লজ্জার হার ইংল্যান্ডের
jugantor
লজ্জার হার ইংল্যান্ডের

  স্পোর্টস ডেস্ক  

১৯ আগস্ট ২০২২, ২১:১১:২৩  |  অনলাইন সংস্করণ

ঐতিহ্যবাহী লর্ডসে ইনিংস ব্যবধানে হারল স্বাগতিক ইংল্যান্ড। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজের প্রথম খেলায়চরম ব্যাটিং বিপর্যয়ের কারণে ইনিংস ও ১২ রানের ব্যবধানে হারে বেন স্টোকসের নেতৃত্বাধীন দলটি।

বুধবার টস হেরে আগে ব্যাটিংয়ে নেমেই কাগিসো রাবাদার গতির মুখে পড়ে ইংল্যান্ড। স্কোর বোর্ডে ৪২ রান জমা করতেই দুই ওপেনার অ্যালেক্স লি, জ্যাক ক্রলি ও সাবেক অধিনায়ক জো রুটের উইকেট হারায় ইংল্যান্ড। চার উইকেটে ১০০ রান কর দলটি এরপর মাত্র ৬৫ রান সংগ্রহ করতেই হারায় বাকি ৬ উইকেট। রাবাদা, আনরিচ নর্টজে ও মার্কু জেনসেনের গতির মুখে পড়ে ৪৫ ওভোরে ১৬৫ রানেই অলআউট হয় ইংল্যান্ড। দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৭৩ রান করেন ওলি পোপ। দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে রাবাদা তিন আর নর্টজে ৩ উইকেট শিকার করেন। ২ উইকেট নেন জেনসেন।

জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে সেরেল এরউই (৭৩ ), মার্কু জেনসেন (৪৮), ডিন এলগার (৪৭) ও কেশভ মহারাজের (৪১) দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে ১৬১ রানের লিড নিয়ে ৩২৬ রানে অলআউট হয় দক্ষিণ আফ্রিকা। ৩টি করে উইকেট নেন বেন স্টোকস ও স্টুয়ার্ড ব্রড।

১৬১ রানে পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিংয়ে নেমে সুবিধা করতে পারেনি ইংল্যান্ড। সময়ের ব্যবধানে উইকেট হারিয়ে ৩৭.৪ ওভারে ১৪৯ রানেই অলআউট হয় ইংল্যান্ড। দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৩৫ রান করে করেন অ্যালেক্স লি ও স্টুয়ার্ড ব্রড। দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে আনরিচ নর্টজে ৩ উইকেট এবং আর কাগিসো রাবাদা, কেশভ মহারাজ ও মার্কাস জেনসেন ২টি করে উইকেট নেন।

লজ্জার হার ইংল্যান্ডের

 স্পোর্টস ডেস্ক 
১৯ আগস্ট ২০২২, ০৯:১১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ঐতিহ্যবাহী লর্ডসে ইনিংস ব্যবধানে হারল স্বাগতিক ইংল্যান্ড। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজের প্রথম খেলায় চরম ব্যাটিং বিপর্যয়ের কারণে ইনিংস ও ১২ রানের ব্যবধানে হারে বেন স্টোকসের নেতৃত্বাধীন দলটি। 

বুধবার টস হেরে আগে ব্যাটিংয়ে নেমেই কাগিসো রাবাদার গতির মুখে পড়ে ইংল্যান্ড।  স্কোর বোর্ডে ৪২ রান জমা করতেই দুই ওপেনার অ্যালেক্স লি, জ্যাক ক্রলি ও সাবেক অধিনায়ক জো রুটের উইকেট হারায় ইংল্যান্ড। চার উইকেটে ১০০ রান কর দলটি এরপর মাত্র ৬৫ রান সংগ্রহ করতেই হারায় বাকি ৬ উইকেট। রাবাদা, আনরিচ নর্টজে ও মার্কু জেনসেনের গতির মুখে পড়ে ৪৫ ওভোরে ১৬৫ রানেই অলআউট হয় ইংল্যান্ড। দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৭৩ রান করেন ওলি পোপ। দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে রাবাদা তিন আর নর্টজে ৩ উইকেট শিকার করেন। ২ উইকেট নেন জেনসেন।

জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে সেরেল এরউই (৭৩ ), মার্কু জেনসেন (৪৮), ডিন এলগার (৪৭) ও কেশভ মহারাজের (৪১) দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে ১৬১ রানের লিড নিয়ে ৩২৬ রানে অলআউট হয় দক্ষিণ আফ্রিকা। ৩টি করে উইকেট নেন বেন স্টোকস ও স্টুয়ার্ড ব্রড।

১৬১ রানে পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিংয়ে নেমে সুবিধা করতে পারেনি ইংল্যান্ড।  সময়ের ব্যবধানে উইকেট হারিয়ে ৩৭.৪ ওভারে ১৪৯ রানেই অলআউট হয় ইংল্যান্ড।  দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৩৫ রান করে করেন অ্যালেক্স লি ও স্টুয়ার্ড ব্রড। দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে আনরিচ নর্টজে ৩ উইকেট এবং আর কাগিসো রাবাদা, কেশভ মহারাজ ও মার্কাস জেনসেন ২টি করে উইকেট নেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন