যে লিগে খেললেই নিষিদ্ধ হবে বার্সা-রিয়ালসহ ১১ ক্লাব
jugantor
যে লিগে খেললেই নিষিদ্ধ হবে বার্সা-রিয়ালসহ ১১ ক্লাব

  স্পোর্টস ডেস্ক  

১৯ এপ্রিল ২০২১, ১১:৫৭:৪৮  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউরোপা, চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালের আগে প্রস্তাবিত টুর্নামেন্ট ‘ইউরোপিয়ান সুপার লিগ’ নিয়ে ফের আলোচনা শুরু হয়েছে।

‘বিদ্রোহী’ এ টুর্নামেন্টের পর্দা নাকি খুব শিগগির উঠবে। প্রস্তুতি অনেক দূর নাকি এগিয়েও গেছে।

এমন সব ইউরোপীয় ফুটবল সংস্থা উয়েফা আবারও হুঙ্কার দিয়েছে যে, এই ‘বিদ্রোহী’ লিগে অংশ নিলেই ঘরোয়া ও আন্তর্জাতিক ফুটবলে নিষিদ্ধ করা হবে ক্লাবকে।

এদিকে ‘ইউরোপিয়ান সুপার লিগে’ অংশ নিতে ইচ্ছুক এমন ক্লাবের নাম শুনলে যে কারও চোখ ছানাবড়া হবে।

ইতালির পত্রিকা লা গাজেত্তা দেল্লো স্পোর্তে রোববারের এক প্রতিবেদনে ‘বিদ্রোহী’ লিগের তালিকায় থাকা নামগুলো ফাঁস হয়েছে।

যেখানে রয়েছে— রিয়াল মাদ্রিদ, বার্সেলোনা, অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদ, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, লিভারপুল, আর্সেনাল, টটেনহ্যাম হটস্পার, চেলসি, ইউভেন্তুস, ইন্টার মিলান ও এসি মিলান।

উয়েফা নিজেদের ওয়েবসাইটে রোববার এক বিবৃতিতে বলেছে, এই প্রতিযোগিতায় অংশ নিলে ১১ ক্লাবকেই নিষিদ্ধ করা হবে।

পাশাপাশি ক্লাবগুলোর বিরুদ্ধে সব ধরনের আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে সতর্ক করে দেয় উয়েফা।

বিবৃতিতে উয়েফা লিখেছে, আমরা আবারও বলতে চাই যে, ফিফাসহ এবং আমাদের সকল সহযোগী সংগঠন ঐক্যবদ্ধ থেকে এই বিদ্রোহী প্রতিযোগিতা বন্ধ করতে কাজ করব। গুটিকয়েক ক্লাব শুধু তাদের নিজেদের স্বার্থে এই পরিকল্পনা করেছে। ক্রীড়াগত ও আইনিভাবে যত কিছু করা সম্ভব, এই প্রকল্প প্রতিহত করতে তার সব কিছুই করব আমরা।

প্রসঙ্গত, ২০১৮ সালের নভেম্বরে জার্মান ম্যাগাজিন ডের স্পিগেলের এক প্রতিবেদনে ফাঁস হয়, ইউরোপের বড় ক্লাবগুলো নিয়ে একটি সুপার লিগ আয়োজনের পরিকল্পনা করছে রিয়াল মাদ্রিদ। যাকে ‘ইউরোপিয়ান সুপার লিগ’বলা হচ্ছিল। বিষয়টি সে সময় ধামাচাপা পড়লেও ফের আলোচনা শুরু হয়েছে এই টুর্নামেন্ট আয়োজনের।

যে লিগে খেললেই নিষিদ্ধ হবে বার্সা-রিয়ালসহ ১১ ক্লাব

 স্পোর্টস ডেস্ক 
১৯ এপ্রিল ২০২১, ১১:৫৭ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউরোপা, চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালের আগে প্রস্তাবিত টুর্নামেন্ট ‘ইউরোপিয়ান সুপার লিগ’ নিয়ে ফের আলোচনা শুরু হয়েছে। 

‘বিদ্রোহী’ এ টুর্নামেন্টের পর্দা নাকি খুব শিগগির উঠবে। প্রস্তুতি অনেক দূর নাকি এগিয়েও গেছে। 

এমন সব  ইউরোপীয় ফুটবল সংস্থা উয়েফা আবারও হুঙ্কার দিয়েছে যে, এই ‘বিদ্রোহী’ লিগে অংশ নিলেই ঘরোয়া ও আন্তর্জাতিক ফুটবলে নিষিদ্ধ করা হবে ক্লাবকে।

এদিকে ‘ইউরোপিয়ান সুপার লিগে’ অংশ নিতে ইচ্ছুক এমন ক্লাবের নাম শুনলে যে কারও চোখ ছানাবড়া হবে।

ইতালির পত্রিকা লা গাজেত্তা দেল্লো স্পোর্তে রোববারের এক প্রতিবেদনে ‘বিদ্রোহী’ লিগের তালিকায় থাকা নামগুলো ফাঁস হয়েছে।  

যেখানে রয়েছে— রিয়াল মাদ্রিদ, বার্সেলোনা, অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদ, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, লিভারপুল, আর্সেনাল, টটেনহ্যাম হটস্পার, চেলসি, ইউভেন্তুস, ইন্টার মিলান ও এসি মিলান।

উয়েফা নিজেদের ওয়েবসাইটে রোববার এক বিবৃতিতে বলেছে, এই প্রতিযোগিতায় অংশ নিলে ১১ ক্লাবকেই নিষিদ্ধ করা হবে। 

পাশাপাশি ক্লাবগুলোর বিরুদ্ধে সব ধরনের আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে সতর্ক করে দেয় উয়েফা।

বিবৃতিতে উয়েফা লিখেছে, আমরা আবারও বলতে চাই যে, ফিফাসহ এবং আমাদের সকল সহযোগী সংগঠন ঐক্যবদ্ধ থেকে এই বিদ্রোহী প্রতিযোগিতা বন্ধ করতে কাজ করব।  গুটিকয়েক ক্লাব শুধু তাদের নিজেদের স্বার্থে এই পরিকল্পনা করেছে। ক্রীড়াগত ও আইনিভাবে যত কিছু করা সম্ভব, এই প্রকল্প প্রতিহত করতে তার সব কিছুই করব আমরা। 

প্রসঙ্গত, ২০১৮ সালের নভেম্বরে জার্মান ম্যাগাজিন ডের স্পিগেলের এক প্রতিবেদনে ফাঁস হয়, ইউরোপের বড় ক্লাবগুলো নিয়ে একটি সুপার লিগ আয়োজনের পরিকল্পনা করছে রিয়াল মাদ্রিদ। যাকে ‘ইউরোপিয়ান সুপার লিগ’বলা হচ্ছিল। বিষয়টি সে সময় ধামাচাপা পড়লেও ফের আলোচনা শুরু হয়েছে এই টুর্নামেন্ট আয়োজনের।
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন