কোর্টেই দুই নারী টেনিস তারকার ঝগড়া (ভিডিও)
jugantor
কোর্টেই দুই নারী টেনিস তারকার ঝগড়া (ভিডিও)

  স্পোর্টস ডেস্ক  

০৪ জুলাই ২০২১, ২৩:১৭:২২  |  অনলাইন সংস্করণ

উইম্বলডনে মামুলি বিষয়কে কেন্দ্র করে বাগবিতণ্ডায় জড়িয়ে যান দুই টেনিস তারকা। আম্পায়ারদের হস্তক্ষেপে দুই জনকে থামানো হয়।

শনিবার জেলেনা অস্টাপেঙ্কো বনাম আজলা টমলানোভিচের ম্যাচ চলাকালীন এ ঘটনা ঘটে। তৃতীয় সেটে এক সময় ০-৪ গেমে পিছিয়ে ছিলেন অস্টাপেঙ্কো। টমলানোভিচ সার্ভ করতে যাবেন, এমন সময় ‘মেডিকেল টাইমআউটের’ অনুরোধ করেন অস্টাপেঙ্কো।

টমলানোভিচের অভিযোগ, তার সুযোগ নষ্ট করতেই চোটের বাহানা করছেন অস্টাপেঙ্কো। আম্পায়ারকে বলেন, ও মিথ্যে কথা বলছে সেটা আপনি বুঝতে পারছেন না?

পাল্টা জবাবে অস্টাপেঙ্কো বলেন, যদি তোমার মনে হয় আমি বাহানা দিচ্ছি, তাহলে আমার ফিজিয়োকে গিয়ে জিজ্ঞাসা করো। তোমার আচরণ ভয়ঙ্কর। প্রতিপক্ষের প্রতি কোনও শ্রদ্ধাই নেই তোমার।

উত্তরে টমলানোভিচ বলেন, তোমার মুখে এ কথা মানায় না।

সাংবাদিক সম্মেলনে টমলানোভিচের সম্পর্কে অস্টাপেঙ্কো বলেছেন, নারীদের টেনিসে সব থেকে খারাপ খেলোয়াড়। ওর আচরণ অত্যন্ত খারাপ। ও জিতছিল ঠিকই, তার মানে এই নয় যে যা খুশি তাই বলতে পারে। প্রতিপক্ষকে অপমান করেছে। কারণ চোটের ব্যাপারে ও কিছু জানেই না। চোট যে কারও হতে পারে।

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা

কোর্টেই দুই নারী টেনিস তারকার ঝগড়া (ভিডিও)

 স্পোর্টস ডেস্ক 
০৪ জুলাই ২০২১, ১১:১৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

উইম্বলডনে মামুলি বিষয়কে কেন্দ্র করে বাগবিতণ্ডায় জড়িয়ে যান দুই টেনিস তারকা। আম্পায়ারদের হস্তক্ষেপে দুই জনকে থামানো হয়। 

শনিবার জেলেনা অস্টাপেঙ্কো বনাম আজলা টমলানোভিচের ম্যাচ চলাকালীন এ ঘটনা ঘটে। তৃতীয় সেটে এক সময় ০-৪ গেমে পিছিয়ে ছিলেন অস্টাপেঙ্কো। টমলানোভিচ সার্ভ করতে যাবেন, এমন সময় ‘মেডিকেল টাইমআউটের’ অনুরোধ করেন অস্টাপেঙ্কো।

টমলানোভিচের অভিযোগ, তার সুযোগ নষ্ট করতেই চোটের বাহানা করছেন অস্টাপেঙ্কো। আম্পায়ারকে বলেন, ও মিথ্যে কথা বলছে সেটা আপনি বুঝতে পারছেন না?

পাল্টা জবাবে অস্টাপেঙ্কো বলেন, যদি তোমার মনে হয় আমি বাহানা দিচ্ছি, তাহলে আমার ফিজিয়োকে গিয়ে জিজ্ঞাসা করো। তোমার আচরণ ভয়ঙ্কর। প্রতিপক্ষের প্রতি কোনও শ্রদ্ধাই নেই তোমার।

উত্তরে টমলানোভিচ বলেন, তোমার মুখে এ কথা মানায় না।

সাংবাদিক সম্মেলনে টমলানোভিচের সম্পর্কে অস্টাপেঙ্কো বলেছেন, নারীদের টেনিসে সব থেকে খারাপ খেলোয়াড়। ওর আচরণ অত্যন্ত খারাপ। ও জিতছিল ঠিকই, তার মানে এই নয় যে যা খুশি তাই বলতে পারে। প্রতিপক্ষকে অপমান করেছে। কারণ চোটের ব্যাপারে ও কিছু জানেই না। চোট যে কারও হতে পারে।

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন