এক ম্যাচেই ৫ রেকর্ড গড়লেন রোনাল্ডো! (ভিডিও)
jugantor
এক ম্যাচেই ৫ রেকর্ড গড়লেন রোনাল্ডো! (ভিডিও)

  স্পোর্টস ডেস্ক  

১৬ জুন ২০২১, ০২:৫৬:৪৭  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউরোকাপে মাঠে নেমেই রেকর্ড গড়লেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো। ইউরোয় সবচেয়ে বেশি আসরে উপস্থিতির রেকর্ড গড়লেন তিনি।

এরপর ম্যাচ শেষে দেখা গেল এর সঙ্গে যুক্ত হলো আরো চারটি রেকর্ড।

বুদাপেস্টের পুসকাস অ্যারেনায় মঙ্গলবার ‘এফ’ গ্রুপের ম্যাচে হাঙ্গেরির মুখোমুখি হয় পর্তুগাল। এ ম্যাচে ৬০ হাজারের বেশি দর্শক গ্যালারিতে বসে খেলা দেখার সুযোগ পান। ম্যাচে হাঙ্গেরিকে ৩-০ গোলে হারিয়েছে পর্তুগাল, যার মধ্যে দুটি গোলই রোনাল্ডোর।

অথচ ম্যাচে শুরু থেকে শেষ ৮৭ মিনিট পর্যন্ত বারবার ব্যর্থ হয়েছেন পর্তুগিজ তারকা রোনাল্ডো। এ সময়কালে হাঙ্গেরির গোলরক্ষককে পরাস্ত করে বল জালে জড়াতে ব্যর্থ হন তিনি।

এতে অনেকটা হতাশ ছিল গ্যালারির ৬০ হাজার দর্শক। অন্তিম সময়ে এসে গোলের খাতায় নাম লেখান রোনাল্ডো। সমর্থকদের আনন্দ দেওয়ার পাশাপাশি গড়লেন একগাদা কীর্তি।

ম্যাচের ৮৩ মিনিট পর্যন্ত খেলা ছিল পর্তুগাল বনাম গুলাসি। হাঙ্গেরির গোলমুখে অতিমানব হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন।

ম্যাচ শুরুর পাঁচ মিনিট থেকে ৮৩ মিনিট পর্যন্ত কমপক্ষে ১০টি দারুণ সেভ করে জাল অক্ষত রাখেন গুলাসি।

পঞ্চম মিনিটে জটার বাঁ -পায়ের শট ও ১৮ তম মিনিটে রোনাল্ডোর শট ঠেকিয়ে জাল অক্ষত রাখেন গুলাসি।

৪১তম মিনিটে জটার আরেকটি প্রচেষ্টা ফেরান গুলাসি। ৪৩তম মিনিটে গোলপোস্ট থেকে চার গজ দূর থেকেও বল জালে জড়াতে পারেননি পাঁচবারের বর্ষসেরা ফুটবলার রোনাল্ডো।

৪৮তম মিনিটে পেপের হেড ফিরিয়ে দেন গুলাসি। ৬৭তম মিনিটে ফের্নান্দেসের শট কর্নারের বিনিময়ে রক্ষা করেন গুলাসি।

৮৪তম মিনিটে অনেকটা ভাগ্যগুণে গোল পেয়ে যায় পর্তুগাল। এরপর শেষ পাঁচ মিনেটে জাদু দেখান রোনাল্ডো । করেন দুই গোল!

৮৭তম মিনিটে রাফা সিলভা ডি-বক্সে ফাউলের শিকার হওয়ায় পেনাল্টি পায় পর্তুগাল। সফল স্পট কিক থেকে রোনাল্ডোর নেওয়া আগুনে গতির বল আর ফেরাতে পারেননি গুলাসি।

এর গোলের পর ইউরোর ইতিহাসে ১০ গোল করা প্রথম খেলোয়াড় বনে যান সিআরসেভেন।

শেষ বাঁশির ঠিক আগে করলেন আরেকটি গোল। সতীর্থ রাফা সিলভার সঙ্গে বল দেওয়া-নেওয়া করে গোলরক্ষককে একা পেয়ে যান তিনি। তাকেও কাটিয়ে ফাঁকা পোস্টে গোলটা করেন পর্তুগিজ তারকা।

এ দুই গোলের সুবাদে একগাদা রেকর্ড গড়ে ইউরো কাপের সর্বকালের সর্বোচ্চ গোলদাতা হয়ে গেছেন পর্তুগালের অধিনায়ক। গোলের রেকর্ডে ছাড়িয়ে গেছেন ফ্রান্স কিংবদন্তি মিশেল প্লাতিনিকে (৯)।

