ব্যাটিংয়ের সময় সবাই নার্ভাস থাকে: রোহিত
jugantor
ব্যাটিংয়ের সময় সবাই নার্ভাস থাকে: রোহিত

  স্পোর্টস ডেস্ক  

১৬ মে ২০২০, ২২:০৬:৫৪  |  অনলাইন সংস্করণ

বর্তমান সময়ের অন্যতম সেরা ওপেনার রোহিত শর্মা। ক্রিকেট ইতিহাসে প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে ওয়ানডেতে সর্বোচ্চ ৩টি ডাবল সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন ভারতীয় এ ওপেনার। তারচেয়ে বড় কথা একদিনের ক্রিকেটে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ২৬৪ রানের ইনিংসের মালিকও ‘হিট ম্যান’ খ্যাত এ তারকা ব্যাটসম্যান।

ওয়ানডে ক্রিকেটে ইতিমধ্যে ২২৪ ম্যাচে ২৯টি সেঞ্চুরি আর ৪৩টি ফিফটির সাহায্যে ৯ হাজার ১১৫ রান সংগ্রহ করেছেন রোহিত। ভারতীয় এ তারকা ক্রিকেটারও নাকি ব্যাটিংয়ের সময় ভয়ে থাকেন, তার মধ্যেও নার্ভাসনেস কাজ করে।

শুক্রবার বাংলাদেশ দলের ওয়ানডে অধিনায়ক তামিম ইকবালের সঙ্গে ফেসবুক লাইভে অংশ নেন রোহিত শর্মা। এদিন ভারতীয় ওপেনারের কাছে তামিম জানতে চান, ব্যাটিংয়ে তুমি কি কখনও নার্ভাস হও না? জবাবে রোহিত বলেন, কেন হবো না? আমিও ভয় পাই, আমারও নার্ভাসনেস কাজ করে।

রোহিত আরও বলেন, শুধু ক্রিকেট খেলার ব্যাটিংয়ের সময় কেন, জীবনের সব ক্ষেত্রেই নার্ভাসনেস আছে। ক্রিকেট খেলার সময় নার্ভাস হওয়ারই কথা। সেটা তোমার প্রথম ম্যাচই হোক কিংবা ৩০০ নম্বর খেলাই হোক না কেন, নার্ভাসনেস থাকেই। যে বলবে আমি নার্ভাস হই না, সে মিথ্যা বলবে।

ভারতীয় এ তারকা ওপেনার আরও বলেন, যখন রান তাড়া করার চ্যালেঞ্জ থাকে তখন বেশি নার্ভাসনেস কাজ করে। তবে আমার সব ম্যাচে রান করতে খুব ভালো লাগে। যে ফরম্যাটেই খেলি না কেন, আমি শুরুতে ১০ ওভার নার্ভাস থাকি। তারপর সে নার্ভাসনেস সময়ের সঙ্গে কেটে যায়।

ব্যাটিংয়ের সময় সবাই নার্ভাস থাকে: রোহিত

 স্পোর্টস ডেস্ক 
১৬ মে ২০২০, ১০:০৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

বর্তমান সময়ের অন্যতম সেরা ওপেনার রোহিত শর্মা। ক্রিকেট ইতিহাসে প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে ওয়ানডেতে সর্বোচ্চ ৩টি ডাবল সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন ভারতীয় এ ওপেনার। তারচেয়ে বড় কথা একদিনের ক্রিকেটে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ২৬৪ রানের ইনিংসের মালিকও ‘হিট ম্যান’ খ্যাত এ তারকা ব্যাটসম্যান।

ওয়ানডে ক্রিকেটে ইতিমধ্যে ২২৪ ম্যাচে ২৯টি সেঞ্চুরি আর ৪৩টি ফিফটির সাহায্যে ৯ হাজার ১১৫ রান সংগ্রহ করেছেন রোহিত। ভারতীয় এ তারকা ক্রিকেটারও নাকি ব্যাটিংয়ের সময় ভয়ে থাকেন, তার মধ্যেও নার্ভাসনেস কাজ করে।

শুক্রবার বাংলাদেশ দলের ওয়ানডে অধিনায়ক তামিম ইকবালের সঙ্গে ফেসবুক লাইভে অংশ নেন রোহিত শর্মা। এদিন ভারতীয় ওপেনারের কাছে তামিম জানতে চান, ব্যাটিংয়ে তুমি কি কখনও নার্ভাস হও না? জবাবে রোহিত বলেন, কেন হবো না? আমিও ভয় পাই, আমারও নার্ভাসনেস কাজ করে।

রোহিত আরও বলেন, শুধু ক্রিকেট খেলার ব্যাটিংয়ের সময় কেন, জীবনের সব ক্ষেত্রেই নার্ভাসনেস আছে। ক্রিকেট খেলার সময় নার্ভাস হওয়ারই কথা। সেটা তোমার প্রথম ম্যাচই হোক কিংবা ৩০০ নম্বর খেলাই হোক না কেন, নার্ভাসনেস থাকেই। যে বলবে আমি নার্ভাস হই না, সে মিথ্যা বলবে।

ভারতীয় এ তারকা ওপেনার আরও বলেন, যখন রান তাড়া করার চ্যালেঞ্জ থাকে তখন বেশি নার্ভাসনেস কাজ করে। তবে আমার সব ম্যাচে রান করতে খুব ভালো লাগে। যে ফরম্যাটেই খেলি না কেন, আমি শুরুতে ১০ ওভার নার্ভাস থাকি। তারপর সে নার্ভাসনেস সময়ের সঙ্গে কেটে যায়।