আইপিএলের পঞ্চম শিরোপা জয়ে মুম্বাইয়ের প্রয়োজন ১৫৭
jugantor
আইপিএলের পঞ্চম শিরোপা জয়ে মুম্বাইয়ের প্রয়োজন ১৫৭

  স্পোর্টস ডেস্ক  

১০ নভেম্বর ২০২০, ২১:৫৬:১৯  |  অনলাইন সংস্করণ

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) ১৩তম আসরের শিরোপা জয়ে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের প্রয়োজন ১৫৭ রান। আগে ব্যাট করে স্রেয়াশ আইয়ার ও ঋষভ পন্তের জোড়া ফিফটিতে ৭ উইকেটে ১৫৬ রান করে দিল্লি ক্যাপিটালস।

মঙ্গলবার দুবাইয়ের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে আগে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ২২ রানে প্রথম সারির তিন ব্যাটসম্যানের উইকেট হারায় দিল্লি। ইনিংসের প্রথম ওভারের প্রথম বলেই ট্রেন্ট বোল্টের শিকার হয়ে সাজঘরে ফেরেন ওপেনার মার্কাস স্টয়নিস। এরপর নিজের দ্বিতীয় ও ইনিংসের তৃতীয় ওভারে বোলিংয়ে এসে আজিঙ্কা রাহানের উইকেট তুলে নেন বোল্ট।

চলতি আইপিএলে দুর্দান্ত ব্যাটিং করে যাওয়া শিখর ধাওয়ান আউট হন জয়ন্ত যাদবের স্পিনে। এবারের আইপিএলে এক ম্যাচ খেলার পর বাদ পড়ে যাওয়া এ অফ স্পিনারের ঘূর্ণি বলে বিভ্রান্ত হন ধাওয়ান। তার বিদায়ের মধ্য দিয়ে মাত্র ২২ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে কোণঠাসা হয়ে পড়ে দিল্লি।

মাত্র ২২ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে চরম বিপর্যয়ে পড়ে যাওয়া দলকে খেলায় ফেরাতে হাল ধরেন অধিনায়ক স্রেয়াশ আইয়ার ও ঋষভ পন্ত। তৃতীয় উইকেটে ৯৬ রানের দায়িত্বশীল জুটি গড়েন তারা।

ফিফটির পর বাউন্ডারি হাঁকাতে গিয়ে ক্যাচ তুলে দেন ঋষভ পন্ত। তার আগে ৩৮ বলে ৪টি চার ও দুই ছক্কায় করেন ৫৬ রান। ছয় নম্বর পজিশনে ব্যাটিংয়ে নেমে প্রত্যাশিত ব্যাটিং করতে পারেননি দিল্লির ক্যারিবীয় ব্যাটসম্যান সিমরন হিতমার। আগের ম্যাচে২২ বলে ৪২ রানের বিধ্বংসী ইনিংস খেলা এ তারকা ব্যাটসম্যান এদিন ফেরেন মাত্র ৫ রানে।

এরপর অক্ষর প্যাটেলকে সঙ্গে নিয়ে লড়াই চালিয়ে যান স্রেয়াশআইয়ার। ইনিংসের শেষ বল পর্যন্ত খেলেন দিল্লির এ অধিনায়ক। তার ৫০ বলের ৬ চার ও এক ছক্কায় গড়া ৬৫ রানের দায়িত্বশীল ইনিংসে ভর করে ৭ উইকেটে ১৫৬ করে দিল্লি।

আইপিএলের পঞ্চম শিরোপা জয়ে মুম্বাইয়ের প্রয়োজন ১৫৭

 স্পোর্টস ডেস্ক 
১০ নভেম্বর ২০২০, ০৯:৫৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) ১৩তম আসরের শিরোপা জয়ে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের প্রয়োজন ১৫৭ রান। আগে ব্যাট করে স্রেয়াশ আইয়ার ও ঋষভ পন্তের জোড়া ফিফটিতে ৭ উইকেটে ১৫৬ রান করে দিল্লি ক্যাপিটালস। 

মঙ্গলবার দুবাইয়ের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে আগে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ২২ রানে প্রথম সারির তিন ব্যাটসম্যানের উইকেট হারায় দিল্লি। ইনিংসের প্রথম ওভারের প্রথম বলেই ট্রেন্ট বোল্টের শিকার হয়ে সাজঘরে ফেরেন ওপেনার মার্কাস স্টয়নিস। এরপর নিজের দ্বিতীয় ও ইনিংসের তৃতীয় ওভারে বোলিংয়ে এসে আজিঙ্কা রাহানের উইকেট তুলে নেন বোল্ট।

চলতি আইপিএলে দুর্দান্ত ব্যাটিং করে যাওয়া শিখর ধাওয়ান আউট হন জয়ন্ত যাদবের স্পিনে। এবারের আইপিএলে এক ম্যাচ খেলার পর বাদ পড়ে যাওয়া এ অফ স্পিনারের ঘূর্ণি বলে বিভ্রান্ত হন ধাওয়ান। তার বিদায়ের মধ্য দিয়ে মাত্র ২২ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে কোণঠাসা হয়ে পড়ে দিল্লি। 

মাত্র ২২ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে চরম বিপর্যয়ে পড়ে যাওয়া দলকে খেলায় ফেরাতে হাল ধরেন অধিনায়ক স্রেয়াশ আইয়ার ও ঋষভ পন্ত। তৃতীয় উইকেটে ৯৬ রানের দায়িত্বশীল জুটি গড়েন তারা।  

ফিফটির পর বাউন্ডারি হাঁকাতে গিয়ে ক্যাচ তুলে দেন ঋষভ পন্ত। তার আগে ৩৮ বলে ৪টি চার ও দুই ছক্কায় করেন ৫৬ রান। ছয় নম্বর পজিশনে ব্যাটিংয়ে নেমে প্রত্যাশিত ব্যাটিং করতে পারেননি দিল্লির ক্যারিবীয় ব্যাটসম্যান সিমরন হিতমার। আগের ম্যাচে ২২ বলে ৪২ রানের বিধ্বংসী ইনিংস খেলা এ তারকা ব্যাটসম্যান এদিন ফেরেন মাত্র ৫ রানে। 

এরপর অক্ষর প্যাটেলকে সঙ্গে নিয়ে লড়াই চালিয়ে যান স্রেয়াশ আইয়ার। ইনিংসের শেষ বল পর্যন্ত খেলেন দিল্লির এ অধিনায়ক। তার ৫০ বলের ৬ চার ও এক ছক্কায় গড়া ৬৫ রানের দায়িত্বশীল ইনিংসে ভর করে ৭ উইকেটে ১৫৬ করে দিল্লি। 

 

ঘটনাপ্রবাহ : আইপিএল-২০২০