মুশফিকের বিদায়, হার দেখছে বাংলাদেশ
jugantor
মুশফিকের বিদায়, হার দেখছে বাংলাদেশ

  স্পোর্টস ডেস্ক  

০৮ ডিসেম্বর ২০২১, ১৪:৫৮:২৬  |  অনলাইন সংস্করণ

সাকিবের সঙ্গে মুশফিকের ৪৯ রানের জুটি ভাঙল। ৪৮ রানে রান আউট হয়ে যান ‘মিস্টার ডিপেন্ডেবল’।

এ উইকেটের পতনের পর ইনিংস ব্যবধানে হারের শঙ্কা জেঁকে বসেছে। যদিও ২৫ রান নিয়ে এখনও ক্রিজে আছেন সাকিব আল হাসান।

এখন বাংলাদেশের সংগ্রহ ৬ উইকেটে ১৪৭ রান।

ড্র করতে হলে আরও ৩৫ ওভার ৫ বল খেলতে হবে বাংলাদেশকে। আর ইনিংস ব্যবধানে হার এড়াতে করতে হবে ৬৬ রান।

ঢাকা টেস্টের প্রথম তিন দিনই ছিল বৃষ্টি। তিন দিনে অন্তত ৯০ ওভার করে ২৭০ ওভার খেলা হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু খেলা হয়েছে সর্বসাকুল্যে ৬৩.৩ ওভার।

মঙ্গলবার চতুর্থ দিনে ফের ব্যাটিংয়ে নেমে ৩৫ ওভার খেলে ২ উইকেট হারিয়ে ১১২ রান তুলে ৩০০/৪ রানে ইনিংস ঘোষণা করে পাকিস্তান।

জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে সময়ের ব্যবধানে উইকেট হারায় বাংলাদেশ। সেদিন ২০.৪ ওভারে ৭১ রানে ৭ উইকেট হারায় স্বাগতিকরা।

ঢাকা টেস্টে ইনিংস ব্যবধানে পরাজয় এড়াতে হলে বুধবার শেষ দিনে দায়িত্বশীল ব্যাটিং করতে হবে টাইগারদের।

এমন পরিস্থিতিতে সকালে মাঠে নেমে ৮৭ রানে অলআউট হয় বাংলাদেশ।

পরে দ্বিতীয় ইনিংসে মাঠে নেমে শাহীন আফ্রিদি ও হাসান আলির তোপের মুখে দাঁড়াতেই পারছিল না বাংলাদেশের ব্যাটাররা। দ্রুত পড়তে থাকে উইকেট। এর পর লিটন ও মুশফিক কিছুটা প্রতিরোধ গড়ে তোলেন। লিটন ফিরে যাওয়ার পর এখন হাল ধরেছেন সাকিব আল হাসান। এখন মুশফিকও ফিরে যাওয়ায় বিপদে পড়ে গেছে টাইগাররা।

মুশফিকের বিদায়, হার দেখছে বাংলাদেশ

 স্পোর্টস ডেস্ক 
০৮ ডিসেম্বর ২০২১, ০২:৫৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

সাকিবের সঙ্গে মুশফিকের ৪৯ রানের জুটি ভাঙল। ৪৮ রানে রান আউট হয়ে যান ‘মিস্টার ডিপেন্ডেবল’।

এ উইকেটের পতনের পর ইনিংস ব্যবধানে হারের শঙ্কা জেঁকে বসেছে। যদিও ২৫ রান নিয়ে এখনও ক্রিজে আছেন সাকিব আল হাসান।

এখন বাংলাদেশের সংগ্রহ ৬ উইকেটে ১৪৭ রান।

ড্র করতে হলে আরও ৩৫ ওভার ৫ বল খেলতে হবে বাংলাদেশকে।  আর ইনিংস ব্যবধানে হার এড়াতে করতে হবে ৬৬ রান।

ঢাকা টেস্টের প্রথম তিন দিনই ছিল বৃষ্টি। তিন দিনে অন্তত ৯০ ওভার করে ২৭০ ওভার খেলা হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু খেলা হয়েছে সর্বসাকুল্যে ৬৩.৩ ওভার।

মঙ্গলবার চতুর্থ দিনে ফের ব্যাটিংয়ে নেমে ৩৫ ওভার খেলে ২ উইকেট হারিয়ে ১১২ রান তুলে ৩০০/৪ রানে ইনিংস ঘোষণা করে পাকিস্তান।

জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে সময়ের ব্যবধানে উইকেট হারায় বাংলাদেশ। সেদিন ২০.৪ ওভারে ৭১ রানে ৭ উইকেট হারায় স্বাগতিকরা।

ঢাকা টেস্টে ইনিংস ব্যবধানে পরাজয় এড়াতে হলে বুধবার শেষ দিনে দায়িত্বশীল ব্যাটিং করতে হবে টাইগারদের।

এমন পরিস্থিতিতে সকালে মাঠে নেমে ৮৭ রানে অলআউট হয় বাংলাদেশ।

পরে দ্বিতীয় ইনিংসে মাঠে নেমে শাহীন আফ্রিদি ও হাসান আলির তোপের মুখে দাঁড়াতেই পারছিল না বাংলাদেশের ব্যাটাররা। দ্রুত পড়তে থাকে উইকেট। এর পর লিটন ও মুশফিক কিছুটা প্রতিরোধ গড়ে তোলেন।  লিটন ফিরে যাওয়ার পর এখন হাল ধরেছেন সাকিব আল হাসান। এখন মুশফিকও ফিরে যাওয়ায় বিপদে পড়ে গেছে টাইগাররা।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন