মুম্বাই হারলেও হারেনি মোস্তাফিজ

  স্পোর্টস ডেস্ক ১২ এপ্রিল ২০১৮, ২৩:৫৭ | অনলাইন সংস্করণ

মোস্তাফিজুর রহমান

দলকে জেতাতে দুই হাতে লড়াই করেছেন মোস্তাফিজুর রহমান। তার অসাধারণ পারফরম্যান্সের দিনেও পরাজয় এড়াতে পারেনি মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। ১৪৭ রানের পুঁজি নিয়েও দলকে শেষ ওভার পর্যন্ত খেলায় রাখলেন মোস্তাফিজ।

কাটার মাস্টারের নান্দনিক পারফরম্যান্সের খেলায় ভাগ্য নির্ধারণ হয় শেষ বলে। উত্তেজনাকর ম্যাচে ১ উইকেটে জয় পায় হায়দরাবাদ।

ডান হাতে বল ডেলিভারি দিয়ে বা হাতে ক্যাচ তুলে নিয়েও দলকে জয় উপহার দিতে পারেননি মোস্তাফিজুর রহমান। শেষ ১২ বলে জয়ের জন্য হায়দরাবাদের প্রয়োজন ছিল ১২ রান। আর মুম্বাইয়ের প্রয়োজন ছিলো ৩ উইকেট।

টানটান উত্তেজনাকর এমন পরিস্থিতিতে অসাধারণ বোলিং করেছেন কাটার মাস্টার। মাত্র ১ রান দিয়ে সিদ্ধার্থ কৌল এবং সন্দীপ শর্মার উইকেট তুলে নিয়ে দলকে জয়ের পথে রাখেন মোস্তাফিজ।

শেষ ওভারে জয়ের জন্য হায়দরাবাদের প্রয়োজন ছিল ১১ রান। মুম্বাইয়ের চাই ১ উইকেট। ২০তম ওভারের প্রথম বলে বেন কাটিংকে ছক্কা হাঁকিয়ে ম্যাচ হায়দরাবাদের দিকে ঝুকে দেন দিপক হুদা। এই ছয়ই ম্যাচের টার্নিং পয়েন্ট।

এরপর অনেক চেষ্টা করেও দলকে খেলায় ফেরাতে পারেননি কাটিং। ৩২ রানের কার্যকরী ইনিংস খেলে দলকে জয় উপহার দেন দিপক হুদা।

আগে ব্যাট করে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৪৭ রান সংগ্রহ করে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। দলের হয়ে ইভিন লুইস, কায়রন পোলার্ড ও সূর্যকুমার যাদব ২৯, ২৮ এবং ২৮ রান করে করেন। জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে শেষ বলে জয় নিশ্চিত করে সানরাইজার্স হায়দরাবাদ।

টার্গেট তাড়া করতে নেমে উদ্বোধনীতে ৬২ রান করা দলটি পরের ২৭ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে খাদের কিনারায় চলে যায়। সেই অবস্থা থেকে দলকে খেলায় ফেরান দিপক হুদা ও ইউসুফ পাঠান।

ফিল্ডিংয়ে চমক দেখালেও প্রত্যাশিত ব্যাটিং করতে পারেননি সাকিব আল হাসান। দলের কঠিন বিপদের মুহুর্তে দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিতে পারেননি বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডার। মাত্র ১২ রানে সাজঘরে ফেরেন তিনি।

উদ্বোধনীতে ঋদ্ধিমান সাহাকে সঙ্গে নিয়ে ৬২ রানের জুটি গড়ে দলকে জয়ের স্বপ্ন দেখান শেখর ধাওয়ান। এরপর নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারাতে থাকে হায়দরাবাদ। ২০ বলে ২২ রান করে ফেরেন ঋদ্ধিমান।

হায়দরাবাদের অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসনকে (৬) দুই অঙ্কের ফিগার টপকাতে দেননি কাটার মাস্টার মোস্তাফিজ। মাত্র ১১ রান করে ফেরেন মনস পান্ডিয়া। দলের প্রয়োজনের মুহুর্তে ব্যর্থ সাকিব। ফিরেছেন ১২ রানে।

বৃহস্পতিবার হায়দরাবাদের রাজিব গান্ধী স্টেডিয়ামে টসে জিতে আগে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নেয় সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। আগে ব্যাটিংয়ে নেমে ১১ রানে ওপেনার রোহিত শর্মার উইকেট হারিয়ে শুরুতেই বিপদে পড়ে যায় মুম্বাই।

দুর্দান্ত এক ক্যাচ নেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব। অস্ট্রেলিয়ান পেস বোলার বিলি স্টানলেকের বলে ক্যাচ তুলে দেন মুম্বাইয়ের ওপেনার রোহিত শর্মা। নিচু হয়ে আসা বলটিকে ঝাঁপিয়ে পড়ে তালুবন্দি করেন সাকিব। তার অসাধারণ ক্যাচে ১১ রানে ফেরেন মুম্বাইয়ের অধিনায়ক।

৯ রান করা ইশান কৃষানকে ফেরান সিদ্ধার্থ কৌল। ইনিংসের শুরু থেকে অসাধারণ খেলে যাওয়া ওপেনার ইভিন লুইসকে ফেরান ভারতীয় পেস বোলার কৌল।

শুধু ক্যাচ নেয়াই নয়; উইকেটও তুলে নেন সাকিব। ক্রুনাল পান্ডিয়াকে সাজঘরে পাঠান সাকিব। পান্ডিয়াকে কেন উইলিয়ামসনের হাতে ক্যাচ তুলে দিতে বাধ্য করেন সাকিব। ১৫ রানে ফেরেন ক্রুনাল পান্ডিয়া।

আক্রমনাত্মক হয়ে ওঠা কায়রন পোলার্ডকে ইনিংস লম্বা করতে দেননি বিলি স্টালেনকি। ২৩ বলে ২৮ রান করা পোলার্ডকে ফেরান বিলি। এরপর নিয়মিত বিরতিতে ফেরেন বেন কাটিং, যাদব ও প্রদীস সাঙ্গওয়ান।

স‌ংক্ষিপ্ত স্কোর

মুম্বাই: ২০ ওভারে ১৪৭/৮ (লুইস ২৯, পোলার্ড ২৮, যাদব ২৮ )।

হায়দরাবাদ: ২০ ওভারে ১৫১/৯ রান (ধাওয়ান ৪৫, দীপক ৩২*; মোস্তাফিজ ৩/২৪, মারকান্ডি ৪/২৩)।

ফল: হায়দরাবাদ ১ উইকেটে জয়ী।

ঘটনাপ্রবাহ : আইপিএল ২০১৮

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
.