যে কারণে এখনও খেলা চালিয়ে যাচ্ছেন, জানালেন আফ্রিদি
jugantor
যে কারণে এখনও খেলা চালিয়ে যাচ্ছেন, জানালেন আফ্রিদি

  স্পোর্টস ডেস্ক  

০২ আগস্ট ২০২০, ০৯:৫৪:০৫  |  অনলাইন সংস্করণ

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানিয়েছেন চার বছর আগেই। বয়সও ৪০ পেরিয়েছে কবেই। তবুও এখনও খেলা চালিয়ে যাচ্ছেন পাকিস্তানের সাবে অধিনায়ক অলরাউন্ডার শহীদ আফ্রিদি।

বিপিএল, পিসিএলের মতো ফ্র্যাঞ্চাইজি টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে বীরদর্পেই খেলে যাচ্ছেন তিনি।

২২ গজের মাঠে আর কতোদিন দৌড়াবেন এমন প্রশ্ন করা হয়েছিল আফ্রিদিকে। জবাবে তিনি জানালেন, মাঝেমধ্যেই খেলা ছেড়ে দিতে ইচ্ছে করে তবে ভক্তদের কারণে তা আর হয়ে উঠছে না। ভক্তদের চাওয়া পূরণ করতেই নাকি খেলা চালিয়ে যেতে চান তিনি।

সম্প্রতি করোনাভাইরাস থেকে মুক্তর পর পাকিস্তানের একটি ক্রিকেট ওয়েবসাইটকে দেয়া সাক্ষাৎকারে শহীদ আফ্রিদ বলেন, খেলোয়াড়ী জীবনের শেষ দেখছি না সহসাই। সত্যি বললে, মন তো চায়, এখন থেমে যাই। কিন্তু ভক্তদের বড় চাওয়া, আমি যেন খেলে যাই, যতদিন ফিট আছি। ভক্তরা মাঠে দেখতে চান আমাকে। আমার বাড়ির লোকজন, পরিবারের সবাই বলে, ফিটনেস যেহেতু আছে, খেলা যেন চালিয়ে যাই।

তাই বয়সবে কেবল একটি সংখ্যা বানিয়ে খেলে যাচ্ছেন এই পাক অলরাউন্ডার।

তবে শরীর না দিলে জোর করে খেলে যাবেন না বলে জানালেন তিনি।

আফ্রিদি বলেন, যতদিন উপভোগ করছি, ততোদিনই খেলে যাব। এর পেছনে একটা কারণ রয়েছে। তাহলো ক্রিকেটের প্রতি আবেগ আমার তীব্র, এখনও ক্রিকেটে থাকতে চাই, ক্রিকেটের সঙ্গে চলতে চাই।

কবে নাগাদ ব্যাট-বল একেবারেই ছেড়ে দিচ্ছেন? এমন প্রশ্ন করার আগেই আফ্রিদি জানালেন, আরও ২-১ বছর দেখবেন যে, খেলার উপযোগী ফিটনেস থাকে কিনা। যদি ফিট থাকেন, নিজেকে দলের ওপর বোঝা না মনে হয়, তবে খেলা চালিয়েই যাবেন।

আফ্রিদি বলেন, আসলে উপভোগ করাটাই উদ্দেশ্য, জোর করে খেলে যাব না।

যে কারণে এখনও খেলা চালিয়ে যাচ্ছেন, জানালেন আফ্রিদি

 স্পোর্টস ডেস্ক 
০২ আগস্ট ২০২০, ০৯:৫৪ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানিয়েছেন চার বছর আগেই। বয়সও ৪০ পেরিয়েছে কবেই। তবুও এখনও খেলা চালিয়ে যাচ্ছেন পাকিস্তানের সাবে অধিনায়ক অলরাউন্ডার শহীদ আফ্রিদি। 

বিপিএল, পিসিএলের মতো ফ্র্যাঞ্চাইজি টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে বীরদর্পেই খেলে যাচ্ছেন তিনি।

২২ গজের মাঠে আর কতোদিন দৌড়াবেন এমন প্রশ্ন করা হয়েছিল আফ্রিদিকে। জবাবে তিনি জানালেন, মাঝেমধ্যেই খেলা ছেড়ে দিতে ইচ্ছে করে তবে ভক্তদের কারণে তা আর হয়ে উঠছে না। ভক্তদের চাওয়া পূরণ করতেই নাকি খেলা চালিয়ে যেতে চান তিনি।

সম্প্রতি করোনাভাইরাস থেকে মুক্তর পর পাকিস্তানের একটি ক্রিকেট ওয়েবসাইটকে দেয়া সাক্ষাৎকারে শহীদ আফ্রিদ বলেন, খেলোয়াড়ী জীবনের শেষ দেখছি না সহসাই। সত্যি বললে, মন তো চায়, এখন থেমে যাই। কিন্তু ভক্তদের বড় চাওয়া, আমি যেন খেলে যাই, যতদিন ফিট আছি। ভক্তরা মাঠে দেখতে চান আমাকে। আমার বাড়ির লোকজন, পরিবারের সবাই বলে, ফিটনেস যেহেতু আছে, খেলা যেন চালিয়ে যাই।

তাই বয়সবে কেবল একটি সংখ্যা বানিয়ে খেলে যাচ্ছেন এই পাক অলরাউন্ডার।

তবে শরীর না দিলে জোর করে খেলে যাবেন না বলে জানালেন তিনি।

আফ্রিদি বলেন, যতদিন উপভোগ করছি, ততোদিনই খেলে যাব। এর পেছনে একটা কারণ রয়েছে। তাহলো ক্রিকেটের প্রতি আবেগ আমার তীব্র, এখনও ক্রিকেটে থাকতে চাই, ক্রিকেটের সঙ্গে চলতে চাই। 

কবে নাগাদ ব্যাট-বল একেবারেই ছেড়ে দিচ্ছেন? এমন প্রশ্ন করার আগেই আফ্রিদি জানালেন, আরও ২-১ বছর দেখবেন যে, খেলার উপযোগী ফিটনেস থাকে কিনা। যদি ফিট থাকেন, নিজেকে দলের ওপর বোঝা না মনে হয়, তবে খেলা চালিয়েই যাবেন। 

আফ্রিদি বলেন, আসলে উপভোগ করাটাই উদ্দেশ্য, জোর করে খেলে যাব না।