তি গ্লেন ম্যাকগ্রা জানান, অতীতে আম্পায়ারের সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত বলে গণ্য হতো। তবে শচীন এখনও ভাবে সেটা আউট ছিল না। শচীনকে আউট করার কারণে আমি বেশ কয়েকবার মৃত্যুর হুমকিও পেয়েছিলাম। শুধু আমাকেই নয়, ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়াকেও হুমকি দেয়া হয়েছিল।

ক্রিকেট ইতিহাসের সর্বকালের অন্যতম সেরা এ পেসার আরও বলেন, আমার যতটুকু মনে পরে শচীন সবেমাত্র ক্রিজে নেমেছিল। রানের খাতাও খোলার সুযোগ পায়নি। শূন্য রানে ব্যাটিং করছিল। ওকে আমি বাউন্সার দিয়ে মনোযোগ নষ্ট করতে চেয়েছিলাম।

পেস বোলারদের মধ্যে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সর্বোচ্চ ৯৪৯ উইকেট শিকার করা গ্লেন ম্যাকগ্রা আরও বলেন, শচীনের মাথার ওপর দিয়ে বেল উড়তে দেখতে পাচ্ছিলাম। আমি আবেদন করার সঙ্গে সঙ্গেই আম্পায়ার আঙুল তুলে আউট দিয়ে দিয়েছিলেন।

শচীনকে আউট করায় হত্যার হুমকি পেয়েছিলাম: ম্যাকগ্রা

 স্পোর্টস ডেস্ক 
০২ মার্চ ২০২০, ১০:২৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
গ্লেন ম্যাকগ্রা-শচীন টেন্ডুলকার
গ্লেন ম্যাকগ্রা-শচীন টেন্ডুলকার। ফাইল ছবি

১৯৯৯ সালে অ্যাডিলেড টেস্টে ভারতীয় কিংবদন্তি ব্যাটসম্যান শচীন টেন্ডুলকারকে আউট করেছিলেন গ্লেন ম্যাকগ্রা। সে সময় ডিসিশন রিভিউ সিস্টেম তথা ডিআরএস না থাকায় আম্পায়ের সিদ্ধান্তই মেনে নিতে হতো ক্রিকেটারদের।

শচীনের আউটের সিদ্ধান্ত মেনে নিতে পারেননি ভারতীয় সমর্থকরা। আউটের আবেদন করার জন্য কঠোর সমালোচনা করা হয় বোলার গ্লেন ম্যাকগ্রাকে। শুধু সমালোচনাই নয়, ম্যাকগ্রাকে হত্যারও হুমকি দেয়া হয়েছিল।

সম্প্রতি দেয়া এক সাক্ষাৎকারে অস্ট্রেলিয়ান কিংবদন্তি গ্লেন ম্যাকগ্রা জানান, অতীতে আম্পায়ারের সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত বলে গণ্য হতো। তবে শচীন এখনও ভাবে সেটা আউট ছিল না। শচীনকে আউট করার কারণে আমি বেশ কয়েকবার মৃত্যুর হুমকিও পেয়েছিলাম। শুধু আমাকেই নয়, ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়াকেও হুমকি দেয়া হয়েছিল।

ক্রিকেট ইতিহাসের সর্বকালের অন্যতম সেরা এ পেসার আরও বলেন, আমার যতটুকু মনে পরে শচীন সবেমাত্র ক্রিজে নেমেছিল। রানের খাতাও খোলার সুযোগ পায়নি। শূন্য রানে ব্যাটিং করছিল। ওকে আমি বাউন্সার দিয়ে মনোযোগ নষ্ট করতে চেয়েছিলাম।

পেস বোলারদের মধ্যে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সর্বোচ্চ ৯৪৯ উইকেট শিকার করা গ্লেন ম্যাকগ্রা আরও বলেন, শচীনের মাথার ওপর দিয়ে বেল উড়তে দেখতে পাচ্ছিলাম। আমি আবেদন করার সঙ্গে সঙ্গেই আম্পায়ার আঙুল তুলে আউট দিয়ে দিয়েছিলেন।