ইউরোর মূল পর্বে রোনাল্ডোর গোল হলো ১১টি। টুর্নামেন্টের ইতিহাসে প্রথম খেলোয়াড় হিসেবেই ১০+ গোল করলেন তিনি।

এছাড়া জার্মানির বাস্তিয়ান শোয়াইনস্টাইগারকে ছাড়িয়ে ইউরোপের খেলোয়াড়দের মধ্যে মেজর টুর্নামেন্টে (বিশ্বকাপ, ইউরো) সবচেয়ে বেশি ম্যাচ (৩৯) খেলার রেকর্ড নিজের করে নিয়েছেন তিনি।

ফুটবল ইতিহাসের প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে টানা ১১টি আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টে গোল করার রেকর্ডটিও নিজের দখলে নিয়ে রাখলেন রোনাল্ডো। ২০০৪ ইউরো, ২০০৬ বিশ্বকাপ, ২০০৮ ইউরো, ২০১০ বিশ্বকাপ, ২০১২ ইউরো, ২০১৪ বিশ্বকাপ, ২০১৬ ইউরো, ২০১৭ কনফেডারেশনস কাপ, ২০১৮ বিশ্বকাপ, ২০১৯ নেশনস লিগ ও ২০২০ সালের ইউরোতে অন্তত একটি করে গোল করেছিলেন তিনি।

এছাড়া ইউরোর ইতিহাসে সবচেয়ে বয়স্ক খেলোয়াড় হিসেবে এক ম্যাচে জোড়া গোলের রেকর্ডও গড়েছেন বর্তমান সময়ের অন্যতম সেরা এ ফুটবলার। হাঙ্গেরির বিপক্ষে ম্যাচে তার বয়স ৩৬ বছর ১৩০ দিন।

আরো একটি রেকর্ডের দ্বারপ্রান্তে রোনাল্ডো। দেশের হয়ে ১৭৫ ম্যাচে তার গোল ১০৬টি। আর ৩টি হলে ইরানের আলি দাইয়ের গড়া আন্তর্জাতিক ফুটবলে ১০৯ গোলের রেকর্ড স্পর্শ করবেন তিনি।

রোনাল্ডোর গোলগুলো দেখুন-

এক ম্যাচেই ৫ রেকর্ড গড়লেন রোনাল্ডো! (ভিডিও)

 স্পোর্টস ডেস্ক 
১৬ জুন ২০২১, ০২:৫৬ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউরোকাপে মাঠে নেমেই রেকর্ড গড়লেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো।  ইউরোয় সবচেয়ে বেশি আসরে উপস্থিতির রেকর্ড গড়লেন তিনি।

এরপর ম্যাচ শেষে দেখা গেল এর সঙ্গে যুক্ত হলো আরো চারটি রেকর্ড। 

বুদাপেস্টের পুসকাস অ্যারেনায় মঙ্গলবার ‘এফ’ গ্রুপের ম্যাচে হাঙ্গেরির মুখোমুখি হয় পর্তুগাল। এ ম্যাচে ৬০ হাজারের বেশি দর্শক গ্যালারিতে বসে খেলা দেখার সুযোগ পান। ম্যাচে হাঙ্গেরিকে ৩-০ গোলে হারিয়েছে পর্তুগাল, যার মধ্যে দুটি গোলই রোনাল্ডোর।

অথচ ম্যাচে শুরু থেকে শেষ ৮৭ মিনিট পর্যন্ত বারবার ব্যর্থ হয়েছেন পর্তুগিজ তারকা রোনাল্ডো। এ সময়কালে হাঙ্গেরির গোলরক্ষককে পরাস্ত করে বল জালে জড়াতে ব্যর্থ হন তিনি। 

এতে অনেকটা হতাশ ছিল গ্যালারির ৬০ হাজার দর্শক। অন্তিম সময়ে এসে গোলের খাতায় নাম লেখান রোনাল্ডো। সমর্থকদের আনন্দ দেওয়ার পাশাপাশি গড়লেন একগাদা কীর্তি।

ম্যাচের ৮৩ মিনিট পর্যন্ত খেলা ছিল পর্তুগাল বনাম গুলাসি। হাঙ্গেরির গোলমুখে অতিমানব হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন।

ম্যাচ শুরুর পাঁচ মিনিট থেকে ৮৩ মিনিট পর্যন্ত কমপক্ষে ১০টি দারুণ সেভ করে জাল অক্ষত রাখেন গুলাসি।

পঞ্চম মিনিটে জটার বাঁ -পায়ের শট ও ১৮ তম মিনিটে রোনাল্ডোর শট ঠেকিয়ে জাল অক্ষত রাখেন গুলাসি।

৪১তম মিনিটে জটার আরেকটি প্রচেষ্টা ফেরান গুলাসি। ৪৩তম মিনিটে গোলপোস্ট থেকে চার গজ দূর থেকেও বল জালে জড়াতে পারেননি পাঁচবারের বর্ষসেরা ফুটবলার রোনাল্ডো।

৪৮তম মিনিটে পেপের হেড ফিরিয়ে দেন গুলাসি। ৬৭তম মিনিটে ফের্নান্দেসের শট কর্নারের বিনিময়ে রক্ষা করেন গুলাসি।

৮৪তম মিনিটে অনেকটা ভাগ্যগুণে গোল পেয়ে যায় পর্তুগাল। এরপর শেষ পাঁচ মিনেটে জাদু দেখান  রোনাল্ডো । করেন দুই গোল! 

৮৭তম মিনিটে রাফা সিলভা ডি-বক্সে ফাউলের শিকার হওয়ায় পেনাল্টি পায় পর্তুগাল। সফল স্পট কিক থেকে রোনাল্ডোর নেওয়া আগুনে গতির বল আর ফেরাতে পারেননি গুলাসি। 

এর গোলের পর ইউরোর ইতিহাসে ১০ গোল করা প্রথম খেলোয়াড় বনে যান সিআরসেভেন। 

শেষ বাঁশির ঠিক আগে করলেন আরেকটি গোল। সতীর্থ রাফা সিলভার সঙ্গে বল দেওয়া-নেওয়া করে গোলরক্ষককে একা পেয়ে যান তিনি। তাকেও কাটিয়ে ফাঁকা পোস্টে গোলটা করেন পর্তুগিজ তারকা।

 এ দুই গোলের সুবাদে একগাদা রেকর্ড গড়ে ইউরো কাপের সর্বকালের সর্বোচ্চ গোলদাতা হয়ে গেছেন পর্তুগালের অধিনায়ক। গোলের রেকর্ডে ছাড়িয়ে গেছেন ফ্রান্স কিংবদন্তি মিশেল প্লাতিনিকে (৯)।  

ইউরোর মূল পর্বে রোনাল্ডোর গোল হলো ১১টি। টুর্নামেন্টের ইতিহাসে প্রথম খেলোয়াড় হিসেবেই ১০+ গোল করলেন তিনি। 

এছাড়া জার্মানির বাস্তিয়ান শোয়াইনস্টাইগারকে ছাড়িয়ে ইউরোপের খেলোয়াড়দের মধ্যে মেজর টুর্নামেন্টে (বিশ্বকাপ, ইউরো) সবচেয়ে বেশি ম্যাচ (৩৯) খেলার রেকর্ড নিজের করে নিয়েছেন তিনি।

ফুটবল ইতিহাসের প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে টানা ১১টি আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টে গোল করার রেকর্ডটিও নিজের দখলে নিয়ে রাখলেন রোনাল্ডো। ২০০৪ ইউরো, ২০০৬ বিশ্বকাপ, ২০০৮ ইউরো, ২০১০ বিশ্বকাপ, ২০১২ ইউরো, ২০১৪ বিশ্বকাপ, ২০১৬ ইউরো, ২০১৭ কনফেডারেশনস কাপ, ২০১৮ বিশ্বকাপ, ২০১৯ নেশনস লিগ ও ২০২০ সালের ইউরোতে অন্তত একটি করে গোল করেছিলেন তিনি। 

এছাড়া ইউরোর ইতিহাসে সবচেয়ে বয়স্ক খেলোয়াড় হিসেবে এক ম্যাচে জোড়া গোলের রেকর্ডও গড়েছেন বর্তমান সময়ের অন্যতম সেরা এ ফুটবলার। হাঙ্গেরির বিপক্ষে ম্যাচে তার বয়স ৩৬ বছর ১৩০ দিন।

আরো একটি রেকর্ডের দ্বারপ্রান্তে রোনাল্ডো। দেশের হয়ে ১৭৫ ম্যাচে তার গোল ১০৬টি। আর ৩টি হলে ইরানের আলি দাইয়ের গড়া আন্তর্জাতিক ফুটবলে ১০৯ গোলের রেকর্ড স্পর্শ করবেন তিনি।

রোনাল্ডোর গোলগুলো দেখুন- 

 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন