বিয়ের পর পরিবর্তন অনুভব করছেন সৌম্য

  স্পোর্টস ডেস্ক ১০ মার্চ ২০২০, ১১:১০:৩৪ | অনলাইন সংস্করণ

বিয়ের কারণে নিয়েছিলেন ছুটি। খেলার কথা ছিল না জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে কোনো সিরিজেই। অথচ হাতে মেহেদীর রঙ মুছে যাওয়ার আগেই দলে ডাক পান। অগত্যা নববধূকে রেখে ওয়ানডে সিরিজের শেষ ম্যাচের দলে যোগ দিতে ধরেন সিলেটের ফ্লাইট।

বুঝতেই পারছেন, বলা হচ্ছে সৌম্য সরকারের কথা। তবে সেই ম্যাচে খেলার সুযোগ পাননি তিনি। কিন্তু আশার সলতে নিভেনি। দুই ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজের দলে ঠায় পান বাঁহাতি ব্যাটসম্যান। অথচ গেল রোববার বিসিবি প্রকাশিত কেন্দ্রীয় চুক্তিতে ছিলেন না সৌম্য। নির্বাচকদের ভুলে বাদ পড়ে তার নাম। তবে বাদ পড়ে অস্বস্তি নিয়ে প্রথম টি-টোয়েন্টি খেলতে হয়নি তাকে।

ব্যাট হাতে মাঠে নামার আগেই সুসংবাদ পান সৌম্য। ২৪ ঘণ্টা পেরোনোর আগেই বোর্ডের কেন্দ্রীয় চুক্তিতে থাকার আভাস পান তিনি। তাতেই মূলত জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে স্বস্তি নিয়ে ব্যাট করতে পারেন মারকুটে ওপেনার। এককথায় সৌম্য বলেন, হ্যাঁ, খেলার আগে এ কথা জেনেছি।

তবে বিসিবির কেন্দ্রীয় চুক্তিতে নিজের নাম থাকা না থাকার চেয়ে বেশি টেনশন ছিল বিয়ের পর প্রথম ব্যাটিং নিয়ে। সংবাদ সম্মেলনে এমনটিই জানিয়েছেন তিনি। বাঁহাতি হার্ডহিটার বলেন, সত্যি কথা বলতে কী– ওভাবে চিন্তা করিনি। চিন্তায় ছিলাম, বিয়ের পর প্রথম ম্যাচ খেলতে যাচ্ছি। তাই একটু চিন্তিত ছিলাম। স্বভাবতই ব্যাটিংয়ে ফোকাস বেশি করেছি। সেটি কাজেও লেগেছে।

বিয়ের পর প্রথম ক্রিজে নেমেই ঝড় তোলেন সৌম্য। ৩২ বলে ৪ চার ও ৫ ছক্কায় ৬২ রানের হার না মানা ইনিংস খেলেন তিনি। তাতেই কার্যত বাংলাদেশের জয়ের ভিত তৈরি হয়ে যায়। এ নিয়ে ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ত সংস্করণে ২১ ইনিংস পর হাফসেঞ্চুরি পেলেন এ টপঅর্ডার। এ ইনিংসটিই আবার তার টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারসেরা।

বিয়ে করে বদলে গেছেন লিটন দাস। মানসিকতায় এসেছে ব্যাপক পরিবর্তন। টেকনিকে পরিপক্বতা এসেছে। হয়তো সে কারণে ব্যাটে ছোটাচ্ছেন রানের ফোয়ারা। মিডিয়ায় তা অসংখ্যবার বলেছেন এ ওপেনার।

সৌম্যর ক্ষেত্রেও কি একই ঘটনা ঘটছে? লাজুক স্বভাবের এ ব্যাটার অবশ্য পরিবর্তনের আভাসই পাচ্ছেন। সেটি বলতেও দ্বিধা করেননি তিনি। এ টগবগে টাইগার বলেন, মাত্র কদিন আগে বিয়ে করেছি। এর পর একটা ম্যাচ খেললাম। নিজের মধ্যে পরিবর্তনের আভাস পাচ্ছি। আরও চেঞ্জ আসবে বলে অনুভব হচ্ছে। যেটি বোঝা যাচ্ছে।

বিয়ের পর আন্তর্জাতিক ম্যাচে প্রত্যাবর্তনে বড় ইনিংসের দেখা পাননি লিটন। একটু সময় লেগেছিল। এ ক্ষেত্রে ব্যতিক্রম সৌম্য। সাতপাকে বাঁধা পড়ে মালাবদলের পর প্রথম ইনিংসে ম্যাচ উইনিং ফিফটি করেছেন তিনি। ম্যাচসেরার পুরস্কারও উঠেছে তার হাতে। সেটি মনে মনে হয়তো নবপরিণীতাকেই উৎসর্গ করেছেন।

উল্লেখ্য, প্রথম ম্যাচে জিম্বাবুয়েকে ৪৮ রানে হারিয়েছে বাংলাদেশ। দুর্দান্ত দাপুটে এ জয়ে দুই ম্যাচ সিরিজে ১-০তে এগিয়ে গেছে মাহমুদউল্লাহ বাহিনী। এখন হোয়াইটওয়াশে চোখ লাল-সবুজ জার্সিধারীদের।

ঘটনাপ্রবাহ : জিম্বাবুয়ের বাংলাদেশ সফর -২০২০

আরও

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত