‘দশ টাকার পেপসি, সাকিব ভাই...’
jugantor
‘দশ টাকার পেপসি, সাকিব ভাই...’

  স্পোর্টস ডেস্ক  

২৭ মে ২০২২, ১১:২৮:১২  |  অনলাইন সংস্করণ

ঢাকা টেস্টের ৪র্থ দিনটি ছিল শ্রীলংকার। আরও নির্দিষ্ট করে বলতে গেলে অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুস আর দিনেশ চান্দিমালের।

এদিন পাঁচ উইকেটে ২৮২ রান নিয়ে খেলতে নেমে শ্রীলংকা থেমেছে ৫০৬ রান করে। দিনেশ চান্দিমাল ১২৪ রানে থামলেও ম্যাথুসকে আউট করতেই পারেননি টাইগার বোলাররা। ১৪৫ রানে অপরাজিত থেকে যান ম্যাথুস।

এ দুই ব্যাটারের দীর্ঘ ইনিংস চলাকালীন চতুর্থ দিনের প্রথম দুই সেশনে ম্যাড়ম্যাড়ে রূপ নেয় ঢাকা টেস্ট।

এ সময় নিজেকে ও দর্শকদের একটু আনন্দ দিতে কত কিছুই না করলেন সাকিব আল হাসান।

কখনো শ্যাডো করে, কখনো দর্শকদের উদ্দেশ্যে হাত নাড়িয়ে, কখনো জার্সি দেখিয়ে বিনোদন দেন সাকিব।

সুযোগ পেয়ে দর্শকরাও সাকিবের সঙ্গে খুনসুঁটিতে মাতেন।

ইস্টার্ন ও সাউদার্ন দুই গ্যালারির দশর্করা উচ্চস্বরে স্লোগান দিতে শুরু করেন, ‘শিরায় শিরায় রক্ত, আমরা সাকিব ভাইয়ের ভক্ত।’
এর পর তারা বলতে থাকেন, ‘দশ টাকার পেপসি, সাকিব ভাই...।’

ফিল্ডিংয়ের মাঝেই নিরাপত্তা কর্মীর সঙ্গে আলাপও সারেন সাকিব।

সাকিবের সব মজার কাণ্ড যখন এক নিরাপত্তা কর্মী নিজের মোবাইল ক্যামেরায় ভিডিও ধারণ করছিলেন তখন এ অলরাউন্ডার বলে ওঠেন, ‘ভাই কি টিকটক করছেন নাকি?’

এরই মধ্যে গ্যালারির উদ্দেশ্যে একটি পানির বোতল আর একটি জুসের বোতল ছুড়ে মারেন সাকিব, যা নিয়ে কাড়াকাড়ি লেগে যায় দর্শকদের মাঝে।

ঘটনার বর্ণনা দিয়ে রাশিদুল হাকিম আরিয়ান নামে এক দর্শক উচ্ছ্বসিত কণ্ঠে বলেন, ‘আমরা ইস্টার্ন গ্যালারিতে খেলা দেখছিলাম। পরে সাকিব ভাই এখানে ফিল্ডিং করতে এলে আমরা স্লোগান দিই তার নাম ধরে। তিনি আমাদের হাতের ইশারায় বললেন, তোমরা নিচে আসো। আমরা গেলাম, হাই-হ্যালো করলাম। সাকিব ভাইকে বললাম, ভাই আপনার মাথার ক্যাপটা দেন, এক বোতল পানি দেন। পরে সাকিব ভাই হাই দিলেন। এর পর প্রথমে পানির বোতল দিলেন এবং পরে জুসের বোতলটা দিলেন।’

আর যাই হোক, সাকিবের ৫ উইকেট শিকার ও ফিল্ডিংয়ে গ্যালারির দর্শকদের মাতিয়ে রাখার বিষয় ছিল গতাকালের আলোচনার বিষয়।

টেস্ট ক্রিকেটটা খুব বেশি উপভোগ করেন না সাকিব- চলমান বক্তব্যটি অনেকটাই স্তিমিত হতে পারে ঢাকা টেস্টের পর।

‘দশ টাকার পেপসি, সাকিব ভাই...’

 স্পোর্টস ডেস্ক 
২৭ মে ২০২২, ১১:২৮ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ঢাকা টেস্টের ৪র্থ দিনটি ছিল শ্রীলংকার। আরও নির্দিষ্ট করে বলতে গেলে অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুস আর দিনেশ চান্দিমালের।

এদিন পাঁচ উইকেটে ২৮২ রান নিয়ে খেলতে নেমে শ্রীলংকা থেমেছে ৫০৬ রান করে।  দিনেশ চান্দিমাল ১২৪ রানে থামলেও ম্যাথুসকে আউট করতেই পারেননি টাইগার বোলাররা। ১৪৫ রানে অপরাজিত থেকে যান ম্যাথুস।

এ দুই ব্যাটারের দীর্ঘ ইনিংস চলাকালীন চতুর্থ দিনের প্রথম দুই সেশনে ম্যাড়ম্যাড়ে রূপ নেয় ঢাকা টেস্ট।

এ সময় নিজেকে ও দর্শকদের একটু আনন্দ দিতে কত কিছুই না করলেন সাকিব আল হাসান।

কখনো শ্যাডো করে, কখনো দর্শকদের উদ্দেশ্যে হাত নাড়িয়ে, কখনো জার্সি দেখিয়ে বিনোদন দেন সাকিব।

সুযোগ পেয়ে দর্শকরাও সাকিবের সঙ্গে খুনসুঁটিতে মাতেন।

ইস্টার্ন ও সাউদার্ন দুই গ্যালারির দশর্করা উচ্চস্বরে স্লোগান দিতে শুরু করেন, ‘শিরায় শিরায় রক্ত, আমরা সাকিব ভাইয়ের ভক্ত।’ 
এর পর তারা বলতে থাকেন, ‘দশ টাকার পেপসি, সাকিব ভাই...।’ 

ফিল্ডিংয়ের মাঝেই নিরাপত্তা কর্মীর সঙ্গে আলাপও সারেন সাকিব।

সাকিবের সব মজার কাণ্ড যখন এক নিরাপত্তা কর্মী নিজের মোবাইল ক্যামেরায় ভিডিও ধারণ করছিলেন তখন এ অলরাউন্ডার বলে ওঠেন, ‘ভাই কি টিকটক করছেন নাকি?’ 

এরই মধ্যে গ্যালারির উদ্দেশ্যে একটি পানির বোতল আর একটি জুসের বোতল ছুড়ে মারেন সাকিব, যা নিয়ে কাড়াকাড়ি লেগে যায় দর্শকদের মাঝে।

ঘটনার বর্ণনা দিয়ে রাশিদুল হাকিম আরিয়ান নামে এক দর্শক উচ্ছ্বসিত কণ্ঠে বলেন, ‘আমরা ইস্টার্ন গ্যালারিতে খেলা দেখছিলাম। পরে সাকিব ভাই এখানে ফিল্ডিং করতে এলে আমরা স্লোগান দিই তার নাম ধরে। তিনি আমাদের হাতের ইশারায় বললেন, তোমরা নিচে আসো। আমরা গেলাম, হাই-হ্যালো করলাম। সাকিব ভাইকে বললাম, ভাই আপনার মাথার ক্যাপটা দেন, এক বোতল পানি দেন। পরে সাকিব ভাই হাই দিলেন। এর পর প্রথমে পানির বোতল দিলেন এবং পরে জুসের বোতলটা দিলেন।’

আর যাই হোক, সাকিবের ৫ উইকেট শিকার ও ফিল্ডিংয়ে গ্যালারির দর্শকদের মাতিয়ে রাখার বিষয় ছিল গতাকালের আলোচনার বিষয়। 

টেস্ট ক্রিকেটটা খুব বেশি উপভোগ করেন না সাকিব- চলমান বক্তব্যটি অনেকটাই স্তিমিত হতে পারে ঢাকা টেস্টের পর।
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : বাংলাদেশ-শ্রীলংকা টেস্ট সিরিজ, ঢাকা ২০২২