নারী রেফারির গায়ে হাত দিয়ে তোপের মুখে আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড
jugantor
নারী রেফারির গায়ে হাত দিয়ে তোপের মুখে আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড

  স্পোর্টস ডেস্ক  

১৮ অক্টোবর ২০২০, ২০:১৪:৫০  |  অনলাইন সংস্করণ

নারী রেফারির পিঠে হাত দিয়ে বিতর্কে সের্গিও আগুয়েরো। শনিবার ম্যানচেস্টার সিটি নিজের মাঠ ইতিহাদে আর্সেনালকে ১-০ গোলে পরাজিত করে।

সেই ম্যাচেই নারী রেফারির সঙ্গে বাকবিতণ্ডার এক পর্যায়ে অপ্রয়োজনে গায়ে হাত দিয় বিতর্ক সৃষ্টি করেন ম্যানচেস্টার সিটির তারকা ফুটবলার আগুয়েরো।

প্রথমার্ধের খেলা শেষ হওয়ার ঠিক আগমুহূর্তে থ্রো-ইন নিয়ে নারী সহকারী রেফারি ম্যাসি-এলিসের সঙ্গে কথা বলার একপর্যায়ে তার কাঁধ ও পিঠে হাত দেন আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড। আগুয়েরোর মনে হয়েছিল থ্রো-ইনটা আসলে তাদেরই পাওনা। শরীরে হাত দেয়ার বিষয়টি পছন্দ হয়নি ম্যাসি-এলিসের।

খেলা শেষে সংবাদ সম্মেলনে সেই প্রসঙ্গটি উঠলে সাংবাদিকদের ম্যানচেস্টার সিটির কোচ পেপ গার্দিওলা বলেন, আগুয়েরো আমার দেখা সবচেয়ে ভালো মানুষ। এই মামুলি বিষয় নিয়ে ঘাঁটাঘাঁটি না করে অন্য কিছু নিয়ে ভাবুন।

স্কাই স্পোর্টসে ম্যাচ শেষের বিশ্লেষণে আগুয়েরোর সাবেক সতীর্থ মিকাহ রিচার্ডস বলেছেন, তার আসলে এটা করার কোনো প্রয়োজনই ছিল না। রেফারিদের শ্রদ্ধা করতে হবে। তবে ম্যাসি-এলিস ঘটনাটি খুব ভালোভাবে সামাল দিয়েছেন।

নারী রেফারির গায়ে হাত দিয়ে তোপের মুখে আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড

 স্পোর্টস ডেস্ক 
১৮ অক্টোবর ২০২০, ০৮:১৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

নারী রেফারির পিঠে হাত দিয়ে বিতর্কে সের্গিও আগুয়েরো। শনিবার ম্যানচেস্টার সিটি নিজের মাঠ ইতিহাদে আর্সেনালকে ১-০ গোলে পরাজিত করে।

সেই ম্যাচেই নারী রেফারির সঙ্গে বাকবিতণ্ডার এক পর্যায়ে অপ্রয়োজনে গায়ে হাত দিয় বিতর্ক সৃষ্টি করেন ম্যানচেস্টার সিটির তারকা ফুটবলার আগুয়েরো।

প্রথমার্ধের খেলা শেষ হওয়ার ঠিক আগমুহূর্তে থ্রো-ইন নিয়ে নারী সহকারী রেফারি ম্যাসি-এলিসের সঙ্গে কথা বলার একপর্যায়ে তার কাঁধ ও পিঠে হাত দেন আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড। আগুয়েরোর মনে হয়েছিল থ্রো-ইনটা আসলে তাদেরই পাওনা। শরীরে হাত দেয়ার বিষয়টি পছন্দ হয়নি ম্যাসি-এলিসের। 

খেলা শেষে সংবাদ সম্মেলনে সেই প্রসঙ্গটি উঠলে সাংবাদিকদের ম্যানচেস্টার সিটির কোচ পেপ গার্দিওলা বলেন, আগুয়েরো আমার দেখা সবচেয়ে ভালো মানুষ। এই মামুলি বিষয় নিয়ে ঘাঁটাঘাঁটি না করে অন্য কিছু নিয়ে ভাবুন।

স্কাই স্পোর্টসে ম্যাচ শেষের বিশ্লেষণে আগুয়েরোর সাবেক সতীর্থ মিকাহ রিচার্ডস বলেছেন, তার আসলে এটা করার কোনো প্রয়োজনই ছিল না। রেফারিদের শ্রদ্ধা করতে হবে। তবে ম্যাসি-এলিস ঘটনাটি খুব ভালোভাবে সামাল দিয়েছেন।