এখন থেকে সব ফরম্যাটেই সে খেলবে: পাপন
jugantor
এখন থেকে সব ফরম্যাটেই সে খেলবে: পাপন

  স্পোর্টস ডেস্ক  

২৩ জানুয়ারি ২০২২, ১২:২৫:০২  |  অনলাইন সংস্করণ

করোনাকালীন জাতীয় দলের খেলায় অনিয়মিত সাকিব আল হাসান। অনেক সময়ই ছুটি নিয়ে পরিবারকে সময় দিতে ছুটে গেছেন যুক্তরাষ্ট্রে।

বাংলাদেশ দলের সর্বশেষ নিউজিল্যান্ড সফরেও সাকিব ছিলেন না।

তবে এবার সাকিব জানালেন, এখন থেকে নিয়মিত সব ফরম্যাটে খেলবেন। বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনকে এমন আশ্বাস দিয়েছেন বিশ্বসেরা অন্যতম অলরাউন্ডার।

শনিবার মিরপুর শেরেবাংলায় সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে বিসিবিবস পাপন বলেন, ‘সাকিবের সঙ্গে আমার শেষ যে কথা হয়, সেটির পর কথা বলেছে হয়তো আপনাদের সঙ্গে। আমার সঙ্গে যা কথা হয়েছে— সব ফরম্যাটেই সে খেলবে। ও জানুয়ারি থেকে সব ফরম্যাটে খেলবে। কোনো খেলা মিস করবে না। এর মধ্যে টেস্টও নিশ্চয়ই থাকবে।’

উল্লেখ্য, শ্রীলংকার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে অংশ না নিয়ে সাকিব খেলেছেন আইপিএল। সাকিবের শ্রীলংকায় না যাওয়া কেন্দ্র করে জলঘোলা কম হয়নি গত বছর।

সেই সময় বিসিবি সভাপতি থেকে শুরু করে নির্বাচকরাও বলেছিলেন— সাকিব টেস্ট খেলতে চান না। যদিও সাকিব বরাবরই ‘অভিযোগ’ অস্বীকার করে আসছিলেন।

গেল চার বছর ধরে নানান জটিলতার কারণে দেশের হয়ে ১৮টির মতো টেস্ট খেলেননি সাকিব। ইনজুরি, নিষেধাজ্ঞা আর ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে ওই সিরিজগুলো থেকে নিজেকে সরিয়ে নেন সাকিব।

এখন থেকে সব ফরম্যাটেই সে খেলবে: পাপন

 স্পোর্টস ডেস্ক 
২৩ জানুয়ারি ২০২২, ১২:২৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

করোনাকালীন জাতীয় দলের খেলায় অনিয়মিত সাকিব আল হাসান। অনেক সময়ই ছুটি নিয়ে পরিবারকে সময় দিতে ছুটে গেছেন যুক্তরাষ্ট্রে। 

বাংলাদেশ দলের সর্বশেষ নিউজিল্যান্ড সফরেও সাকিব ছিলেন না।

তবে এবার সাকিব জানালেন, এখন থেকে নিয়মিত সব ফরম্যাটে খেলবেন। বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনকে এমন আশ্বাস দিয়েছেন বিশ্বসেরা অন্যতম অলরাউন্ডার। 

শনিবার মিরপুর শেরেবাংলায় সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে বিসিবিবস পাপন বলেন, ‘সাকিবের সঙ্গে আমার শেষ যে কথা হয়, সেটির পর কথা বলেছে হয়তো আপনাদের সঙ্গে। আমার সঙ্গে যা কথা হয়েছে— সব ফরম্যাটেই সে খেলবে। ও জানুয়ারি থেকে সব ফরম্যাটে খেলবে। কোনো খেলা মিস করবে না। এর মধ্যে টেস্টও নিশ্চয়ই থাকবে।’
 

উল্লেখ্য, শ্রীলংকার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে অংশ না নিয়ে সাকিব খেলেছেন আইপিএল। সাকিবের শ্রীলংকায় না যাওয়া কেন্দ্র করে জলঘোলা কম হয়নি গত বছর। 

সেই সময় বিসিবি সভাপতি থেকে শুরু করে নির্বাচকরাও বলেছিলেন— সাকিব টেস্ট খেলতে চান না। যদিও সাকিব বরাবরই ‘অভিযোগ’ অস্বীকার করে আসছিলেন। 

গেল চার বছর ধরে নানান জটিলতার কারণে দেশের হয়ে ১৮টির মতো টেস্ট খেলেননি সাকিব। ইনজুরি, নিষেধাজ্ঞা আর ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে ওই সিরিজগুলো থেকে নিজেকে সরিয়ে নেন সাকিব।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন