অ্যান্টিগা টেস্টের দ্বিতীয় দিনের খেলা শুরু

প্রকাশ : ০৫ জুলাই ২০১৮, ১৯:৫১ | অনলাইন সংস্করণ

  স্পোর্টস রিপোর্টার

কামরুল ইসলাম রাব্বি

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে অ্যান্টিগা টেস্টের প্রথম দিনটি ব্যর্থতায় কেটেছে সাকিব আল হাসানের নেতৃত্বাধীন বাংলাদেশ দলের। আজ দ্বিতীয় দিনে সাকিব-তামিমরা অবশ্যই চাইবেন সকালের সেশনে স্বাগতিকদের বেশ কিছু উইকেট তুলে নিতে। 

আগের দিনের করা দুই উইকেটের ২০১ রান নিয়ে ফের ব্যাটিংয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। 

প্রথম দিনে ব্যর্থ টাইগাররা

বাংলাদেশ ১ম ইনিংস: ৪৩/১০ (লিটন ২৫; কেমার রোচ ৫/৮)।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১ম ইনিংস: ২০১/২ (ব্রাথওয়েট ৮৮*, স্মিথ ৫৮, পাওয়েল ৪৮)।

অাগে ব্যাটিংয়ে নেমে ৪৩ রানেই অলআউটের লজ্জায় পড়ে সাকিব আল হাসানের নেতৃত্বাধীন দল। দলের ওপেনার লিটন কুমার করেন ২৫ রান। বাকি ১৮ রান করেন ৯জন ব্যাটসম্যান। তবে রানের খাতা খোলার আগেই সাজঘরে ফেরেন মুশফিক-সাকিব-মাহমুদউল্লাহর মতো সিনিয়র ব্যাটসম্যান।

ব্যাটিং বিপর্যয়ের পর বোলিংয়েও বিবর্ণ বাংলাদেশ দল। সারা দিনের খাটাখাটুনির ফসল মাত্র ২ উইকেট। ১১৩ রানে ক্যারিবীয় ওপেনিং জুটি ভাঙেন অভিষিক্ত আবু জায়েদ রাহী।

দিনের শেষ মূহুর্তে ব্রাথওয়েট এবং কিয়েরন পাওয়েলের মধ্যকার ৮১ রানের জুটি ভাঙেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। লিটনের হাতে ক্যাচ তুলে বিদায় নেয়ার আগে ৪৮ রান করেন পাওয়েল। ৮৮ রান করে সেঞ্চুরির অপেক্ষায় আছেন ওপেনার ব্রাথওয়েট।

টাইগারদের ব্যাটিং শেখালো ওয়েস্ট ইন্ডিজ

প্রত্যেক ক্রিকেটারের স্বপ্ন থাকে নিজের অভিষেক ম্যাচটা ঝলমলে করে রাখার। সেই স্বপ্ন নিয়েই বুধবার অ্যান্টিগায় ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে খেলতে নেমেছেন আবু জায়েদ রাহী।কিন্তু দুর্ভাগ্য, তার ডেবু ম্যাচে বাজে রেকর্ড গড়ল বাংলাদেশ দল।

টেস্টের সাদা পোশাকে ৪৩ রানে অলআউট হয়ে দেশের ক্রিকেটকে প্রশ্নবিদ্ধ করেছে সাকিব আল হাসানের নেতৃত্বাধীন দল। এই লজ্জা ঘুচানো সম্ভব কিনা তা সময়ই বলে দেবে।

ক্যারিবীয় ব্যাটসম্যানরা সাকিব-তামিদের শিখেয়েছেন টেস্টে কিভাবে ব্যাটিং করতে হয়।

তার আগে অভিষিক্ত আবু জায়েদ রাহীর গতির বলে উইকেটকিপার নূরুল হাসান সোহানের হাতে ক্যাচ তুলে বিদায় নিয়েছেন ক্যারিবীয় ওপেনার ডেভন স্মিথ। সাজঘরে ফেরার আগে ব্যক্তিগতভাবে ৫৮ রান করার পাশাপাশি ব্রাথওয়েটের সঙ্গে উদ্বোধনীতে গড়েছেন ১১৩ রানের জুটি।

বাংলাদেশ প্রথম ইনিংস ৪৩

ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে যাওয়ার আগ থেকেই স্বাগতিকদের পেস আক্রমণ নিয়ে আশঙ্কা করা হয়েছিল। বাস্তবে সেটাই হয়েছে। টসে হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে স্কোর বোর্ডে ১৮ রান জমা করতেই ৫ উইকেট হারিয়ে চরম বিপদে পড়ে বাংলাদেশ দল। ওপেনার তামিম ইকবাল এবং মুমিনুল হক রানের খাতা খোলার সুযোগ পেলেও শূন্য রানে ফিরে যান মুশফিকুর রহিম, অধিনায়ক সাকিব আল হাসান ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ।

পারলেন না তামিম

ইনিংসের পঞ্চম ওভারে কেমাররোচের বলে খোঁচা দিতে গিয়ে উইকেটকিপারের হাতে ক্যাচ তুলে দেন বাংলাদেশের সেরা ওপেনার তামিম ইকবাল। এদিন ১৫ রান করতে পারলে ৪ হাজার রানের মাইল ফলক স্পর্শ করার সুযোগ পেতেন তিনি। মাত্র ৪ রানেই সাজ ঘরে ফিরেন তামিম।

টেস্ট স্পেশালিস্ট ফিরেন ১ রানে

তামিমের বিদায়ের পরপরই ইনিংস মেরামত করার আগে সাজঘরের পথ ধরেন নতুন ব্যাটসম্যান মুমিনুল হক সৌরভ (১)। ইনিংসের সপ্তম ওভারে ক্যাচ তুলে দিয়ে সাজঘরে ফেরেন বাংলাদেশ দলের এই টেস্ট স্পেশালিস্ট ব্যাটসম্যান।

৪ বলে ৩ উইকেটে পতন

পরপর দুই ওভারে দুই উইকেট শিকার করা কেমাররোচ, নবম ওভারের আরও বেশি ভয়ানক হয়ে ওঠেন ক্যারিবীয় এই পেস বোলার। ওভারের দ্বিতীয় বলে মুশফিক, চতুর্থ বলে সাকিব আল হাসান এবং পঞ্চম বলে ফেরান মাহমুদউল্লাহ রিয়াদকে।

১৮ রানে টপঅর্ডার ৫ ব্যাটসম্যানের উইকেট হারিয়ে চরম বিপদে পড়ে যাওয়া বাংলাদেশকে আর খেলায় ফেরাতে পারেননি অন্য ওপেনার লিটন কুমার দাস।

কামিন্সের আঘাত

ইনিংসের ১৩তম ওভরের মিগুল কামিন্সের বলে ক্যাচ তুলে দিয়ে ফেরেন লিটন কুমার দাস। সাজঘরে ফেরার আগে তিনি করেন দলীয় সর্বোচ্চ ২৫ রান। তার বিদায়ের ঠিক চার বল ব্যবধানে ফেরেন উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান নূরুল হাসান সোহান।

বুধবার ওয়েস্ট ইন্ডিজের অ্যান্টিগার নর্থ সাউন্ডে টসে জিতে বাংলাদেশ দলকে আগে ব্যাটিং করার জন্য আমন্ত্রণ জানায় ওয়েস্ট ইন্ডিজের অধিনায়ক জেসন হোল্ডার।